rohit sharma

ইংল্যান্ড: ১৯৮-৯ (২০ ওভার) (জেসন রয় ৬৭, বাটলার ৩৪, হেলস ৩০, পাণ্ড্য ৪-৩৮, সিদ্ধার্থ কল ২-৩৫)

ভারত: ২০১-৩ (১৮.৪ ওভার) (রোহিত ১০০ নট আউট, কোহলি ৪৩, পাণ্ড্য ৩৩ নট আউট, উইলি ১-৩৭)

ব্রিস্টল: সৌজন্যে রোহিত শর্মার সেঞ্চুরি, হার্দিক পাণ্ড্যর চার উইকেট এবং উইকেটের পিছনে দাঁড়িয়ে ধোনির পাঁচটি শিকার। তৃতীয় টি২০ ম্যাচে ইংল্যান্ডকে দুরমুশ করে তিন ম্যাচের সিরিজ মুঠোয় পুরল ভারত।

জয়ের জন্য ভারতের কাছে ইংল্যান্ড লক্ষ্যমাত্রা রেখেছিল ১৯৯ রান। ৮ বল বাকি থাকতেই সেই লক্ষ্যমাত্রা টপকে যায় বিরাটবাহিনী। রোহিত শর্মা ৫৬ বলে ১০০ করে নট আউট থাকেন। তাঁর সঙ্গে যোগ্য সঙ্গত করেন অধিনায়ক কোহলি। ২৯ বলে ৪৩ রান করেন তিনি। কোহলি আউট হলে নামেন পাণ্ড্য। ব্যাট হাতেও সফল তিনি। ১৪ বলে ৩৩ রান করে নট আউট থাকেন তিনি। ভারতের ইংনিংসে ফের ব্যর্থ শিখর ধাওয়ান। দলের ২১ রানের মাথায় মাত্র ৫ রান করে ফিরে যান তিনি। কে এল রাহুলও ১০ বলে ১৯ রান করে প্যাভেলিয়নের পথ ধরেন। তখন দলের রান ৬২। এর পর নামেন অধিনায়ক। ভারতকে আর পিছন ফিরে তাকাতে হয়নি। কোহলি দলের ১৫১ রানের মাথায় আউট হওয়ার পর বাকি কাজ সুষ্ঠু ভাবে সমাধা করেন রোহিত ও পাণ্ড্য।

এর আগে টসে জিতে ইংল্যান্ডকে ব্যাট করতে পাঠান ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি। সেই সুযোগের সদ্ব্যবহারও করতে কসুর করেননি ওপেনিং জুটি জেসন রয় আর জস বাটলার। প্রথম উইকেটের জুটিতে ৭.৫ ওভারে রান ওঠে ৯৪। ভুবনেশ্বর কুমারের পরিবর্ত খেলোয়াড় সিদ্ধার্থ কল দলের হয়ে প্রথম আঘাতটি দেন। সরাসরি বোল্ড করেন বাটলারকে (৩৪)। ন’ বল পরেই প্যাভেলিয়নের পথ ধরেন রয়। আরেক পরিবর্ত প্লেয়ার দীপক চহরের সাফল্য এ বার। চহর খেললেন কুলদীপ যাদবের জায়গায়। চহরের বলে ধোনির হাতে ক্যাচ দিয়ে নিজস্ব ৬৭ রানের মাথায় আউট হন রয়। এর পর অ্যালেক্স হেলস পরিস্থিতি কিছুটা সামাল দেন। কিন্তু এর পর বল হাতে ভেলকি দেখাতে শুরু করেন হার্দিক পাণ্ড্য। আর উইকেটের পিছনে তাঁকে যোগ্য সহযোগিতা করেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। অধিনায়ক মর্গান ফেরেন ব্যক্তিগত ৬ রানে, হেলস ৩০ রানে এবং বেয়ারস্টো ফেরেন নিজস্ব ২৫ রানে। তিন জনেই ‘কট ধোনি বোল্ড পাণ্ড্য’। মাঝে পাণ্ড্য স্টোকসের উইকেটটি তুলে নেন। স্টোকস ১৪ রান করে কোহলিকে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যান।

ধোনির ঝুলিতে তখনও আরও সাফল্য আসা বাকি ছিল। জর্ডনকে রান আউট করেন এবং কলের বলে ক্যাচ নিয়ে প্লুঙ্কেতকে ফিরিয়ে দেন ধোনি। একটি টি২০ ম্যাচে পাঁচ জনকে শিকার করে বিশ্ব রেকর্ড করলেন ধোনি। নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯ উইকেটে ১৯৮ রান তোলে ইংল্যান্ড।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here