বর্ষা স্বাভাবিক হলেও পূর্বে ঘাটতি থাকতে পারে

0

খবর অনলাইন ডেস্ক : দেশের বেশির ভাগ জায়গাতেই এ বার বর্ষা স্বাভাবিক হবে। তবে পূর্ব ভারতে বর্ষায় কিছু ঘাটতি থাকতে পারে।

বর্ষার মরশুম কেমন যাবে সে ব্যাপারে ভারতীয় আবহাওয়া দফতরের তরফ থেকে প্রথম পূর্বাভাস দেওয়া হয় এপ্রিলের মাঝামাঝি। কিন্তু বিদেশি কিছু সংস্থা এখন থেকেই পূর্বাভাস দিতে শুরু করেছে। ইতিহাস ঘাঁটলে দেখা যায় যে এই সব বিদেশি সংস্থার পূর্বাভাস মোটামুটি মিলে যায়। যে দেশের ৭০ শতাংশ মানুষ চাষাবাদের ওপর নির্ভরশীল সেই দেশে বর্ষার বিশাল ভূমিকা রয়েছে, যে হেতু সারা বছরের বৃষ্টিপাতের ৭৫ শতাংশই হয় বর্ষার চার মাস, জুন থেকে সেপ্টেম্বরে।

কেমন যেতে পারে এ বারের বর্ষা?

বিদেশি আবহাওয়া সংস্থা থেকে জানানো হচ্ছে এ বার বর্ষা দেশের বেশির ভাগ অংশেই স্বাভাবিক আচরণ করতে পারে। এমনকী কোনও কোনও জায়গায় স্বাভাবিকের থেকে বেশিও বৃষ্টি দিতে পারে।

দক্ষিণ কোরিয়ার বুসানের এশিয়া প্যাসিফিক ক্লাইমেট সেন্টারের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, দেশের বেশির ভাগ অঞ্চলেই এ বার স্বাভাবিকের থেকে বেশি বৃষ্টি হবে। দক্ষিণ কোরিয়ার এই সংস্থার পূর্বাভাসের সঙ্গে পুরোপুরি একমত পোষণ না করলেও, ইয়োরোপিয়ান সেন্টার ফর মিডিয়াম রেঞ্জ ফোরকাস্টের মতে, স্বাভাবিক বৃষ্টি পাবে গোটা দেশ। আর কলম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্তর্গত ইন্টারন্যাশনাল রিসার্চ ইন্সটিটিউট ফর ক্লাইমেট অ্যান্ড সোসাইটির মতে, ভারতের কোনও অংশই এ বার ঘাটতি বর্ষার সম্মুখীন হবে না।

তবে কোরীয় আর ইয়োরোপীয় সংস্থার একটি পূর্বাভাসে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ তথা সমগ্র পূর্ব আর উত্তর-পূর্ব ভারতের কপালে চিন্তার ভাঁজ পড়তে পারে। তাদের মতে, দেশের একমাত্র এই অংশেই আগামী বর্ষায় ঘাটতি বৃষ্টি দেখা দিতে পারে। কোরীয় সংস্থাটির মতে, দেশের দক্ষিণ আর উত্তর-পশ্চিমাংশে বৃষ্টি হবে স্বাভাবিকের তুলনায় অনেক বেশি। উল্লেখ্য, গত বর্ষার মরসুমে এই উত্তর-পশ্চিমাঞ্চল আর পশ্চিমাংশেই বৃষ্টির ঘাটতি ছিল সব থেকে বেশি। সেই ঘাটতি বৃষ্টির ফল এখনও ভোগ করছেন বিদর্ভ-মরাঠওয়াড়ার চাষি থেকে সাধারণ মানুষ। সাম্প্রতিক ইতিহাস ঘেঁটে দেখা গেছে উত্তর-পশ্চিম ভারতে স্বাভাবিক বা তার বেশি বৃষ্টি হলে পূর্ব ভারতে তুলনায় কম বৃষ্টি হয়, বিশেষ করে বর্ষা শুরুর দু’মাস জুন আর জুলাইয়ে।

আগামী কয়েক দিন আবহাওয়া কেমন থাকবে ?

এই মুহূর্তে উত্তর ভারতের আবহাওয়াকে লোকে বর্ষার সঙ্গে গুলিয়ে ফেলতে পারে। পাকিস্তানে পশ্চিমী ঝঞ্ঝা, রাজস্থানে একটি নিম্নচাপের প্রভাবে গত কয়েক দিন ধরে ভালো বৃষ্টি হচ্ছে সমগ্র উত্তর ভারতে। কাশ্মীর, হিমাচল আর উত্তরাখণ্ডে তুষারপাতও চলছে। এই পরিস্থিতি আরও কিছু দিন চলবে। উত্তরপ্রদেশ, দিল্লি, পঞ্জাব, হরিয়ানা, রাজস্থান, বিদর্ভ আর তেলঙ্গানায় আগামী তিন দিন ঝড়বৃষ্টির পূর্বাভাস দেওয়া আছে। এর প্রভাব আমাদের প্রতিবেশী ঝাড়খণ্ড আর রাজ্যের পশ্চিমাঞ্চলের জেলায় পড়তে পারে। কলকাতায় আগামী বুধবার পর্যন্ত অল্পস্বল্প বৃষ্টি হতে পারে। আকাশ আংশিক মেঘলা থাকবে, তবে গরম খুব বেশি পড়বে না। সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৩ থেকে ৩৫ ডিগ্রির আশেপাশে ঘোরাফেরা করবে।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন