Connect with us

ছবির গ্যালারি

ছবিতে বিশ্বকাপের স্মরণীয় মুহূর্তগুলো!

Published

on

ওয়েবডেস্ক: রবিবার যবনিকা পড়ল এ বারের বিশ্বকাপ ক্রিকেটের। কোনো সন্দেহই নেই বিশ্বকাপের ইতিহাসে এটাই শ্রেষ্ঠ ফাইনালে। অনেকের মতে, ইংল্যান্ড ম্যাচ না জিতেও বিশ্বকাপ জিতে গেল।

যা-ই হোক, রবিবারের ফাইনালের মতোই বেশ কিছু স্মরণীয় মুহূর্ত আমাদের উপহার দিয়েছে এ বারের বিশ্বকাপ। সেগুলি কারও কারও কাছে আনন্দের, আবার কারও কারও কাছে দুঃখেরও। এরই মধ্যে কয়েকটি মুহূর্তের ছবি আমরা তুলে দিলাম আপনাদের জন্য।

Loading videos...

১) সেমিফাইনালে ধোনির রান আউট

নিঃসন্দেহে এ বারের বিশ্বকাপের অন্যতম তাৎপর্যপূর্ণ মুহূর্তগুলির একটা। ধোনি ক্রিজে থাকা এবং না-থাকার মধ্যে অনেক কিছু ফারাক হতে পারত। মার্টিন গাপ্টিল, দুর্দান্ত থ্রো-এ ধোনিকে ফিরিয়ে দেন, আর তার পরেই হতাশায় ডুবে যায় ভারত। শেষ হয় ফাইনালে যাওয়ার ভারতের যাবতীয় সম্ভাবনার।

২) বিশ্বকাপের ইতিহাসে প্রথম বার সেমিফাইনালে হারল অস্ট্রেলিয়া

অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চের এই ছবিটিই প্রমাণ করে দিচ্ছে, এই ব্যাপারটি হতে পারে ভাবতেই পারেননি তিনি। বিশ্বকাপের ইতিহাসে অস্ট্রেলিয়া যত বারই সেমিফাইনালে গিয়েছে, জিতে ফাইনালে উঠেছে। এ বারই সেটা হল না। টুর্নামেন্টের সব থেকে জঘন্য ক্রিকেট খেলে ইংল্যান্ডের হাতে পর্যুদস্ত হল অস্ট্রেলিয়া।

৩) ইডেনে পেরেছিলেন, ম্যাঞ্চেস্টারে পারলেন না কার্লস ব্র্যাথওয়েট

অসম্ভবকে সম্ভব করে ফেলার মধ্যে মাত্র এক চুলের ফারাক। বাউন্ডারি লাইনে টিম সাউদি লাফিয়ে ক্যাচটি না নিলে, জিতে যেত ওয়েস্ট ইন্ডিজ। আর একার হাতে জিতিয়ে তিনিই হয়ে উঠতেন নায়ক। সেই কার্লস ব্র্যাথওয়েট, যিনি ২০১৬-এর টি২০ বিশ্বকাপের ফাইনালে ইডেনে শেষ ওভারে পর পর চারটে ছয় মেরে ট্রফি দিয়েছিলেন ক্যারিবিয়ানদের। এ বারও কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে একার হাতে দলকে টেনে নিয়ে যাচ্ছিলেন। অনবদ্য শতরান এল তাঁর ব্যাট থেকে। তবুও শেষরক্ষা হল না।

৪) একার হাতে সাউথ আফ্রিকাকে বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে দিলেন উইলিয়ামসন

বিশ্বকাপে টিকে থাকতে হলে ম্যাচটি জিততেই হত সাউথ আফ্রিকাকে। আর জেতার পরিস্থিতিও তৈরি হয়েই ছিল। নিউজিল্যান্ডকে প্রায় নিজেদের কবজায় এনে ফেলেছিল প্রোটিয়ারা। কিন্তু তখনও যে নিজের লক্ষ্যে অবিচল ছিলেন কিউয়ি অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। কঠিন পরিস্থিতির মধ্যেও ঠান্ডা মাথায় ব্যাট করে দুর্দান্ত শতরান করে দলকে জেতালেন এবং ছিটকে দিলেন সাউথ আফ্রিকাকে।

৫) রক্ষাকর্তা যখন রোহিত

গত বিশ্বকাপে চারটে শতরান করে তাক লাগিয়ে দিয়েছিলেন শ্রীলঙ্কার কুমার সঙ্গকারা। এ বার সেই রেকর্ড ভেঙে পাঁচটা শতরান এল রোহিত শর্মার ব্যাট থেকে। মাত্র ২৬ রানের জন্য সচিন তেন্ডুলকরের রেকর্ডটি তিনি ভাঙতে পারেননি। নইলে একটি বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ রানসংগ্রহকারীর মালিক তিনিই হতেন। গ্রুপ লিগে শীর্ষে থাকার পেছনে রোহিতের যে কত অবদান সেটা তামাম ভারতবাসীই জানেন।

আরও পড়ুন একদিনের ক্রিকেটে অধিনায়কত্ব হারাচ্ছেন বিরাট?

৬) বাংলাদেশের ত্রাতা শাকিব

বাংলাদেশ যে রকম বিশ্বকাপ অভিযানের পরিকল্পনা করেছিল, সে রকম হয়নি। তিনটে ম্যাচ জিতলেও, আরও অন্তত দু’টি ম্যাচ জেতার পরিকল্পনা ছিল তাদের, পাকিস্তান এবং শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে। আর তা হলেই সেমিফাইনালে যাওয়ার আশা থাকত তাদের কাছে। তবুও বাংলাদেশের নায়ক তো বটেই, এ বার বিশ্বকাপে যাবতীয় চর্চার কেন্দ্রবিন্দুতে শাকিব আল হাসান। ব্যাট হাতে ৬০৬ রান এবং বল হাতে ১১ উইকেট। যেন অতিমানবীয় কীর্তি। তাকে পেছনে রেখে টুর্নামেন্টের সেরা প্লেয়ারের মুকুট উইলিয়ামসনের মাথায় ওঠায় বাংলাদেশের ক্রিকেটমোদীরা ক্ষুব্ধ হবেন তা তো বলাই বাহুল্য।

৭) স্টার্কের নিখুঁত ইয়র্কারে স্টাম্প ছিটকে গেল বেন স্টোক্সের

এ বার বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ উইকেট সংগ্রহকারী অস্ট্রেলিয়ার মিচেল স্টার্ক। নিয়েছেন ২৭টা উইকেট। কিন্তু এরই মধ্যে তাঁর অন্যতম সেরা উইকেটটি এসেছিল গ্রুপ লিগে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ম্যাচে। সেট হয়ে যাওয়ার বেন স্টোক্সের স্টাম্প নিখুঁত ইয়র্কারে তিনি উড়িয়ে দিলেন। স্টোক্স তো বোল্ড হলেনই, সেই সঙ্গে ওই ম্যাচে ইংল্যান্ডের ভাগ্যও ডুবল।

৮) জোফ্রা আর্চারের বাউন্সারে থুতনি থেকে রক্ত অ্যালেক্স ক্যারির

বিশ্বকাপের অন্যতম সেরা মুহূর্ত এটাকে বলা যেতেই পারে। ৭০-৮০-এর দশকের বিভীষিকাই যেন ফিরিয়ে আনলেন ইংল্যান্ডের জোফ্রা আর্চার। সেমিফাইনালে অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটসম্যান অ্যালেক্স ক্যারিকে দিলেন মারণ একটা বাউন্সার। সেটা সামলাতে গিয়ে হিমশিম খেলেন ক্যারি। হেলমেট খুলে হাতে চলে এল, সেই সঙ্গে থুতনি থেকে গলগল করে পড়তে শুরু করল রক্ত। যদিও ব্যান্ডেজ করে আবার ইনিংস শুরু করে ক্যারি।

৯) যে রান আউট বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়ন ঠিক করে দিল

অনেকেই বলছেন যেমন কর্ম তেমন ফল। সত্যিই আজব এই ক্রিকেট খেলা। একদিন যিনি বিপক্ষের ব্যাটসম্যানকে রান আউট করে দলকে ফাইনালে তুলতে পারেন, পরের দিনই তিনি রান আউটের মধ্যে দিয়েই বিশ্বকাপের ট্রফিটি মাঠে রেখে আসতে পারেন। এমনই হল মার্টিন গাপ্টিলের সঙ্গে। সুপার ওভারের শেষ বলে নিউজিল্যান্ডকে দুই রান করতে হত জেতার জন্য। গাপ্টিল এক রান নিয়ে দুই রানের জন্য ফিরতে গিয়েই রান আউটের শিকার হলেন। নিজের স্নায়ুকে ঠিকঠাক রেখে গাপ্টিলকে রান আউট করতে ভুল করেননি ইংল্যান্ডের জস বাটলার।

১০) আবার মন জিতল নিউজিল্যান্ড

২০১৫-এর পর আবার বিশ্বকাপ ফাইনালে ব্যর্থ নিউজিল্যান্ড। তবে সে বার একপেশে ম্যাচ হেরে গিয়েছিল বলে তাদের দুঃখ যতটা ছিল, এ বার দুঃখ অনেকটাই বেশি। কারণ এই ম্যাচে কোনো দলই যে জেতেনি। শুধুমাত্র ক্রিকেটের অদ্ভুত নিয়মের সৌজন্যে ইংল্যান্ড বিশ্বকাপ জিতে গেল। তবুও গোটা টুর্নামেন্টে ভালো খেলে এবং সব থেকে বড়ো কথা ভদ্র আচরণের মধ্যে দিয়ে তামাম ক্রিকেট বিশ্বের মন জয় করে নিল নিউজিল্যান্ড।

ছবির গ্যালারি

দীপাবলিতে সেজে উঠল আমতার শ্রী রামকৃষ্ণ প্রেমবিহার

Published

on

খবরঅনলাইন ডেস্ক: হাওড়ার আমতার কাছে খড়িয়পে অবস্থিত শ্রী রামকৃষ্ণ প্রেমবিহার। এই মঠে এখন কর্মযজ্ঞ চলছে। বিশাল মন্দির তৈরি হচ্ছে। মালদা, মুর্শিদাবাদের শ্রমিকদের হাতে সেই মন্দির সেজে উঠছে। তার কাজ এখন প্রায় শেষের পথে।

দীপাবলির দিন মঠের সেই নবনির্মিত মন্দিরই নতুন রূপে সেজে উঠল। বিভিন্ন দিকে মোমবাতির আলোয় তৈরি হল এক মায়াবী পরিবেশ।

Loading videos...

১৯৯৫ সালে স্বামী সম্বুদ্ধানন্দের হাত ধরে পথ চলা শুরু করে এই মঠ। হাওড়ার আমতার কাছে খড়িয়প গ্রামে এই মঠের অবস্থান। এর চার বছর পর, অর্থাৎ ১৯৯৯ সালে এখানে দুর্গাপুজো শুরু। ২০০০ সালে কলকাতার চিড়িয়া মোড়ের কাছে রেডিও গলিতে এই মঠের প্রধান কার্যালয় স্থানান্তরিত হয়।

এখন অনেক সামাজিক কাজকর্মে ব্রতী হয়েছে এই মঠ। মঠের পক্ষ থেকে চালানো হয় একটি প্রাথমিক স্কুল, দাতব্য চিকিৎসালয়। চিকিৎসার পাশাপাশি বিনামূল্যে ওষুধও দেওয়া হয়। দারিদ্রসীমার নীচে থাকা বেকার যুবক ও ছাত্রদের বাগান পরিচর্যা, পশুপালন, মাছচাষ ও নানা কুটির শিল্পের প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়।

দেওয়া হয় কুটির শিল্পের নানান উপকরণও। পুরুষ, নারীদের জন্য স্বনির্ভর গোষ্ঠী খোলা হয়েছে। অঙ্কন, সেলাই ও কাটিং শেখানো হয়। প্রতি বছরই বেশ কিছু অনাথ শিশুর লেখাপড়া-থাকা সহ সার্বিক দায়িত্বও নেয় মঠ।

মন্দির পুরোপুরি তৈরি হয়ে গেলে এটা যে কলকাতা এবং তার পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে অন্যতম দর্শনীয় স্থান হতে চলেছে, তা বলাই বাহুল্য।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

পুলিশি নজরে মোটামুটি বাজিহীন মহানগর কলকাতা আলোর ছটায় উদ্ভাসিত

Continue Reading

ছবির গ্যালারি

পয়লা বৈশাখে মহানগরী: রাজীব বসুর ক্যামেরায়

Published

on

খবর অনলাইন ডেস্ক: এক বিরল পয়লা বৈশাখ দেখল মহানগরী কলকাতা। করোনাভাইরাসের জেরে লকডাউন। আর সেই লকডাউনের জেরে সব কাজ স্তব্ধ। তার ব্যত্যয় ঘটেনি বাঙালির অত্যন্ত প্রাণের উৎসব পয়লা বৈশাখ। মন্দিরে পুজো-আচ্চা হল না। দোকানে হালখাতা হল না। গানবাজনার আসরও বসল না কোথাও। কলকাতা কেমন কাটাল পয়লা বৈশাখ? দেখুন রাজীব বসুর ক্যামেরায়।

কালীঘাট মন্দিরও জনবিরল।

Loading videos...

যে সোনার দোকান জমজমাট থাকে পয়লা বৈশাখে, সেই সোনার দোকানের ঝাঁপ বন্ধ। মঙ্গলবার বউবাজার এলাকা।

ট্রেনের চাকা চলছে না। চিৎপুর ইয়ার্ডে তাদের বিশ্রাম।

তবে বাঙালির ঘরে একটু আধটু পুজো তো হয়েছে, কিংবা পয়লা বৈশাখে সামান্য মিষ্টিমুখ। শারীরিক দূরত্ব রেখে মিষ্টির দোকানে লাইন।

যৌনকর্মীদের শিশুদের এ দিন দুধ খাওয়ালেন রাজ্যের মন্ত্রী শশী পাঁজা।

আরও পড়ুন: মহারাষ্ট্রের পর গুজরাত, লকডাউনের মেয়াদ বাড়তেই পথে নেমে পড়লেন পরিযায়ী শ্রমিকেরা

Continue Reading

ছবির গ্যালারি

লকডাউনে রবিবারের কলকাতা: রাজীব বসুর ক্যামেরায়

Published

on

awareness campaign

খবর অনলাইন ডেস্ক: লকডাউনের মেয়াদ আরও দু’ সপ্তাহ বেড়ে আপাতত ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত বর্ধিত হয়েছে। কেমন আছে কলকাতা এই লকডাউনে। দেখুন রাজীব বসুর ক্যামেরায়।

রবিবার ছিল নীলপুজোর দিন। শিবের মাথায় জল ঢালার দিন। আর পরশু মঙ্গলবার পয়লা বৈশাখ, বাঙালিদের নববর্ষ। হালখাতার পুজো। কিন্তু করোনাজনিত পরিস্থিতিতে সব কিছু বন্ধ। তারই নোটিশ লটকে দেওয়া হচ্ছে বাগুইআটির একটি মন্দিরে।

Loading videos...

নববর্ষ আসছে। তবুও নির্জন, নিস্তব্ধ কালীঘাটের মন্দির।

কিন্তু মন্দিরে পুজো বন্ধ থাকলেও বাড়িতে বা দোকানে পুজো তো চলবে। তাই কুমোরটুলিতে শিল্পী ব্যস্ত তাঁর কাজে।

এ দিকে করোনাভাইরাস (coronavirus) নিয়ে সচেতনতার প্রচারও চলছে। তারই অঙ্গ হিসাবে পথচিত্র।

লকডাউনে শহরের অতি পরিচিত চিত্র – শুনশান গড়িয়াহাট মোড়।

নিরাপদ শারীরিক দূরত্ব রাখছেন পথবাসীরাও।

স্কুল-কলেজ-অফিস-কাছারি বন্ধ, সকলের ঘরে বসে কাজ। কিন্তু যাঁরা অত্যাবশ্যকীয় কাজে রয়েছেন, তাঁদের জন্য কী ব্যবস্থা? ব্যস্ত পুলিশকর্মীদের জন্য মোবাইল ক্যান্টিন।

এ দিকে রাজ্য প্রশাসনের প্রাণকেন্দ্র নবান্ন জীবাণুমুক্ত করার চেষ্টা।

আরও দেখুন: লকডাউনে বাণিজ্য-রাজধানী: বিরল দৃশ্য

Continue Reading
Advertisement
Advertisement
রাজ্য31 mins ago

Bengal Corona Update: রাজ্যে আরও বাড়ল সংক্রমণ, তবে কলকাতা-সহ ১০ জেলায় সক্রিয় রোগীর সংখ্যায় পতন

দঃ ২৪ পরগনা31 mins ago

কোভিডরোগীদের জন্য অ্যাম্বুলেন্স পরিষেবা চালু করল জয়নগর মজিলপুর পুরসভা

sputnik v vaccine
দেশ1 hour ago

Sputnik V: আগামী সপ্তাহেই ভারতের বাজারে তৃতীয় কোভিড ভ্যাকসিন, জানাল কেন্দ্র

দেশ2 hours ago

অমিত শাহকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না? দিল্লি পুলিশে ‘নিখোঁজ ডায়েরি’

ক্রিকেট3 hours ago

ভারতের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে হার কেন? অদ্ভুত যুক্তি দিলেন টিম পেইন

মুর্শিদাবাদ3 hours ago

অনাস্থার আগেই মুর্শিদাবাদের জেলা সভাধিপতির পদ থেকে পদত্যাগ শুভেন্দু-ঘনিষ্ঠর

রাজ্য3 hours ago

কোভিডে আক্রান্ত হয়ে প্রয়াত মরণোত্তর দেহ ও অঙ্গদান আন্দোলনের পথিকৃৎ ব্রজ রায়

Coronavirus Delhi
দেশ4 hours ago

Coronavirus Second Wave: সংক্রমণের হার ১৪ শতাংশে, সংক্রমণ নামল ১০ হাজারে, অভাবী রাজ্যগুলিকে অক্সিজেন দিয়ে সাহায্য করতে চায় দিল্লি

Madhyamik examination west bengal
শিক্ষা ও কেরিয়ার2 days ago

Madhyamik 2021: আপাতত সম্ভব নয় মাধ্যমিক পরীক্ষা, সরকারের সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় পর্ষদ

বিজ্ঞান2 days ago

জানেন কি, কোভিড থেকে সুস্থ হওয়ার পর অ্যান্টিবডিগুলি কত দিন পর্যন্ত রক্তে থেকে যায়

দেশ2 days ago

Covid Crisis: সংক্রমণের ধার কমাতে একটি বিশেষ ওষুধে ছাড়পত্র দিল গোয়া, খেতে হবে সবাইকে

বিজ্ঞান2 days ago

রক্তের গ্রুপের উপর কি কোভিড আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা থাকে, গবেষণায় জানাল সিএসআইআর

শরীরস্বাস্থ্য1 day ago

করোনার এই দুঃসহ সময়ে অক্সিজেন বিপর্যয়ের সহজ সমাধান দিলেন বিজ্ঞানী ড. বিজন কুমার শীল

প্রযুক্তি2 days ago

পশ্চিমবঙ্গ সরকারের কোভিড অ্যাপ, সহজে জানা যাবে যাবতীয় তথ্য

দেশ2 days ago

Corona Update: দৈনিক সংক্রমণকে ছাপিয়ে গেল সুস্থতা, দু’মাস ধরে টানা বৃদ্ধির পর অবশেষে কমল সক্রিয় রোগী

সম্পর্ক1 day ago

Corona Crisis: এই কঠিন সময়ে কিছু সাধারণ নিয়ম মেনে চললেই সম্পর্ক অটুট থাকবে

ভিডিও

কেনাকাটা

কেনাকাটা2 months ago

বাজেট কম? তা হলে ৮ হাজার টাকার নীচে এই ৫টি স্মার্টফোন দেখতে পারেন

আট হাজার টাকার মধ্যেই দেখে নিতে পারেন দুর্দান্ত কিছু ফিচারের স্মার্টফোনগুলি।

কেনাকাটা3 months ago

সরস্বতী পুজোর পোশাক, ছোটোদের জন্য কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সরস্বতী পুজোয় প্রায় সব ছোটো ছেলেমেয়েই হলুদ লাল ও অন্যান্য রঙের শাড়ি, পাঞ্জাবিতে সেজে ওঠে। তাই ছোটোদের জন্য...

কেনাকাটা3 months ago

সরস্বতী পুজো স্পেশাল হলুদ শাড়ির নতুন কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই সরস্বতী পুজো। এই দিন বয়স নির্বিশেষে সবাই হলুদ রঙের পোশাকের প্রতি বেশি আকর্ষিত হয়। তাই হলুদ রঙের...

কেনাকাটা4 months ago

বাসন্তী রঙের পোশাক খুঁজছেন?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই আসছে সরস্বতী পুজো। সেই দিন হলুদ বা বাসন্তী রঙের পোশাক পরার একটা চল রয়েছে অনেকের মধ্যেই। ওই...

কেনাকাটা4 months ago

ঘরদোরের মেকওভার করতে চান? এগুলি খুবই উপযুক্ত

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ঘরদোর সব একঘেয়ে লাগছে? মেকওভার করুন সাধ্যের মধ্যে। নাগালের মধ্যে থাকা কয়েকটি আইটেম রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার...

কেনাকাটা4 months ago

সিলিকন প্রোডাক্ট রোজের ব্যবহারের জন্য খুবই সুবিধেজনক

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যপ্রয়োজনীয় বিভিন্ন সামগ্রী এখন সিলিকনের। এগুলির ব্যবহার যেমন সুবিধের তেমনই পরিষ্কার করাও সহজ। তেমনই কয়েকটি কাজের সামগ্রীর খোঁজ...

কেনাকাটা4 months ago

আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আজ রইল আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার সময় যে দাম ছিল...

কেনাকাটা4 months ago

রান্নাঘরের এই সামগ্রীগুলি কি আপনার সংগ্রহে আছে?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরে বাসনপত্রের এমন অনেক সুবিধেজনক কালেকশন আছে যেগুলি থাকলে কাজ অনেক সহজ হয়ে যেতে পারে। এমনকি দেখতেও সুন্দর।...

কেনাকাটা4 months ago

৫০% পর্যন্ত ছাড় রয়েছে এই প্যান্ট্রি আইটেমগুলিতে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দৈনন্দিন জীবনের নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসগুলির মধ্যে বেশ কিছু এখন পাওয়া যাচ্ছে প্রায় ৫০% বা তার বেশি ছাড়ে। তার মধ্যে...

কেনাকাটা4 months ago

ঘরের জন্য কয়েকটি খুবই প্রয়োজনীয় সামগ্রী

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যদিনের প্রয়োজনীয় ও সুবিধাজনক বেশ কয়েকটি সামগ্রীর খোঁজ রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদনটি লেখার সময় যে দাম ছিল তা-ই...

নজরে