virat kohli county cricket

ওয়েবডেস্ক: শুধু ভারত নয়, বিদেশের মাঠেও একই রকম ভাবে চলে বিরাট কোহলির ব্যাট। ২০১৪-এর অস্ট্রেলিয়া সফরে চারটে টেস্টে চারটে শতরান করেছিলেন তিনি। দক্ষিণ আফ্রিকাতেও বিরাট একই রকম সাবলীল। সেখানে এখনও পর্যন্ত চার টেস্টে করেছেন দু’টি শতরান। কিন্তু ইংল্যান্ডের মাঠে বিরাটের রেকর্ড তথৈবচ। সাড়ে তিন বছর ইংল্যান্ড সফরে পাঁচ টেস্টে তাঁর গড় ছিল মাত্র ১৩.৪। ইংল্যান্ডের মাটিতে সাবলীল হয়ে উঠলেই ‘গ্রেট’ তকমা পাবেন বিরাট, তার আগে নয়, এমনই মনে করেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের প্রাক্তন ফাস্ট বোলার মাইকেল হোল্ডিং।

দক্ষিণ আফ্রিকায় টেস্ট সিরিজ হেরে গিয়েছে ভারত। কিন্তু বিরাটের ব্যাট চলেছে আগের মতোই। দ্বিতীয় টেস্টের প্রথম ইনিংসে তাঁর ব্যাট থেকে ১৫৩ রানের ইনিংসটা না বেরোলে ভারত যে আরও শোচনীয় ভাবে হারত তা বলাই বাহুল্য। এই মুহূর্তে বিরাট বিশ্বের অন্যতম সেরা তাতেও কোনো সন্দেহ নেই।

বিরাটের কেরিয়ারে এখনও গলার কাঁটার মতো বিঁধে থাকবে গত ইংল্যান্ড সফরে রান না পাওয়া। সেই সফরে বিরাটের ফর্ম দেখে বলাবলি শুরু হয়েছিল, বল যেখানে নড়বে, বিরাট সেখানে অচল। হোল্ডিং-এর কথায়, “বিরাট অত্যন্ত ভালো ব্যাটসম্যান। বিশ্বের তিন সেরা ব্যাটসম্যানদের তালিকায় বিরাট থাকবে। কিন্তু আমি বিরাটকে ইংল্যান্ডে রান করতে দেখতে চাই। যারা গ্রেট ক্রিকেটার তারা সব দেশে, সব পরিস্থিতিতে রান পায়।”

বিরাটের অবশ্য ‘গ্রেট’ হওয়ার সুযোগ সামনের জুন-জুলাইয়েই আসছে। পাঁচ টেস্টের সিরিজ খেলার জন্য ইংল্যান্ড পাড়ি দেবে ভারত। হোল্ডিং-এর কথায়, “আমি চাই বিরাট ওই সফরে রান করুক, তখনই আমি ওকে ‘গ্রেট’ বলব।”

বিরাট ছাড়াও এই মুহূর্তে স্টিভ স্মিথ এবং জো রুটকে বিশ্বের শ্রেষ্ঠ তিন ব্যাটসম্যানের তালিকায় রেখেছেন হোল্ডিং।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here