পশ্চিমবঙ্গ মেডিক্যাল কাউন্সিলের দফতর। ছবি সৌজন্যে বেঙ্গলি নিউজ।

নিজস্ব প্রতিনিধি: পশ্চিমবঙ্গ মেডিক্যাল কাউন্সিলের নির্বাচন ঘিরে যে বেনিয়ম হয়েছে বৃহস্পতিবার আদালতে তা স্বীকার করে নিলেন কাউন্সিলের আইনজীবী। রাজ্যের চিকিৎসকদের সংযুক্ত মঞ্চের প্রার্থীদের পক্ষে দায়ের করা মামলার এ দিন শুনানি হয় কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি তপোব্রত চক্রবর্তীর বেঞ্চে।

ব্যালট ছাড়া খালি খাম, ভুল নামে ব্যালট পাঠানো ইত্যাদি অভিযোগ মেডিক্যাল কাউন্সিলের আইনজীবী মেনে নেন। তাঁর বক্তব্য, এই ভুলগুলি ইচ্ছাকৃত নয়। যাঁদের ব্যালট পাঠানোর দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল তাঁরাই এই ভুল করেছেন।

মেডিক্যাল কাউন্সিলের নির্বাচন ঘিরে প্রার্থীদের বহু অভিযোগ – ভোটার তালিকায় এমন বহু নাম রয়েছে যাঁরা চিকিত্‍সক-শিক্ষক এবং চিকিত্‍সক নন। আবার কোথাও ভোটারের নাম এবং ঠিকানা ভুল লেখা হয়েছে। আর ব্যালট ছাড়া ফাঁকা খাম পাঠানোর অভিযোগ তো রয়েইছে। অভিযোগকারীরা তাঁদের অভিযোগের স্বপক্ষে প্রচুর তথ্যপ্রমাণ দাখিল করেন।

আরও পড়ুন ফাঁকা খাম, পশ্চিমবঙ্গ মেডিক্যাল কাউন্সিল ভোটে রিগিংয়ের অভিযোগ, বিক্ষোভে ডাক্তাররা

এই সব অভিযোগের ভিত্তিতে কী কী ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে তা জানিয়ে ১৩ আগস্টের মধ্যে হলফনামা জমা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন বিচারপতি। ১৩ আগস্ট এই মামলার ফের শুনানি হবে।

পশ্চিমবঙ্গ মেডিক্যাল কাউন্সিলের নির্বাচন প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে ২০ জুলাই। চলবে ২০ আগস্ট পর্যন্ত। ৩৮ জন চিকিত্‍সক এই নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। ভোটার ৪৯ হাজার, গণনা ২৭ আগস্ট।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন