ajit wadwkar
অজিত ওয়াড়েকর। ছবি সৌজন্যে ইন্ডিয়াডটকম।

ওয়েবডেস্ক: প্রাক্তন ক্রিকেট অধিনায়ক অজিত ওয়াড়েকর মারা গেলেন। দীর্ঘদিন ধরে তিনি বার্ধক্যজনিত নানা অসুস্থতায় ভুগছিলেন। বুধবার রাতে মুম্বইয়ের জসলোক হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৭৭।

বাঁ হাতি ব্যাটসম্যান হিসাবে টেস্ট ক্রিকেটে ওয়াড়েকরের আবির্ভাব ১৯৬৬-তে, মুম্বইয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে। ভারতের হয়ে তিনি ৩৭টি টেস্ট খেলেন, তাঁর সংগ্রহে ছিল ২১১৩ রান, গড় ৩১.০৭। ১৯৭৪-এ ভারতের প্রথম দু’টি একদিনের ম্যাচেও অংশ নিয়েছিলেন অজিত। তাঁর সব চেয়ে বড়ো সাফল্য দেশের অধিনায়ক হিসাবে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে তাদের দেশের মাটিতে হারিয়ে সিরিজ জেতা। নব্বইয়ের দেশকে তিনি ভারতীয় ক্রিকেট দলের ম্যানেজার ছিলেন।

অজিত ওয়াড়েকরের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেছেন, “ভারতীয় ক্রিকেটে গুরুত্বপূর্ণ অবদানের জন্য তিনি চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবেন। এক জন বড়ো মাপের ব্যাটসম্যান এবং সফল অধিনায়ক। আমাদের দেশের ক্রিকেট- ইতিহাসে বেশ কিছু স্মরণীয় জয়ে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন তিনি। কার্যকর ক্রিকেট প্রশাসক হিসাবেও তিনি প্রশংসা পাওয়ার যোগ্য। তাঁর প্রয়াণে আমি ব্যথিত।”

প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে অজিত ওয়াড়েকরের আবির্ভাব বোম্বের হয়ে, ১৯৫৮-৫৯ সালে। ১৯৬৬-এর ডিসেম্বরে টেস্ট ক্রিকেটে তাঁর অভিষেক। ১৯৭৪ পর্যন্ত তিনি ভারতীয় দলের নিয়মিত সদস্য ছিলেন, ব্যাট করতে নামতেন তিন নম্বরে। ১৯৭১-এ ভারতীয় দলের অধিনায়ক মনোনীত হন।তাঁর নেতৃত্বেই ভারত ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও ইংল্যান্ড সফরে যায়। ভারতের সেই দুই সফর দেশের ক্রিকেট ইতিহাসে চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবে।

এ বোধহয় স্বপ্নেও কেউ ভাবতে পারেননি। ওয়েস্ট ইন্ডিজের মাটিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে হারানো? অসম্ভব। দুরন্ত পিচ, আগুনে বল – এ সব সামলে ভারতের জয়? কিন্তু সেই অসম্ভবকেই সম্ভব করেছিল অজিত ওয়াড়েকরের দল। দিলীপ সারদেশাই যেন ‘রক অফ জিব্রাল্টার’। নতুন তারকা সুনীল গাওস্করের উদয়। পাঁচ টেস্টের সিরিজে চারটি টেস্ট ড্র। পোর্ট অফ স্পেনের কুইনস পার্ক ওভালের দ্বিতীয় টেস্টে ভারত জিতল ৭ উইকেটে। ১-০ ফলে ভারতের হাতে সিরিজ।

ওয়াড়েকরের অধিনায়কত্বে টেস্ট ক্রিকেটে জয়ের ধারা অব্যাহত ভারতের। লন্ডনের ওভালে তৃতীয় টেস্টে ভগবত চন্দ্রশেখর গুঁড়িয়ে দিলেন ইংল্যান্ডকে। দুই ইনিংস মিলিয়ে ৮টি উইকেট পকেটে পুরলেন। পাশে পেলেন বেদী ও বেঙ্কটরাঘবনকে। তিন টেস্টের সিরিজ ভারত দখল করল ১-০ ফলে।

১৯৭৪-এ ওয়াড়েকরের নেতৃত্বে ভারত আবার গেল ইংল্যান্ড সফরে। সেখানে দু’টো একদিনের ম্যাচও খেললেন। কিন্তু ভারতের কাছে সেই সফর ছিল এক বিপর্যয়। ৩টি টেস্ট এবং ২টি একদিনের ম্যাচের সব ক’টিতেই পর্যুদস্ত হল ভারত। ভারতের পরাজয়ের সমস্ত দায় নিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নিলেন অজিত ওয়াড়েকর।

ক্রিকেটে তাঁর অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ ওয়াড়েকরকে অর্জুন পুরস্কার, পদ্মশ্রী সম্মান এবং সিকে নায়ডু লাইফটাইম অ্যাচিভমেন্ট অ্যাওয়ার্ডে ভূষিত করা হয়।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন