australia wins ashes

ইংল্যান্ড ৪০৩ (মালান ১৪০, স্টার্ক ৪-৯১) এবং ২১৮ (ভিঞ্চ ৫৫, হেজেলউড ৫-৪৮)

অস্ট্রেলিয়া ৬৬২-৯ ডিঃ (স্মিথ ২৩৯, অ্যান্ডারসন ৪-১১৬)

পার্থ: পেসারদের স্বর্গরাজ্য হিসেবে পরিচিত পার্থের ঐতিহাসিক ওয়াকা গ্রাউণ্ডের শেষ টেস্ট স্মরণীয় করে রাখল অস্ট্রেলিয়া। ইংল্যান্ডের হাত থেকে চার বছর পর অ্যাসেজ সিরিজ পুনরুদ্ধার করে ফেলল স্মিথবাহিনী।

অ্যাসেজের তৃতীয় টেস্টে পঞ্চম দিন ইংল্যান্ডের ওপরে বুলডোজার চালিয়ে দেন অজি পেসার জশ হেজেলউড। একাই পাঁচ উইকেট নেন তিনি। পঞ্চম দিন ইংল্যান্ডের দায়িত্ব ছিল মূলত পিচ কামড়ে পড়ে থাকার। বৃষ্টিতে প্রথম সেশন ভেস্তে যাওয়ার পর ইংল্যান্ড শিবিরে কিছুটা অক্সিজেন এসেছিল। কিন্তু সেই অক্সিজেন কেড়ে নেন হেজেলউড।

দুর্দান্ত অধিনায়কত্ব এবং অসামান্য ব্যাটিং করলেন অজি অধিনায়ক স্টিভ স্মিথ। অ্যাসেজ সিরিজ শুরু হওয়ার আগে প্রবল চাপে ছিলেন স্মিথ। গত বছর ঘরের মাঠে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে সিরিজ হেরে গিয়েছিল অস্ট্রেলিয়া। এ বছরের গড়ায়, ভারতেও টেস্ট সিরিজ হারে তারা। অন্য দিকে ভালো ফর্মে ছিল ইংল্যান্ড। কিন্তু এ বার সব কিছু ওলটপালট হয়ে গেল।

এই টেস্টের শুরুতে ভালোই খেলেছিল ইংল্যান্ড। প্রথম ইনিংসে একটা সময় তাদের স্কোর ছিল চার উইকেটে ৩৬৮। সেখান থেকে প্রত্যাবর্তন ঘটায় অজি বোলাররা। প্রথম ইনিংসে ৪০৩-এই অল আউট হয়ে যায় ইংল্যান্ড। ইংল্যান্ডের প্রথম ইনিংসের রান তাড়া করতে নেমে একটা সময়ে চার ২৪৮ ছিল অস্ট্রেলিয়ার স্কোর। এই পরিস্থিতিতে আর একটা উইকেট ইংল্যান্ড নিতে পারলেই ম্যাচের রাশ তাদের হাতে চলে আসত। কিন্তু সেটা হল না। মিচেল মার্শকে সঙ্গে নিয়ে রুখে দাঁড়ালেন স্মিথ।

অধিনায়ক নিজে করলেন দ্বিশতরান। দু’শোর কাছাকাছি পৌঁছে থেমে যান মার্শ। প্রথম ইনিংসে ২৫৯ রানের লিড নেয় অস্ট্রেলিয়া। তার পর অস্ট্রেলিয়ার জেতা নিয়ে কারও কোনো সংশয় ছিল না, শুধু দরকার ছিল আবহাওয়ার সহায়তা। পঞ্চম দিন শুরুতে আবহাওয়া বিমুখ থাকলেও, মধ্যাহ্নভোজনের পরে ভালো আবহাওয়াকে কাজে লাগিয়ে ইংল্যান্ডকে গুঁড়িয়ে দেন হেজেলউড।

প্রথম তিনটে টেস্ট জিতে নিয়ে অ্যাসেজ সিরিজ জিতে নিল অস্ট্রেলিয়া। এর পর যে তাঁরা হোয়াইটওয়াশের লক্ষ্যেই নামবেন সে কথা বলে দেন স্মিথ। অন্য দিকে পরের দু’টি টেস্ট জিতে কিছুটা মুখরক্ষা করার চেষ্টায় নামবে ইংল্যান্ড, এমনই জানান ব্রিটিশ অধিনায়ক জো রুট।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here