Connect with us

রাজ্য

“মির্জাকে গ্রেফতার করা হলে মুকুল-শোভন বাদ কেন”: প্রশ্ন কংগ্রেস নেতার

Narada-String-case

ওয়েবডেস্ক: বৃহস্পতিবার রাজ্যে কর্মরত আইপিএস অফিসার এস এম এইচ মির্জাকে গ্রেফতার করে সিবিআই। নারদ স্টিং অপারেশনে তাঁর বিরুদ্ধে ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ ওঠার পর উপযুক্ত তথ্যপ্রমাণ সংগ্রহের পরই তাঁকে গ্রেফতার করা হয় বলে সিবিআই সূত্রের খবর। মির্জার গ্রেফতারি নিয়ে সংবাদ মাধ্যমে মন্তব্য করেন শাসক-বিরোধী উভয় রাজনৈতিক দলের উচ্চ নেতৃত্ব। দেখে নেওয়া যাক কে কী বললেন?

সিপিএম নেতা সুজন চক্রবর্তী প্রাথমিক প্রতিক্রিয়ায় বলেন, “বিলম্বিত, কিন্তু সঠিক সিদ্ধান্ত”।

আর এক সিপিএম নেতা তথা বিশিষ্ট আইনজীবী বিকাশরঞ্জন ভট্টাচার্য বলেন, “আগেই গ্রেফতার হওয়া উচিত ছিল”।

মির্জার গ্রেফতারি নিয়ে তাৎপর্যপূর্ণ মন্তব্য করেন তৃণমূলের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়। তিনি বলেন, “যে যেমন কাজ করবে, সে তেমন বুঝবে”।

কংগ্রেস নেতা ঋজু ঘোষাল নারদাকাণ্ডে অন্যান্য অভিযুক্তদের দিকে অঙ্গুলিনির্দেশ করে প্রশ্ন করেন, “মির্জাকে গ্রেফতার করা হলে মুকুল-শোভন বাদ কেন”?

বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতা রাহুল সিনহা বলেন, “আরও গ্রেফতার হবে। দেশের আইনের উপর মানুষের বিশ্বাস আরও বাড়বে”।

বিজেপি রাজ্য সভাপতি সিবিআইয়ের উপর ভরসা রেখেই বলেন, “মির্জার কাছ থেকে অনেক তথ্য মিলবে”।

অন্য দিকে বিজেপি সাংসদ বাবুল সুপ্রিয় বলেন, “মির্জাকে গ্রেফতার অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ ঘটনা। দেখা যাক আগামী দিনে কী হয়”?

ঝাড়গ্রাম

টানাপোড়েনের অবসান ঘটিয়ে, সক্রিয় রাজনীতিতে লালগড় আন্দোলনের মুখ ছত্রধর মাহাত

বুধবার গোপীবল্লভপুরের একটি অতিথিশালায় তৃণমূলের পক্ষে সভায় তাঁকে বক্তব্য রাখতে দেখা গেল।

সমীর মাহাত, ঝাড়গ্রাম: রাজনৈতিক মহলে একটা কানাঘুষো চলছিল-ই! ছত্রধর মাহাত কি শাসক তৃণমূলের হয়েই ময়দানে নামবেন? জল্পনার অবসান ঘটিয়ে বুধবার গোপীবল্লভপুরের একটি অতিথিশালায় তৃণমূলের পক্ষে সভায় তাঁকে বক্তব্য রাখতে দেখা গেল।

তিনি বলেন, “২০১১ সালে বামফ্রন্টকে সরিয়ে তৃণমূল ক্ষমতায় এসেছে। তার আগের এখানকার ইতিহাস সবারই জানা। দীর্ঘদিন বাম জামানার অপশাসনের ফলে তা হয়েছিল। গোপীবল্লভপুর প্রতিবাদের মাটি। অনেক বিপ্লবী এখানে জন্মেছেন। নকশাল আন্দোলন এখানে সংগঠিত হয়েছিল।”

পরক্ষণেই তিনি বলেন, “তৃণমূল অনেকটা পিছিয়ে পড়েছে। মানুষই সব কিছুর পরিবর্তন ঘটাতে পারে। সেই মানুষের উপর ভরসা আছে। এখানে একটি সাম্প্রদায়িক দল জায়গা করছে। আমার কোনো দিন আশা করিনি এ রাজ্যে তারা ঘাঁটি গাড়বে। এ রাজ্যে কংগ্রেস, সিপিএ রাজত্ব করেছে, তৃণমূল সে ক্ষেত্রে প্রগতিশীল। এটা সবারই ভাবার দরকার যে, এমন একটা সাম্প্রদায়িক দল সামনে লড়াইয়ের জন্য প্রস্তুত হচ্ছে।”

তিনি আরও বলেন,” নব্য তৃণমূল এবং বিধায়ক চূড়ামণিবাবুর মধ্য একটা সংঘাত চলছে বলে শুনেছি, আমি মনে করি তা কিছু নয়। পুরনো মানুষেরা কষ্ট করে পার্টিটাকে ধরে রেখেছে। নতুনেরা তাকে সমৃদ্ধশালী করছে। এলাকায় এর আগে ঝাড়খন্ডি দলগুলি বামেদের বিরুদ্ধে লড়াই করেছে। নয়ের দশকের দিকে তারা ভালমতো প্রভাব বিস্তার করে। তাদের সম্মান দিতে হবে। কংগ্রেস, ঝাড়খণ্ডি সবাই মিলেই আন্দোলন করেছিল। তাই সবার সঙ্গে সমন্বয় করেই হাঁটতে হবে, তবেই ২০১১ সালের গৌরভ ফিরে পাব।”

এই সভা থেকে এলাকার সাতমা অঞ্চলের ৩০টি পরিবার বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগদান করেছেন বলে দাবি তৃণমূলের।

বিজেপির প্রতিক্রিয়া

এ ব্যাপারে বিজেপির ঝাড়গ্রাম জেলা সাধারণ সম্পাদক সঞ্জিত মাহাত বলেন,” ছত্রধর মাহাতকে দিয়ে সুবিধা করতে পারবে না তৃণমূল। আর উনি যেটা বলেছেন, বিজেপি মোটেই সাম্প্রদায়িক দল নয়, কেন্দ্রীয় শীর্ষ নেতৃত্বে অনেকই মুসলিম রয়েছেন। বরং সাম্প্রদায়িকতা করছে তৃণমূল, ইমাম ভাতা, ৩০ শতাংশ সংরক্ষণ, শুধু ভোট ব্যাঙ্কের জন্য বেশি তোল্লা দেওয়া হচ্ছে:।

লালগড় আন্দোলনের মুখ ছত্রধরকে নিশানা করে বিজেপি নেতা বলেন, “ছত্রধরবাবু তো নিজে একজন মাহাত – কুড়মি সম্প্রদায়ের মানুষ, নিজেদের জাতি-সমাজের জন্য কিছু বলছেন না কেন? ছত্রধরের আন্দোলনের সময় সবচেয়ে বিপর্যস্ত হয়েছেন এই এলাকার মাহাত আদিবাসীরা। যাঁরা মাওবাদীদের হাতে খুন হল, তাদের পরিবার কিছুই পেল না, অভিযুক্ত তারাকে সরকার চাকরি দিল। ছত্রধরের ছেলেকেও চাকরি দেওয়া হয়েছে। মানুষ সবই মনে রেখেছে।”

ছত্রধরে আগ্রহ দেখিয়েছিলেন মুকুল!

বছর দুয়েক আগে লালগড়ে একটি সভা শেষ করেই ছত্রধর মাহাতর স্ত্রী মিনতিদেবীর সঙ্গে দেখা করতে যান বর্তমানে বিজেপি নেতা মুকুল রায়। এমন সংবাদে গোটা জঙ্গলমহলের রাজনীতিতে তোলপাড় শুরু হয়ে যায়।

শোনা গিয়েছিল, ইউএপিএ আইনে গ্রেফতার হওয়া এবং যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের আদেশ পাওয়ার পর বেশ কয়েক জন স্থানীয় তৃণমূল নেতা সহযোগিতার আশ্বাস দিলেও তা জঙ্গল মহলের বাতাসে মিলিয়ে যায়। এমন পরিস্থিতিতে ছত্রধরকে নিয়ে মুকুলবাবুর সক্রিয়তা নতুন করে ভাবাতে শুরু করে রাজ্য রাজনীতিকে।

Continue Reading

রাজ্য

রেকর্ড বৃদ্ধি, রাজ্যে একদিনে আক্রান্ত প্রায় ১০০০

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা এক হাজারের কাছাকাছি চলে গেল। রাজ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় ৯৮৬ জন নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছে। এর মধ্যে বিশাল সংখ্যক মানুষই কলকাতা ও পার্শ্ববর্তী তিন জেলার। সব মিলিয়ে রাজ্যের করোনা-পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ বাড়ল। যদিও সুস্থতার হার এখনও ঠিকঠাকই রয়েছে।

রাজ্যের করোনা-তথ্য

রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের তথ্য অনুযায়ী বর্তমানে রাজ্যে মোট রোগীর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২৪,৮২৩। গত ২৪ ঘণ্টায় ২৩ জনের মৃত্যু হওয়ায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৮২৭। তবে এক দিনে সুস্থ হয়েছেন ৫০১ জন। ফলে এখনও পর্যন্ত মোট ১৬,২৯১ জন করোনামুক্ত হলেন।

রাজ্যে সুস্থতার হার একটু কমে ৬৫.৬২ শতাংশ রয়েছে। সক্রিয় রোগী রয়েছেন ৭,৭০৫ জন। তবে মৃত্যুহার অনেকটাই কমে এসেছে রাজ্যে। সেটি এখন রয়েছে ৩.৩৩ শতাংশ।

কলকাতা ও পার্শ্ববর্তী তিন জেলাতেই মোট রোগীর ৮১ শতাংশ

বুধবারের হিসেব বলছে, কলকাতা, দুই ২৪ পরগনা আর হাওড়া মিলিয়ে আক্রান্ত হয়েছেন ৭৯৮ জন, যা মোট রোগীর ৮১ শতাংশ। এর মধ্যে কলকাতায় ৩৬৬ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। ফলে কলকাতায় এখন রোগীর সঙ্গে বেড়ে ৮,০৪৬ হয়েছে।

শহরে এখন করোনামুক্ত হয়েছেন ৪,৭৮৮ জন। কলকাতায় মৃতের সংখ্যা ৪৪৪। সক্রিয় রোগী রয়েছেন ২,৮১৪ জন।

উত্তর ২৪ পরগণায় করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ২২৩ জন। তবে এই জেলায় নতুন করে ৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। দক্ষিণ ২৪ পরগণা আর হাওড়ায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন যথাক্রমে ১০৩ আর ১০৬ জন। অন্য দিকে হুগলিতে আক্রান্তের সংখ্যা অনেকটাই কম (৩৬)।

করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে বৃহস্পতিবার বিকেল পাঁচটা থেকে কনটেনমেন্ট জোনগুলিতে লকডাউন শুরু হচ্ছে। কলকাতার কনটেনমেন্ট জোনগুলির তালিকা প্রকাশিত হয়েছে।

সংক্রমণ কমছে দক্ষিণবঙ্গের বাকি জেলায়

গত ২৪ ঘণ্টায় দক্ষিণবঙ্গের বাকি জেলায় নতুন করোনা-সংক্রমণ অনেকটাই কম। কোনো জেলাতেই দশের বেশি আক্রান্ত নেই। নতুন রোগীর খোঁজ মেলেনি ঝাড়গ্রামে।

এ ছাড়া, নতুন আক্রান্তের থেকে সুস্থতার সংখ্যা বেশি হওয়ায় সক্রিয় রোগী কমেছে পশ্চিম মেদিনীপুরে।

উত্তরবঙ্গেও কিছুটা স্বস্তির খবর

মালদা (৪৫) আর দার্জিলিং (৩২) সংক্রমণের নিরিখে শীর্ষে থাকলেও এই দুই জেলাতে সুস্থতার সংখ্যা বেশি হওয়ায় কমেছে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা। কোচবিহার জেলা বাদে উত্তরের সব জেলাতেই সক্রিয় রোগী কমেছে। এর মধ্যে দক্ষিণ দিনাজপুর আর কালিম্পংয়ে নতুন করে কোনো আক্রান্তের খবর পাওয়া যায়নি। তবে জলপাইগুড়ি আর মালদায় নতুন করে ১ আর ২ জনের মৃত্যু হয়েছে।

নমুনা পরীক্ষার তথ্য

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে ১০,৩৮৬টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। ফলে এখনও পর্যন্ত রাজ্যে ৫ লক্ষ ৭২ হাজার ৫২৩টি নমুনা পরীক্ষা হয়ে গেল। বর্তমানে রাজ্যে নমুনা পজিটিভ হওয়ার হার রয়েছে ৪.৩৪ শতাংশ।

Continue Reading

রাজ্য

আগামী পাঁচ দিন উত্তরবঙ্গে মাত্রাতিরিক্ত বৃষ্টির আশঙ্কা

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আগামী পাঁচ দিন উত্তরবঙ্গে মাত্রাতিরিক্ত বৃষ্টির সতর্কতা জারি করা হয়েছে। এর ফলে সমতলে বন্যা পরিস্থিতি আর পাহাড়ে প্রবল ধসের আশঙ্কা করা হচ্ছে।

পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, আগামী ২৪ ঘণ্টায় উত্তরবঙ্গের পাঁচ জেলা, তথা দার্জিলিং, কালিম্পং, কোচবিহার, জলপাইগুড়ি আর আলিপুরদুয়ারে অতি ভারী বৃষ্টি হতে পারে। কিন্তু তার পর থেকে পরবর্তী ৭২ ঘণ্টা উল্লিখিত এই জেলাগুলিতে চরম অতি ভারী বৃষ্টি হতে পারে। অর্থাৎ এক একটি জায়গায় ২৪ ঘণ্টায় আড়াইশো মিলিমিটারেরও বেশি বৃষ্টি হতে পারে।

এ ছাড়া, মালদা আর দুই দিনাজপুরেও বিক্ষিপ্ত অতি ভারী বৃষ্টি হতে পারে বলেও আশঙ্কা করা হচ্ছে।

এই মুহূর্তে দক্ষিণবঙ্গের ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে মৌসুমি অক্ষরেখা। ২৪ ঘণ্টা পর সেটা উত্তরবঙ্গের দিকে চলে যাবে। পাশাপাশি বিহারে একটি ঘূর্ণাবর্তও রয়েছে। এর ফলে প্রবল বৃষ্টির আশঙ্কা করা হচ্ছে।

উত্তরবঙ্গের পাশাপাশি, শনিবার থেকে দক্ষিণবঙ্গে নদিয়া, মুর্শিদাবাদ আর বীরভূমেও ভারী বৃষ্টি হতে পারে। কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গের বাকি জেলায় আপাতত বিক্ষিপ্ত হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি চলতে থাকবে।

Continue Reading
Advertisement
বিনোদন7 hours ago

চলে গেলেন ‘শোলে’-র ‘সুরমা ভোপালি’ জগদীপ

দেশ9 hours ago

জম্মু-কাশ্মীরে বাবা এবং ভাই-সহ বিজেপি নেতাকে গুলি করে মারল জঙ্গিরা

ঝাড়গ্রাম10 hours ago

টানাপোড়েনের অবসান ঘটিয়ে, সক্রিয় রাজনীতিতে লালগড় আন্দোলনের মুখ ছত্রধর মাহাত

দেশ11 hours ago

৮৯টি অ্যাপ ‘নিষিদ্ধ’ করল ভারতীয় সেনা

বিনোদন11 hours ago

সুশান্ত সিং রাজপুতের আত্মহত্যাকাণ্ডে সলমন খান, করন জোহরের বিরুদ্ধে মামলা খারিজ আদালতে

LPG
দেশ12 hours ago

উজ্জ্বলা যোজনায় বিনামূল্যের এলপিজি সিলিন্ডার পাওয়ার মেয়াদ বাড়ল আরও তিন মাস

রাজ্য12 hours ago

রেকর্ড বৃদ্ধি, রাজ্যে একদিনে আক্রান্ত প্রায় ১০০০

কলকাতা12 hours ago

অনলাইনে নয়, পড়ুয়াদের জন্য এই বিকল্প পথই বেছে নিয়েছে গড়িয়া স্টেশনের একটি স্কুল

কেনাকাটা

কেনাকাটা2 days ago

বাচ্চার জন্য মাস্ক খুঁজছেন? এগুলোর মধ্যে একটা আপনার পছন্দ হবেই

খবরঅনলাইন ডেস্ক : নিউ নর্মালে মাস্ক পরাটাই দস্তুর। তা সে ছোটো হোক বা বড়ো। বিরক্ত লাগলেও বড়োরা নিজেরাই নিজেদেরকে বোঝায়।...

কেনাকাটা3 days ago

রান্নাঘরের টুকিটাকি প্রয়োজনে এই ১০টি সামগ্রী খুবই কাজের

খবরঅনলাইন ডেস্ক : লকডাউনের মধ্যে আনলক হলেও খুব দরকার ছাড়া বাইরে না বেরোনোই ভালো। আর বাইরে বেরোলেও নিউ নর্মালের সব...

কেনাকাটা4 days ago

হ্যান্ড স্যানিটাইজারে ৩১ শতাংশ পর্যন্ত ছাড় দিচ্ছে অ্যামাজন

অনলাইনে খুচরো বিক্রেতা অ্যামাজন ক্রেতার চাহিদার কথা মাথায় রেখে ঢেলে সাজিয়েছে হ্যান্ড স্যানিটাইজারের সম্ভার।

DIY DIY
কেনাকাটা1 week ago

সময় কাটছে না? ঘরে বসে এই সমস্ত সামগ্রী দিয়ে করুন ডিআইওয়াই আইটেম

খবর অনলাইন ডেস্ক :  এক ঘেয়ে সময় কাটছে না? ঘরে বসে করতে পারেন ডিআইওয়াই অর্থাৎ ডু ইট ইওরসেলফ। বাড়িতে পড়ে...

নজরে