ss

ওয়েবডেস্ক: ক্রিকেট মাঠে খেলোয়াড়দের মধ্যে ঝামেলার ছবি বহুবার দেখা গিয়েছে। কিন্তু সেগুলির মধ্যে অন্যতম শিরোনাম দখল করেছিল আইপিএল ২০০৮-এর মুম্বই ইন্ডিয়ান্স বনাম কিংস ইলেভেন পঞ্জাব ম্যাচে। ওই বিবাদ ছিল ভারতীয় দলের দু’ক্রিকেটার হরভজন সিং এবং শ্রীসান্থের। রিপোর্টে প্রকাশিত হয়, হরভজন তাঁকে নাকি থাপ্পড় মারেন। এমনকী তার পরে শ্রীসান্থকে ভিডিওতে কাঁদতেও দেখা যায়। যা ক্রিকেট মহলে রীতিমতো আলোড়ন ফেলে।

এত দিন এই বিষয়ে কোনো মন্তব্য করেননি শ্রীসান্থ। তবে সম্প্রতি একটি জনপ্রিয় টিভি শো-য়ে এই নিয়ে মুখ খোলেন তিনি। শ্রীসান্থের মতে, তিনি নিজে খুব উৎসাহী হয়ে গিয়েছিলেন যখন ইরফান পাঠান প্রথম বলে হরভজন সিংকে ফিরিয়ে দেন। কী ভাবে আনন্দ প্রকাশ করবেন, তা বুঝে উঠতে পারছিলেন না। কারণ তিনি নিজের আবেগ ধরে রাখতে পারছিলেন না। যে কারণে ওই ম্যাচে মুম্বই হেরে যাওয়ার পর, হরভজনের কাছে গিয়ে তিনি বলেন “টাফ লাক স্কিপার”। এই কথা বলতে না বলতেই তাঁর মতে, হরভজন তাঁর গালে মুষ্ঠিবদ্ধ হাতের উল্টো ঘুষি মারেন।

অর্থাৎ, সে সময় যে হরভজনের থাপ্পড় নিয়ে ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছিল তা আদতে ছিল, হাত মুঠো করে উল্টো ঘুষি। সে কারণেই হয়তো ভিডিওতে ওভাবে গাল চেপে ধরে হাইমাউ করে কাঁদতে দেখা যায় শ্রীসান্থকে!

যদি ওই টিভি শো-য়ে শ্রীসান্থ বলেন, হরভজনের সঙ্গে তাঁর এবং তাঁর পরিবারের সম্পর্ক খুবই ভালো।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here