পুলিশের উদ্যোগে চলছে সচেতনতা শিবির। ছবি: প্রতিবেদক
ইন্দ্রাণী সেন

বাঁকুড়া: আবারও মোমো আতঙ্ক বাঁকুড়ায়। বাঁকুড়ার গঙ্গাজলঘাটির গোবিন্দধামের পর বুধবার সকালে আবার ‘মোমো’র তরফে হোয়াটসঅ্যাপে ম্যাসেজ পান বাঁকুড়া জেলা আদালতের এক আইনজীবী। দীপক পাল নামে ওই আইনজীবী বলেন, “আমার কাছে যে লিংক থেকে মোমোর নাম করে মেসেজ এসেছে সেটি পশ্চিমবঙ্গেরই একটি বিএসএনএল নাম্বার”। তিনি অভিযোগ তুলেছেন বিভিন্ন জায়গায় আধার নম্বর লিঙ্ক করানোর জেরেই এই বিপত্তি ঘটছে।

মঙ্গলবার রাতে বাঁকুড়া শহর সংলগ্ন পলাশতলায় এক ছাত্রের মোবাইলে একটি অজানা নাম্বার থেকে মোমোর মেসেজ আসে। সৌরজিৎ বল নামে ওই ছাত্র বলেন, “মঙ্গলবার রাতে ‘মোমো’ ম্যাসেজ আসার পর থেকে আতঙ্ক লাগছে”। বিষয়টি বাঁকুড়া সদর থানায় অভিযোগ জানানো হয়েছে বলে তিনি জানান।

Bankura
পুলিশের উদ্যোগে চলছে সচেতনতা শিবির। ছবি: প্রতিবেদক

পুলিশের পক্ষ থেকে ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলা হয়েছে, বিষয়টি তারা সাইবার ক্রাইম সেলে জানিয়েছে। ঘটনার তদন্ত চলছে। মোমো আতঙ্কের জেরে জেলা পুলিশের উদ্যোগে বিভিন্ন থানায় সচেতনতা শিবির অনুষ্ঠিত হচ্ছে। জেলা পুলিশের তরফ থেকে মোমো গেমের বিষয়ে সতর্কতা অবলম্বন করার জন্য লিফলেট ও সোশ্যাল মিডিয়ায় মোমো গেমের বিষয়ে সতর্কতা জানিয়ে পোস্ট করা হচ্ছে। একই সঙ্গে এ দিন মেজিয়ার একটি স্কুলে মোমো গেম বিষয়ক সচেতনতা শিবির অনুষ্ঠিত হয় ।


আরও পড়ুন: এ বার বাঁকুড়ায় মোমো আতঙ্ক!

জেলা পুলিশ সূত্রে খবর, জেলার প্রতিটি থানা এলাকার স্কুলেই এই ধরনের সচেতনতা শিবির অনুষ্ঠিত হবে। বাঁকুড়া জেলা পুলিশ সুপার সুখেন্দু হীরা এ বিষয়ে সাধারণ মানুষকে সোশ্যাল সাইটে সতর্কতা অবলম্বন করার কথা বলেন। একই সঙ্গে এই ধরনের মেসেজ কারো কাছে এলে তিনি সরাসরি পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগের আবেদন জানিয়েছেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন