হার্দিক-রাহুলের ওপরে থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিল বিসিসিআই

0

ওয়েবডেস্ক: অবশেষে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলবেন হার্দিক পাণ্ড্য এবং কেএল রাহুল। অম্বুডসম্যান নিয়োগ না হওয়া পর্যন্ত এই দু’জনের ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে নিল বিসিসিআইয়ের প্রশাসক কমিটি।

এই নির্দেশের পর হার্দিক এবং রাহুলের ভারতীয় দলে ঢোকার ব্যাপারে আরও কোনো প্রশ্ন থাকল না। সূত্রের খবর, নিউজিল্যান্ড সফরেই ভারতীয় দলের সঙ্গে যোগ দিতে পারেন হার্দিক।

‘হার্দিক বিতর্কে’র সূত্রপাত হয়েছিল করণ জোহরের টেলিভিশন শো ‘কফি উইথ করণ’-এ। সেখানে এমন মন্তব্য করে বসেন হার্দিক, যা শোনার পর তাঁর উপর অনেকেই ‘বর্ণবিদ্বেষ ও মহিলাদের প্রতি অসম্মান’ প্রদর্শনের মতো গুরুতর অভিযোগ আনেন। সে ভাবে কোনো বেফোঁস মন্তব্য না করেও বিপদে পড়েন রাহুলও। বিতর্ক এমন জায়গায় পৌঁছে যায়, যে অস্ট্রেলিয়া থেকে দেশে ফেরানো হয় দুই ক্রিকেটারকেই। পরে হার্দিক ও রাহুল, দুই ক্রিকেটারের কাছেই জবাবদিহি চেয়ে পাঠায় ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড। সেখানে নিঃশর্ত ক্ষমাও চান তাঁরা।

আরও পড়ুন কিউয়িদের বিরুদ্ধে ম্যাচে ধোনির পরামর্শে উইকেট পেলেন কুলদীপ

তবে এতেও বরফ গলেনি। বরং এই ইস্যুতে আড়াআড়ি ভাগ হয়ে যায় বোর্ড। একদল হার্দিক ও রাহুলের কড়া শাস্তির পক্ষে সওয়াল করে।  এবং অন্য পক্ষ শাস্তি শিথিল করে তাঁদের পুনরায় ক্রিকেট মাঠে ফিরিয়ে আনার  কথা বলে। প্রাক্তন ক্রিকেটারদের অনেকেও এই ইস্যুতে হার্দিক ও রাহুলকে সংশোধিত হওয়ার সুযোগ দেওয়ার পক্ষে মত প্রকাশ করে।

তবে হার্দিক ও রাহুলের উপর থেকে নিষেধাজ্ঞা উঠে গেলেও তাঁরা যে একেবারে স্বস্তিতে, তা নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না। কারণ, বিসিসিআইয়ের তরফে জানানো হয়েছে, এই দুই ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে বোর্ডের গঠনতন্ত্রের ৪১(৬) ধারা অনুযায়ী তদন্ত হবে। যে হেতু শীর্ষ আদালত এখনও পর্যন্ত এই তদন্তের জন্য কোনো  নিয়োগ করেনি তাই বোর্ডের সংবিধান মেনেই তাঁদের উপর থেকে যাবতীয় নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়া হল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.