রাজস্থানকে হারিয়ে আইপিএলে টিকে থাকল হায়দরাবাদ

0

রাজস্থান ১৬৪-৫ (স্যামসন ৮২, লোমরর ২৯ অপরাজিত, সিদ্ধার্থ ২-৩৬)

হায়দরাবাদ ১৬৭-৩ (জেসন ৬০, উইলিয়ামসন ৫১ অপরাজিত, লোমরোর ১-২২)

দুবাই: চলতি আইপিএলে টিকে থাকল হায়দরাবাদ। মহাগুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে রাজস্থানকে হারিয়ে দিল তারা। অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসনের ঠান্ডা মাথার ইনিংস এবং জেসম রয়ের আগ্রাসী ব্যাটিংয়ে ভর করে এই জয় পেল কমলা জার্সিধারীরা।

তাদের কাছে মরণবাঁচন ম্যাচ। হারলেই টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে যাওয়ার আশংকা। এই পরিস্থিতিতে প্রথমেই টসে হেরে গেল সানরাইজার্স। ফলে ফিল্ডিং করারই সিদ্ধান্ত নিতে হল তাদের।

Shyamsundar

তবে শুরুতেই সাফল্য পেয়ে যায় হায়দরাবাদ। দ্বিতীয় ওভারেই বড়ো ধাক্কা খায় রাজস্থান। ভুবনেশ্বর কুমারের প্রথম বলেই আউট হয়ে যান এভিন লুইস। ৪ বলে ৬ রান করেছিলেন লুইস। দলের ১১ রানের মাথায় প্রথম উইকেট হারাল রাজস্থান।

তবে প্রথম উইকেট তাড়াতাড়ি হারালেও রাজস্থানের রান তোলার গতি ব্যহত হয়নি। ১ উইকেট হারালেও যশস্বী জয়সওয়াল এবং সঞ্জু স্যামসনের হাত ধরে সেই ধাক্কা সামলে ওঠে তারা। ৫ ওভারে ৩৭ রান করে ফেলে রাজস্থান।

তবে প্রথম পাওয়ার প্লের পরেই আউট হয়ে যান জয়সওয়াল। ২৩ বলে ৩৬ রান করেন তিনি। তাঁকে ফিরিয়ে দেন সন্দীপ শর্মা। ৬৭ রানে ২ উইকেট হারিয়ে ফেলে তারা। কিছুক্ষণের মধ্যে ফেরেন লিয়ম লিভিংস্টোন। ১০ ওভারে তিন উইকেট খুইয়ে স্বাভাবিক ভাবেই চাপে পড়ে যায় তারা।

১৪তম ওভারে একশো পেরিয়ে যায় রাজস্থান। দুরন্ত খেলতে শুরু করেন সঞ্জু স্যামসন। ক্রমশ নিজের চেনা ছন্দ পেতে থাকেন তিনি। এগিয়ে যান অর্ধশতরানের দিকে। পঞ্চাশ পেরিয়ে আরও আগ্রাসী হতে থাকেন সঞ্জু। আইপিএলে বরাবরই ভালো খেলেন তিনি। এ দিন সেটাই হচ্ছিল।

সঞ্জু একাই শক্ত হাতে স্কোরবোর্ডে রান যোগ করতে থাকেন। রাজস্থানের ইনিংস যখন ১৬৪ রানে শেষ হয়, ততক্ষণে সঞ্জু ৫৭ বলে ৮২ রান করে ফেলেছেন। অপরাজিত ছিলেন মহিপাল লোমরোরও।

দেওয়ালে পিঠ ঠেকে যাওয়া অবস্থায় খেলতে নামা হায়দরাবাদ এ দিন দুরন্ত শুরু করে। ঋদ্ধিমান সাহা এবং জেসন রয়ের ওপেনিং জুটি মারমার কাটকাট ব্যাটিং শুরু করেন। ৫ ওভারে ৫৭ রান করে ফেলেছিলেন তাঁরা। কিন্তু ৬ ওভারের প্রথম বলেই ধাক্কা খেল হায়দরাবাদ। ১১ বলে ১৮ রান করে সাজঘরে ফেরেন ঋদ্ধি। লোমরোর বলে সঞ্জু স্যামসন স্টাম্প আউট করেন।

তবে হায়দরাবাদের রান তোলার গতি কমেনি। রাহুল তেওটিয়ার একটি ওভারে মোট ২০ রান তোলে সানরাইজার্স। অর্ধশতরান পেরিয়ে যান রয়। এই ওভারে একাই ১৮ রান করেন তিনি ১০০ পার করে ফেলে হায়দরাবাদ। কিছুক্ষণের মধ্যেই ৪২ বলে ৬০ রান করে আউট হয়ে যান জেসন রয়। নিমেষের মধ্যে ড্রেসিং রুমের পথ দেখেন প্রিয়ম গর্গ।

তবে নিজের লক্ষ্যে অবিচল ছিলেন উইলিয়ামসন। তিনি দলের বৈতরণী পার করিয়ে দিয়ে এক অসাধারণ জয় এনে দেন সানরাইজার্সের জন্য।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন