Talaq

কলকাতা: উলুবেড়িয়া লোকসভা এবং নোয়াপাড়া বিধানসভা উপনির্বাচনের নির্ঘণ্ট প্রকাশ পেয়ে গিয়েছে ইতিমধ্য়েই। কমিশন ঘোষণা করেছে, আগামী ২৯ জানুয়ারি হবে ভোটগ্রহণ, সেই অনুযায়ী ১০ জানুয়ারি মনোনয়ন জমা করার শেষ দিন, যা বাতিল করা যাবে ১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত। কিন্তু মনোনয়ন জমা করার শেষ দিন ক্রমশ এগিয়ে এলেও বিজেপি এখনও পর্যন্ত তাদের প্রার্থীর নাম ঘোষণা করতে পারেনি। বিক্ষিপ্ত ভাবে দলের কিছু নেতা হাওয়ায় ভাসিয়েছেন বেশ কয়েকটি নাম মাত্র। তৃণমূল থেকে বিজেপিতে যোগ দেওয়া মুকুল রায়ের নাম নিয়েও ওজন মাপার কাজটা সেরে ফেলেছে বিজেপি। তবে সূত্রের খবর, প্রার্থীর নাম চুড়ান্ত করতে না পারলেও, উলুবেড়িয়া লোকসভা কেন্দ্রের উপনির্বাচনে প্রার্থী করার প্রতিশ্রুতি দিয়ে দুই জন সংখ্য়ালঘু মহিলাকে দলে টানতে সফল হয়েছে বিজেপি। একজন তিনি তালাক প্রথার স্বীকার ইশরাত জাহান আর অন্যজন নির্যাতিতাকে  সহায়তাকারী আইনজীবী নাজিয়া ইলাহি খান।

এই সপ্তাহের শুরুতেই বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন হাওড়ার লড়াকু মহিলা ইশরাত জাহান।তিনি জানিয়েছিলেন, বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ শর্তেই তিনি বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন। যেমন, তাঁকে একটি সরকারি কাজ, সন্তানের লেখাপড়ার খরচ ইত্যাদি জোগানো হবে। এমনও শোনা গিয়েছিল, উলুবেড়িয়া লোকসভার উপনির্বাচনে তাঁকে প্রার্থী করবে বিজেপি।

কিন্তু সপ্তাহ না ঘুরতেই নাজিয়াকে দলে নিল বিজেপি, শোনা যাচ্ছে তিনিই না কি উলুবেড়িয়ার প্রার্থী হচ্ছেন গেরুয়া শিবিরের তরফে। বড়বাজার অঞ্চলে যাঁদের ন্যূনতম যাতায়াত রয়েছে, তাঁরা আইনজীবী নাজিয়াকে চিনতে পারেন বড়ো বড়ো হোর্ডিংয়ে তাঁর সমাজসেবা মূলক কাজের প্রচারে। তবে ওই এলাকার এক তৃণমূল নেতার কথায়, তৃণমূলের কাছ থেকে স্বার্থসিদ্ধি না হওয়ায় বিজেপিতে যোগ দেওয়ার নাটক চলছে। সারা রাজ্যেই তো বিজেপি টোপ দিয়ে দলে নিচ্ছে, হজম করতে পারলেই ভালো।

বিজেপি সূত্রে খবর, দল কাকে প্রার্থী করবে, সেটা একান্ত ভাবেই উচ্চ নেতৃত্বের বিষয়। আশা করা হচ্ছে, আজ-কালের মধ্যেই প্রার্থীর নাম ঘোষণা করা হবে।

(ছবিতে বাঁ দিকে নাজিয়া ইলাহি খান এবং ডান দিকে ইশরাত জাহান)

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন