Connect with us

পশ্চিম মেদিনীপুর

ফের বিজেপি কর্মীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার, তীব্র চাঞ্চল্য

Suicide

দাঁতন (পশ্চিম মেদিনীপুর): পুরুলিয়ার পর এ বার পশ্চিম মেদিনীপুর। ফের গাছে ঝুলন্ত অবস্থায় মিলল বিজেপি কর্মীর দেহ। বিজেপির দাবি, তৃণমূল কর্মীদের হাতে খুন হয়েছেন ওই ব্যক্তি। অন্য দিকে তৃণমূল বলছে এটি আত্মহত্যা।

মৃত বিজেপি কর্মীর নাম বর্ষা হাঁসদা। শুক্রবার সকালে একটি গাছে ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার হয় তাঁর দেহ।

উল্লেখ্য, লোকসভা নির্বাচনের আগে থেকেই দাঁতন উত্তপ্ত। বার বার তৃণমূল আর বিজেপির মধ্যে গোলমালের খবর এসেছে দাঁতন থেকে। মঙ্গলবারও তৃণমূল এবং বিজেপির মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছিল বলেও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে।

পশ্চিম মেদিনীপুরের জেলা বিজেপি সভাপতি সুমিত দাস বলেন, ‘‘বৃহস্পতিবার সন্তোষপুর এলাকায় বিজেপি কর্মীদের একটা পিকনিক ছিল। পিকনিকের পরে রাতে আর বর্ষা হাঁসদা বাড়ি ফেরেননি। আজ সকালে তাঁর ঝুলন্ত দেহ মিলল।’’

রাতের অন্ধকারে তৃণমূলের লোকজনই তাঁকে তুলে নিয়ে গিয়েছিল বলে বিজেপির অভিযোগ। খুন করে দেহ গাছে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছিল বলে তাঁরা দাবি করছেন।

লোকসভা নির্বাচনের আগে কিন্তু প্রায় একই ভাবে একের পর এক বিজেপির কর্মীর ঝুলন্ত দেহ মিলতে শুরু করেছিল পুরুলিয়া থেকে। ত্রিলোচন মাহাতো, দুলাল কুমার এবং শিশুপাল সহিস, এই তিন বিজেপি কর্মীর দেহ উদ্ধার হয়েছিল ঝুলন্ত অবস্থায়।

তৃণমূলের দাবি, এই মৃত্যুর সঙ্গে রাজনীতির কোনো যোগই নেই। পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা তৃণমূলের সভাপতি অজিত মাইতি বলেছেন, ‘‘পারিবারিক কারণে ওই ব্যক্তি আত্মহত্যা করেছেন। এটা কোনো খুন নয়, এর পিছনে কোনো রাজনীতিও নেই।’’

আরও পড়ুন টালা সেতু বন্ধের মধ্যে শহরের আরও একটি গুরুত্বপূর্ণ সেতু বন্ধের সম্ভাবনা, যানজটের আশঙ্কা

এমনকি যাঁর দেহ ঝুলন্ত অবস্থায় মিলেছে, তিনি কোনো কালেই বিজেপি কর্মী ছিলেন না বলেও অজিত মাইতি দাবি করেন।

তবে শুধু বিজেপিই নয়, বর্ষা হাঁসদার ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হতেই জনজাতি সমাজের সংগঠনও প্রতিবাদে শামিল হয়েছে। মাঝি-মাড়ওয়াদের সংগঠনের নেতারাও এ দিন দাঁতনে গিয়েছেন। বিক্ষোভ আরও বড়ো আকার নেওয়ার আশঙ্কা তৈরি হচ্ছে।

তবে তৃণমূলের দাবি, খড়গপুরের বিধানসভা উপনির্বাচনে ফায়দা তুলতে ইচ্ছে করে ব্যাপারটিকে অন্য মাত্রা দিচ্ছে বিজেপি।

পশ্চিম মেদিনীপুর

শারীরিক দূরত্ব মানা হচ্ছে কি না বলে দেবে খড়গপুর আইআইটির নতুন যন্ত্র

iit kharagpur

খবরঅনলাইন ডেস্ক: করোনাভাইরাসকে (Coronavirus) ঠেকিয়ে লকডাউনের পাশাপাশি যে কয়েকটি মোক্ষম ওষুধ রয়েছে তার মধ্যে শারীরিক দুরত্ববিধি বজায় রাখার ব্যাপারটি সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু আনলকের (Unlock 1) আবহে অনেকেই সেই দূরত্ববিধি বজায় রাখতে ভুলে যাচ্ছেন।

এই সমস্যার সমাধান করতে এ বার বিশেষ জন্ত্রের আবিষ্কার করল আইআইটি খড়গপুর (IIT Kharagpur)। শারীরিক দুরুত্ববিধি মানা হচ্ছে কি না, এই যন্ত্রই বুঝিয়ে দেবে।

এই যন্ত্রটি তৈরি করতে খুব বেশি খরচও হয়নি বলে জানিয়েছেন আইআইটি খড়গপুরের গবেষকরা। দুই অধ্যাপক দেবাশিস চক্রবর্তী এবং আদিত্য বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে তৈরি গবেষকদের একটি দল যন্ত্রটির জন্ম দিয়েছেন। কিন্তু ঠিক কীভাবে কাজ করবে এটি?

গবেষক দলের এক সদস্য এই প্রসঙ্গেই বলেন, “স্বাস্থ্য মন্ত্রকের নির্দেশ মেনে যন্ত্রটির মধ্যে শারীরিক সামাজিক দূরত্বের পরিমাপ করা আছে। সেই মাপটি কেউ লঙ্ঘন করলেই অডিওর মাধ্যমে পৌঁছোবে সতর্কবার্তা।”

যে সব জায়গায় সাধারণ ভাবে ভিড় বেশি হয়, সেখানে এই যন্ত্রটি কাজে লাগতে পারে বলে জানিয়েছেন গবেষকরা।

Continue Reading

পশ্চিম মেদিনীপুর

কয়েক সেকেন্ডের মধ্যেই পশ্চিম মেদিনীপুরে ভেঙে পড়ল তিন তলা পাকা বাড়ি

খেলনার মতো হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ল আস্ত একটি তিন তলা পাকা বাড়ি

মেদিনীপুর: শনিবার সাতসকালে চোখের সামনে খেলনার মতো হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ল আস্ত একটি তিন তলা পাকা বাড়ি। পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার দাসপুরে এই ঘটনা ক্যামেরাবন্দি হয়ে ছড়িয়ে পড়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

দাসপুরের নিশিন্তপুর গ্রামের বাড়িটে চোখে নিমেষে গুঁড়িয়ে যায় বলে জানিয়েছেন প্রত্যক্ষদর্শীরা। এমনকি ৩০ সেকেন্ডের একটি ভিডিও ক্লিপেও সেই দুর্ঘটনা ধরা পড়েছে।

স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, বাড়িটিতে কেউ বসবাস করতেন না। গুদামঘর হিসাবে ভাড়া দেওয়া ছিল। ফলে কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি বলেই জানা গিয়েছে। তবে আচমকা হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ায় বাড়ির ভিতর থেকে কোনো জিনিসপত্রই বের করে আনা সম্ভব হয়নি।

জানা গিয়েছে, এলাকার পুরোনো খালের পাড়ে বাড়িটি তৈরি করেছিলেন নিমাই প্রামাণিক নামে এক স্থানীয় ব্যক্তি। বর্ষার কথা ভেবে গত শুক্রবার গোমড়াই খালের একাংশ সংস্কার করা হয়। ধারণা করা হচ্ছে, বেশ কয়েক দিনের টানা বর্ষণের ফলে মাটি আলগা হয়ে গিয়েছিল, যে কারণে বাড়িটি আচমকা ভেঙে পড়ে। একই সঙ্গে এটাও জানা গিয়েছে, কয়েক দিন আগে বাড়িটিতে মেরামতের কাজ চলাকালীন ফাটল দেখা দেয়।

Continue Reading

পশ্চিম মেদিনীপুর

ইদের দিন দুঃস্থ আদিবাসী ও মুসলিম বিধবাদের হাতে সাহায্য তুলে দিল ‘সিমপ্যাটিকো’

খবর অনলাইন ডেস্ক: করোনাভাইরাস (coronavirus) জনিত পরিস্থিতির মোকাবিলা করতে দু’ মাসেরও বেশি হয়ে গেল চলছে লকডাউন (lockdown)। কর্মহীন বহু পরিবার অভুক্ত অবস্থায় দিন কাটাচ্ছে। খড়গপুরের (Kharagpur) এমনই কিছু আর্ত মানুষের সেবায় এগিয়ে এল ‘সিমপ্যাটিকো’ (SIMPATICO) অর্থাৎ ‘সমমনস্ক’।

বেলুড় ও নরেন্দ্রপুর রামকৃষ্ণ মিশনের প্রাক্তনী ও পেশায় শিক্ষক খড়গপুরের সুমন কল্যাণ ধাড়া তাঁর সহকর্মী, সহপাঠী, নরেন্দ্রপুর রামকৃষ্ণ মিশনের প্রাক্তনী ও অধ্যাপক এবং নিকট মানুষদের একত্রিত করে গড়েছেন ‘সিমপ্যাটিকো’।

‘সিমপ্যাটিকো’ পবিত্র ইদের দিন খড়গপুর অঞ্চলের পৃথিমপুর, বহড়াপাট, আশাপুর, কুশমাবাগ, কামারপাড়া ও গোকুলপুর গ্রামের সর্বমোট ২২৫ জন সহায়সম্বলহীন আদিবাসী ও মুসলিম বিধবার হাতে ১২টি করে নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রী তুলে দিল।

সুমনবাবুর আবেদনে সাড়া দিয়ে মেদিনীপুর হোমিওপ্যাথি মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালের (Medinipur Homoeopathy Medical College &Hospital) অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডাঃ শ্রীমন্ত সাহা নিজে উপস্থিত থেকে তাঁর মেডিক্যাল টিমের তত্ত্বাবধানে কোভিড ১৯-এর (Covid 19) প্রতিষেধক হোমিওপ্যাথিক ওষুধ ‘আর্সেনিক অ্যালবাম ৩০’ (Arsenic Album 30) বিতরণ করেন। ডাঃ সাহা এই ধরনের উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়ে আরও মানুষকে এই কাজে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।

সুমনবাবু এর আগেও লকডাউন চলাকালীন ব্যক্তিগত ভাবে ৫৪টি আদিবাসী পরিবারকে সাহায্য করেছিলেন ও তাঁর পরিচিতদের সহযোগিতায় ১ মে আন্তর্জাতিক শ্রমিক দিবসের দিন ৮৮টি আদিবাসী পরিবারের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন ১২টি নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রী বিতরণ করে।

Continue Reading
Advertisement
football2
ফুটবল3 hours ago

কোভিড-পরিস্থিতিতে আসন্ন আই লিগের সব ম্যাচই কলকাতায় করার ভাবনা

দেশ3 hours ago

বিজেপিতে যাচ্ছি না, বললেন সচিন পায়লট

দেশ3 hours ago

প্রবল বর্ষণে সিকিমে ভয়াল রূপ তিস্তার, হুড়মুড় করে ভেঙে পড়ল প্রাক্তন সাংসদের বাড়ি

উঃ দিনাজপুর4 hours ago

বিজেপি বিধায়কের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার, পরিবারের দাবি খুন

রাজ্য4 hours ago

উত্তরবঙ্গে বৃষ্টির দাপট কিছুটা কমলেও স্বস্তি দিচ্ছে না আগামী তিন দিনের পূর্বাভাস

দেশ5 hours ago

দেশে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যায় রেকর্ড, তবে মৃত্যুহারে উল্লেখযোগ্য পতন

দেশ5 hours ago

কোভিড আপডেট: নতুন করে আক্রান্ত ২৮৭০১, সুস্থ ১৮৮৪৯

বিদেশ5 hours ago

কমদামী ও সহজলভ্য দুই ওষুধের সংমিশ্রণেই কমছে করোনার মারণ ক্ষমতা?

দেশ5 hours ago

কোভিড আপডেট: নতুন করে আক্রান্ত ২৮৭০১, সুস্থ ১৮৮৪৯

দুর্গা পার্বণ2 days ago

আজও ভিয়েন বসিয়ে হরেক রকম মিষ্টি তৈরি হয় চুঁচড়ার আঢ্যবাড়ির দুর্গাপুজোয়

ফুটবল3 days ago

এটিকে-মোহনবাগানের নতুন লোগো প্রকাশিত, জার্সির রঙ সবুজমেরুনই

কলকাতা2 days ago

সক্রিয় রোগীর নিরিখে এই মুহূর্তে কলকাতার অবস্থান কত নম্বরে?

শিক্ষা ও কেরিয়ার3 days ago

প্রকাশিত হল আইসিএসই এবং আইএসসি ফলাফল, মিলল না মেধা তালিকা!

দেশ3 days ago

শারীরিক দুরত্ব ভেঙে মানবিক দায়িত্ব পালন

Shaktikanta Das
দেশ2 days ago

কোভিড-১৯ স্বাস্থ্য এবং অর্থনীতির সামনে শেষ একশো বছরের সব থেকে বড়ো সংকট: আরবিআই গভর্নর

Harsh Vardhan
দেশ3 days ago

করোনা আক্রান্তের সংখ্যায় আমরা উদ্বিগ্ন নই: কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী

কেনাকাটা

কেনাকাটা20 hours ago

হ্যান্ডওয়াশ কিনবেন? নামী ব্র্যান্ডগুলিতে ৩৮% ছাড় দিচ্ছে অ্যামাজন

খবরঅনলাইন ডেস্ক : করোনাভাইরাস বা কোভিড ১৯ এর সঙ্গে লড়াই এখনও জারি আছে। তাই অবশ্যই চাই মাস্ক, স্যানিটাইজার ও হ্যান্ডওয়াশ।...

কেনাকাটা4 days ago

ঘরের একঘেয়েমি আর ভালো লাগছে না? ঘরে বসেই ঘরের দেওয়ালকে বানান অন্য রকম

খবরঅনলাইন ডেস্ক : একে লকডাউন তার ওপর ঘরে থাকার একঘেয়েমি। মনটাকে বিষাদে ভরিয়ে দিচ্ছে। ঘরের রদবদল করুন। জিনিসপত্র এ-দিক থেকে...

কেনাকাটা6 days ago

বাচ্চার জন্য মাস্ক খুঁজছেন? এগুলোর মধ্যে একটা আপনার পছন্দ হবেই

খবরঅনলাইন ডেস্ক : নিউ নর্মালে মাস্ক পরাটাই দস্তুর। তা সে ছোটো হোক বা বড়ো। বিরক্ত লাগলেও বড়োরা নিজেরাই নিজেদেরকে বোঝায়।...

কেনাকাটা7 days ago

রান্নাঘরের টুকিটাকি প্রয়োজনে এই ১০টি সামগ্রী খুবই কাজের

খবরঅনলাইন ডেস্ক : লকডাউনের মধ্যে আনলক হলেও খুব দরকার ছাড়া বাইরে না বেরোনোই ভালো। আর বাইরে বেরোলেও নিউ নর্মালের সব...

নজরে