binay tamang
বিনয় তামাং-এর ফাইল ছবি

শিলিগুড়ি: ‘হৃদয়’-এ থাকলেও গোর্খাল্যান্ড পাওয়া যে কার্যত অসম্ভব সেটা বিলক্ষণ বোঝেন তিনি। তাই জিটিএ প্রধান বিনয় তামাং-এর গলায় এখন নতুন দাবি। জিটিএ এবং উত্তরবঙ্গের কিছু এলাকাকে নিয়ে ‘শিডিউলড এরিয়া’ বা তফশিলভুক্ত এলাকা ঘোষণা করার দাবি জানালেন তিনি।

সংবিধানের পঞ্চম তফশিলে এই ধরনের এলাকায় কথা বলা হয়েছে। সামাজিক বা অর্থনৈতিক ভাবে পিছিয়ে পড়া অঞ্চলগুলিকে এই তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়। মহারাষ্ট্র, ওড়িশা, গুজরাত, মধ্যপ্রদেশ, তেলঙ্গানা, ঝাড়খণ্ড, হিমাচল প্রদেশের মতো রাজ্যগুলিকে তফশিলভুক্ত এলাকার পর্যায়ে রাখা হয়েছে। এর ফলে অঞ্চলগুলি বিশেষ আর্থিক প্যাকেজ এবং কর ছাড়ের সুবিধাও পায়।

দিল্লি থেকে ফেরার পথে বাগডোগরা বিমানবন্দরে বিনয় বলেন, “গুজরাত, মহারাষ্ট্রের মতো অর্থনৈতিক ভাবে সচ্ছল রাজ্যগুলি যদি তফশিলভুক্ত এলাকায় মধ্যে পড়ে, তা হলে জিটিএ এবং উত্তরবঙ্গের পিছিয়ে পড়া এলাকাগুলিকেও এই তালিকায় রাখা উচিত।”

তাৎপর্যপূর্ণ ভাবে, জিএনএলএফ প্রতিষ্ঠাতা সুবাস ঘিসিংও এক সময়ে পৃথক গোর্খাল্যান্ড রাজ্যের দাবি থেকে সরে এসে পাহাড়কে ষষ্ঠ তফশিলভুক্ত করার দাবি তুলেছিলেন।

আরও পড়ুন বাঁকুড়ার ভূলুইয়ে প্রকাশিত হল অষ্টকাণ্ড জগদ্রামী রামায়ণ

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন