dhoni record

বিশাখাপত্তনম: সাড়ে বারো বছর আগে এই বিশাখাপত্তনমেই প্রথমবার ক্রিকেট-বিশ্ব পরিচয় পেয়েছিল মহেন্দ্র সিংহ ধোনির। সেই শহরেই নতুন একটি রেকর্ডের হাতছানি তাঁর সামনে।

সাড়ে বারো বছর আগে এখানে কী হয়েছিল একটু মনে করা যাক।

ঘরোয়া ক্রিকেটে তুখোড় পারফরম্যান্সে ভর করে ২০০৪-এর ডিসেম্বরে ভারতীয় দলে সুযোগ পান ধোনি। ঘরোয়া ক্রিকেটে ‘বিগ হিটার’ ধোনি তাঁর প্রথম চারটে ম্যাচেই ফ্লপ। বাংলাদেশের বিরুদ্ধে অভিষেক ম্যাচে শূন্য রানে আউট হয়ে যান তিনি। পরের তিনটে ম্যাচে তাঁর রান ছিল যথাক্রমে ১২, ৭ অপরাজিত এবং ৩।

এর পর এল তাঁর কেরিয়ারের মোড় ঘুরিয়ে দেওয়া পঞ্চম ম্যাচ। পাকিস্তানের বিরুদ্ধে বিশাখাপত্তনমে আয়োজিত সেই একদিনের ম্যাচে মোক্ষম চাল চাললেন তৎকালীন ভারত অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। জায়গা পরিবর্তন করে তিন নম্বরে ধোনিকে নামান তিনি। সেই সুযোগ কাজে লাগিয়ে ১২৫ বলে ১৪৮ রানের ঐতিহাসিক ইনিংস খেললেন ধোনি। ক্রিকেট-বিশ্ব প্রথম বার তাঁর পরিচয় পেল। বাকিটা ইতিহাস।

সেই বিশাখাপত্তনমেই আরও এক বার ইতিহাসে ঢুকে যাওয়ার সুযোগ রয়েছে ধোনির সামনে। আর ১০২ রান করতে পারলেই প্রথম ভারতীয় উইকেটকিপার হিসেবে একদিনের ক্রিকেটে দশ হাজার রান করে ফেলবেন তিনি। এই রেকর্ডটি বিশ্বের একমাত্র একজন উইকেটকিপারের আছে। তিনি হলেন কুমার সঙ্গাকারা। পাশাপাশি সচিন, সৌরভ এবং দ্রাবিড়ের পরে চতুর্থ ভারতীয় হিসেবে দশ হাজারি ক্লাবে ঢুকবেন মাহি।

ধোনি যে জায়গায় নামেন সেখানে শতরান করা খুব চাপের ব্যাপার। তবুও শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে ধরমশালায় প্রথম একদিনের ম্যাচে যে ফর্মের ঝলক তিনি দেখিয়েছিলেন, তা থেকে এই আশা করাই যায় যে রবিবার, তৃতীয় একদিনের ম্যাচে রেকর্ড বইয়ে নাম লেখাতে পারবেন ধোনি।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here