ওয়েবডেস্ক : অনেকেই আছেন বই পড়তে খুবই ভালোবাসেন। এক কথায় বইয়ের পোকা। তেমন নিজের সংগ্রহে বই রাখতেও ভালোবাসেন। কিন্তু জায়গার অভাবে সব বই কেনা হয়ে ওঠে না। তাঁদের জন্য রইল কয়েকটা অ্যাপের সন্ধান। অ্যাপগুলো পছন্দ মতো বইয়ের চাহিদা যেমন পূরণ করবে, তেমনই সংগ্রহ করার ইচ্ছাকেও বেশ খানিকটা পূরণ হতে সাহায্য করবে। দেখুন এই তালিকায় কী কী অ্যাপ রয়েছে।

গুডরিডস : ৩৫০ লক্ষ মানুষের আনাগোনার জায়গা এই গুডরিডার্স। সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইট এটা। এখানে পড়ে ফেলা পছন্দের বইয়ের তালিকা দিয়ে একটা ভার্চ্যুয়াল বুকশেলফ বানিয়ে ফেলা যায়। আবার পড়তে ইচ্ছা আছে এমন বইয়ের তালিকাও বানিয়ে রাখা যায়। যে কোনো বইয়ের ব্যাপারে রিভিউ পেতে বা বই সম্পর্কিত যে কোনো সাহায্যের জন্য এই অ্যাপ দারুণ উপকারী।

আমাজন কাইন্ডলি : অ্যাডভেঞ্চার  থেকে অর্থনীতি, ইতিহাস থেকে ভ্রমণ, রাজনীতি থেকে ধর্ম সব রকমের বইয়ের সংগ্রহ রয়েছে আমাজন কাইন্ডলি অ্যাপে। সব বয়সের সব রকমের বই আছে এই অ্যাপে। এখানে যেমন ফ্রি ই-বুক পড়ার সুবিধে আছে, তেমনই টাকা দিয়ে বই পড়ারও সুযোগও আছে।

পকেট : এই অ্যাপের মাধ্যমে কোনো বই আলাদা ভাবে সংগ্রহ করা যাবে। অর্থাৎ পকেটে সংগ্রহ করা যাবে। পরে সুবিধে মতো তা পড়াও যাবে। এমনকি পরে বইটা পড়ার সময় অফলাইন থেকেও পড়া যাবে। তার জন্যও ব্যবস্থা আছে।

ইনস্টাপেপার : পকেটের মতোই একটা অ্যাপ ইনস্টাপেপার। অফ লাইন রেখে এখানেও বই পড়া যায়। পাশাপাশি নিজের সুবিধে মতো ফরম্যাট পরিবর্তনও করে নেওয়া যায়।

গুগল প্লে বুকস : এখানে অনেক বইয়ের সংগ্রহ এক নিমেষে পাওয়া যায়। এখান থেকে যেমন বই কেনা যায়, তেমনই বই পড়াও যায়। চাইলে বই অফ লাইনে থেকেও পড়া সম্ভব। এই অ্যাপে পেজে বুক মার্কিং অপশান, লেখার ওপর হাইলাইটার ব্যবহারের সুযোগ, লেখার সাইজ পরিবর্তন করে চোখের সুবিধে মতো করে নেওয়ারও সুবিধে এই অ্যাপে আছে।

ডিকশনারি.কম ডিকশনারি অ্যান্ড থেজরাস : এই অ্যাপে ওয়ান ওয়ার্ড ডে অপশান আছে। নিজের শব্দভাণ্ডার বাড়ানোর জন্য এই অপশান খুনই কার্যকর। সঙ্গে আছে বিশাল সাধারণ জ্ঞানের বিশাল ভাণ্ডারও। তাছাড়াও আছে ক্রসওয়ার্ড পাজেল।

কমিক্সোলজি :  যাঁরা বই পড়তে ভালোবাসেন না কিন্তু কমিকের বই পছন্দ করেন তাঁদের জন্য রয়েছে অ্যাপ কমিক্সোলজি। সব ধরনের কমিকের বই পড়া যায় এই অ্যাপে।

অডিবেল অডিওবুকস : নিজের বই পড়ার সময় নেই। কিন্তু কেউ পড়ে দিলে বেশ ভালোই হতো – এমনটা যদি মনে হয়ে থাকে তবে তার জন্য রয়েছে অডিবেল। পছন্দের বইটি আর কষ্ট করে পড়তে হবে না। অডিবেলই পড়ে শুনিয়ে দেবে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here