t20final

ওয়েবডেস্ক: যে কোনো ক্রীড়াবিদের কাছে সব থেকে ভয়ের কারণ চোট, যা তাঁকে মানসিক ভাবে বিপর্যস্ত করতে যথেষ্ট। খেলোয়াড়রা চান চোটমুক্ত থেকে দলকে সাফল্য এনে দিতে। কিন্তু সব সময় তা সম্ভব হয়ে ওঠে না। কারণ চোটও খেলারই অঙ্গ। অবশ্য তা যদি দলের অন্যতম নির্ভরযোগ্য খেলোয়াড়ের পক্ষে হয় তা হলে সহজে যে চিন্তামুক্ত হতে পারবে না জাতীয় নির্বাচকমণ্ডলী তা বেশ জোর গলায় বলা যায়। তবে আগামী দিনে যাতে এই রকম অসুবিধার সম্মুখীন না হতে হয় তার জন্য সেই খেলোয়াড়ের বিদেশে খেলা থেকে নিষেধাজ্ঞা জারি করল জাতীয় বোর্ড।

এই মুহূর্তে বাংলাদেশ ক্রিকেটের অন্যতম সেরা তরুণ বোলার মুস্তাফিজুর রহমান। তবে তিনি আগামী দু’বছরের জন্য কোনো বিদেশি টি-২০ লিগে অংশগ্রহণ করতে পারবেন না। এমনটাই জানিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। বোর্ডের প্রেসিডেন্ট নাজমুল হাসান বলেন, “আমরা ওকে জানিয়েছি যে আগামী দু’বছরের জন্য বিদেশের কোনো টি-২০ লিগে সে অংশগ্রহণ করতে পারবে না। এই ভাবে বারবার চলতে পারে না। ও বারবার ফ্রাঞ্চাইসি দলের হয়ে খেলবে আর চোট পাবে। ফলে দেশের জার্সিতে ওকে পাওয়া যাবে না। এমনটা চলতে পারে না। ও জাতীয় হয়ে খেলতে পারবে না। কিন্তু জাতীয় বোর্ডই ওর শুশ্রূষার ভার নেবে।”

mustafizur600

তাঁর এমন বলার কারণ ২০১৫ সালে জাতীয় দলে অভিষেক হওয়ার পর থেকেই বারবার চোটাক্রান্ত মুস্তাফিজুর। এবং সবই প্রায় টি-২০ ম্যাচ খেলে। যার ফলে বহু বার অস্ত্রোপচারও করতে হয় তাঁকে। ২০১৬-য়ে সাসেক্সের হয়ে টি-২০ ম্যাচে কাঁধে চোট। এর পর চোট পান গোড়ালিতে যার জন্য ২০১৭-য় দক্ষিণ আফ্রিকা সফর থেকেও বাদ পড়তে হয়। শুধু তা-ই নয়, চলতি বছরে আইপিএলে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে মাত্র সাতটি ম্যাচ খেলার সুযোগ পান, পায়ের আঙুলে চোটের জন্য। যার ফলে কিছুদিন আগে দেহরাদুনে আফগানিস্তানের সঙ্গে টি-২০ সিরিজেও অনিশ্চিত হয়ে পড়েন তিনি।

তবে এই মুহূর্তে তিনি দলের সঙ্গে রয়েছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজে তিন ম্যাচের একদিনের সিরিজের জন্য।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here