partha chatterjee
পার্থ চট্টোপাধ্যায়। ফাইল ছবি।

কলকাতা: ইসলামপুরকাণ্ডের জেরে আপাতত স্থগিত হল প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্কুলে শিক্ষক বদলি। শুক্রবার রাজ্য শিক্ষা দফতর একটি নির্দেশিকায় জানায়, আপাতত প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্কুলে শিক্ষক বদলির কোনো আবেদন গ্রাহ্য করা হবে না।

এমনিতে শিক্ষক বদলি নিয়ে বিতর্কের শেষ নেই। একাধিক কারণে বরাবরই শিক্ষক বদলি নিয়ে ইতস্তত তৈরি হয়ে থাকে চাপা ক্ষোভ। শিক্ষক বদলি সমস্যার নিরসনে একাধিক বার নির্দিষ্ট নীতি ঘোষিত হলেও একাংশের শিক্ষকদের মনে ক্রমশ সেই ক্ষোভ পঞ্জীভূত হয়ে চলেছে। তবে ইসলামপুরকাণ্ডের পর থেকে যে ধরনের সমালোচনা সৃষ্টি হয়েছে, তার প্রশমনে এ মুহূর্তে শিক্ষা দফতরের স্থগিতাদেশ অবলম্বন করা ছাড়া ভিন্ন পথ সম্ভবত ছিল না।

উত্তর দিনাজপুরের ইসলামপুরের দাঁড়িভিট হাইস্কুলে উর্দুশিক্ষক নিয়োগকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা ছড়ায়। পরিস্থিতি সামাল দিতে ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছালে শুরু হয় খণ্ডযুদ্ধের। ওই ঘটনায় গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যু হয় রাজেশ সরকার ও তাপস বর্মণ নামে স্কুলের দুই প্রাক্তনীর। মৃত ছাত্রদের পরিবার ইতিমধ্যেই দিল্লি গিয়ে রাষ্ট্রপতির কাছে অভিযোগ জানান। এমনকী গত বৃহস্পতিবার পরিবারের পক্ষ থেকে কলকাতা হাইকোর্টে মামলা দায়ের করা হয়।

মাঝেরহাট সেতু বিপর্যয়ে আরও এক জখমের মৃত্যু

ফলে ইসলামপুরকাণ্ডের রেশ এখনও যথেষ্ট ভাবে রয়ে গিয়েছে রাজ্যের শিক্ষা ও রাজনৈতিক মহলে। সামনে উৎসবের মরশুম। বদলি ঘিরে অবাঞ্ছিত যে কোনো ঘটনা এড়াতে সক্রিয় সবপক্ষই।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন