mamaata targets BJP in mayo road
সমাবেশে বক্তব্য রাখছেন মুখ্যমন্ত্রী। ছবি: টুইটার (তৃণমূল)

কলকাতা: তৃণমূল ছাত্রপরিষদের মঞ্চেও একাধিক ইস্যুতে বিজেপির বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেই সঙ্গে ছাত্রছাত্রীদের প্রতিও বিশেষ বার্তা দিলেন তিনি।

মঙ্গলবার মেয়ো রোডে তৃণমূল ছাত্রপরিষদের প্রতিষ্ঠা দিবসে বক্তব্য রাখেন মুখ্যমন্ত্রী। টাকার কাছে যেন আত্মসমর্পণ না করা হয়, সে ব্যাপারে বার্তা দেন মমতা। তিনি বলেন, “টাকা সব নয়। ডেডিকেশনটাই সব। টাকা থাকলেই হয় না। ডেডিকেশন দরকার।” লবিবাজি বন্ধ করার জন্যও কিছুটা কড়া কথা শোনান মমতা। তিনি বলেন, “কাজ করতে গেলে লবি করার দরকার নেই। তোমার কাজই তোমার পরিচয়।”

এরপরেই বিজেপির বিরুদ্ধে আক্রমণাত্মক হয়ে ওঠেন মুখ্যমন্ত্রী। এক সময় যারা সিপিআইএম করতেন, এখন তাঁরা বিজেপি করেন বলেও মন্তব্য করেন তিনি। তাঁর কথায়, “সিপিএমের হয়ে যে লোকগুলো ৩৪ বছর অত্যাচার করেছে, তারাই আজ বিজেপির বড়ো বড়ো ওস্তাদ হয়েছে। সিপিএমের হার্মাদ হয়েছে বিজেপির জল্লাদ।”

আরও পড়ুন ফের ভুয়ো প্রচার! মদের জন্য নয়, কেরলবাসীর শৃঙ্খলাবদ্ধ লাইনে দাঁড়ানোর প্রকৃত কারণ জেনে নিন

দেশের বর্তমান পরিস্থিতিকে অঘোষিত জরুরি অবস্থার সঙ্গে তুলনা করে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, “প্রতিবাদ করলেই পেছনে সিবিআই লাগিয়ে দেওয়া হচ্ছে।” অসমের মতো পশ্চিমবঙ্গে কোনো ভাবেই এনআরসি চালু করা হবে না বলেও মন্তব্য করেন মমতা।

জঙ্গলমহলে অশান্তির জন্য বিজেপিকেই দায়ী করেন মুখ্যমন্ত্রী। তাঁর কথায়, “বাংলার ভালো সহ্য হয় না দিল্লির। শুধু অশান্তি করা কাজ। ছ’মাসের জন্য দার্জিলিংয়ে অশান্তি করেছিল। অনেক কষ্টে পরিস্থিত শান্ত করেছি। জঙ্গলমহলে দেখাল। সিট তো পায়নি। কয়েক হাজার সিটের মধ্যে কয়েকটা পেয়েছে। তাতেই জঙ্গলমহলে খুনোখুনি শুরু করে দিয়েছে। খুনোখুনির রাজনীতি আমি বরদাস্ত করব না।”

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন