india vs bangladesh
ছবি সৌজন্যে ফক্স স্পোর্টস এশিয়া।

ওয়েবডেস্ক: ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ৫.১ ওভারে তখন দরকার ছিল ৭১ রান। মহেন্দ্র সিং ধোনি ব্যাট করছেন, ক্রিজে এলেন কেদার যাদব। লক্ষ্যটা কঠিন ছিল বটে, তবে অসম্ভব নয়, বিশেষ করে বিশ্বকাপের মতো আন্তর্জাতিক ম্যাচে। কিন্তু সেই রানটা তোলার কোনো চাড়ই দেখা গেল না দুই  ব্যাটসম্যান ধোনি ও যাদবের মধ্যে। যে ৩১টা বল তাঁরা খেললেন, তাতে এল সাকুল্যে ৩৯ রান। ৭টা বলে কোনো রান হয়নি। ২০টা বলে ১টা করে রান এল। চূড়ান্ত ওভারে ধোনি একটা ছয় মারলেন বটে, কিন্তু ম্যাচ হাতের বাইরে।

ধোনি ও কেদারের এ ভাবে খেলা বিপুল ভাবে সমালোচিত হয়েছে। যে সময়ে তাঁরা এই ‘মন্থর’ ব্যাটিং করে চলেছেন, তখন ধারাভাষ্য দিচ্ছিলেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। ব্যাটিংয়ের ধরন নিয়ে বিস্ময় প্রকাশ করেন তিনি। তাঁর কথায়, “আমার কাছে কোনো ব্যাখ্যা নেই। এই ভাবে কেন সিঙ্গল্‌স নেওয়া হচ্ছে, আমি বলতে পারব না। ৩৩৮ তাড়া করতে নেমে কেউ ইনিংস শেষ করছে মাত্র ৫ উইকেট হারিয়ে, এর কোনো ব্যাখ্যা আমার কাছে নেই।”    

Loading videos...

আরও পড়ুন আঙুলে চোট, বিশ্বকাপ অভিযান শেষ বিজয় শংকরের

উইকেটে যখন কোনো জুজু ছিল না, তখন কেন এ ভাবে ব্যাট করলেন ধোনি ও কেদার, তার কোনো ব্যাখ্যা নেই। এর আগেও আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে ধোনির ধীর লয়ের ব্যাটিং নিয়ে সমালোচনা করেন স্বয়ং সচিন তেন্ডুলকর।

মঙ্গলবার এজবাসটনে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ভারত নামছে। বাংলাদেশ এখন আর কোনো হেলাফেলার দল নয়। ও দিকে বিশ্বকাপের প্রথম চারে এখনও জায়গা পাকা করতে পারেনি ভারত। সুতরাং মঙ্গলবারের ম্যাচ ভারতের কাছে খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এই ম্যাচে জয় না পেলে ভারতের প্রথম চারে যাওয়া পিছিয়ে যাবে। জয়ের লক্ষ্যে ঝাঁপানোর জন্য ভারত তার টিমে কিছু রদবদল করতে পারে।

এ বারের বিশ্বকাপে ৫ ইনিংসে কেদার যাদবের রান ৮০। বাংলাদেশের বিরুদ্ধে তাঁর জায়গা পাওয়া কঠিন। তাঁর জায়গায় আসতে পারেন রবীন্দ্র জাডেজা।

ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ম্যাচে ভারতের রান তাড়া করার শুরুটাও একেবারেই ভালো হয়নি। প্রথম ১০ ওভারে ওঠে ২৮ রান। সব চেয়ে হতাশ করেন কে এল রাহুল। ৯ বল খেলেন, একটাও রান করতে পারেননি। এই পরিস্থিতিতে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্ট হয়তো দীনেশ কার্তিককে পরখ করে দেখতে পারেন।

কুলদীপ যাদব প্রথম চার ওভারেই ৪৬ রান দিয়ে ফেলেছিলেন। শেষ পর্যন্ত অবশ্য জেসন রয়কে তুলে নিয়ে কিছুটা মুখ রক্ষা করেন। ততক্ষণে অবশ্য ইংল্যান্ডের রান উঠে গিয়েছে ১৬০-এ, ২২.১ ওভারে। শেষ পর্যন্ত কুলদীপের বোলিং পরিসংখ্যান দাঁড়ায় ১০ ওভারে ৭২ রান, ১ উইকেট। বড়ো বেশি রান দিয়ে দিয়েছিলেন কুলদীপ। তাই তাঁর বদলে মঙ্গলবারের ম্যাচে হয়তো ভুবনেশ্বর কুমারকে খেলতে দেখা যেতে পারে।

তা হলে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ভারতের সম্ভাব্য দল দাঁড়াতে পারে রোহিত শর্মা, দীনেশ কার্তিক, বিরাট কোহলি, ঋষভ পন্থ, এম এস ধোনি, হার্দিক পাণ্ড্য, রবীন্দ্র জাডেজা, ভুবনেশ্বর কুমার, যজুবেন্দ্র চহল, মহম্মদ শামি এবং জসপ্রিত বুমরাহ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.