prithwi

ওয়েবডেস্ক: ভারতীয় ক্রিকেট এই মুহূর্তে সব চেয়ে চর্চিত মুখ তরুণ তারকা পৃথ্বী শ’। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে অভিষেক টেস্টেই শতরান করেছেন তিনি। আর যার ফলে সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমতো ‘ট্রেন্ডিং’ হন তিনি। আর পৃথ্বীর এই শতরানকে কাজে লাগিয়ে নিজেদের ব্যবসা আরও সুদৃঢ় করতে চেয়েছিল কিছু কোম্পানি। পৃথ্বীর অনুমতি না নিয়েই এই কাণ্ড করতে চেয়েছিল তারা। এখন তারা বিপুল ক্ষতির সম্মুখীন।

আরও পড়ুন: প্রথম ভারতীয় হিসাবে যুব অলিম্পিক্সের ইতিহাসে সোনা জিতলেন এই তরুণ

মুলত ফ্রি-রিচার্জ এবং সুইগির বিরুদ্ধে আইনি নোটিস আনল স্পোর্টস মার্কেটিং সংস্থা বেসলাইন ভেন্টারস, যারা পৃথ্বীর ম্যানেজমেন্টের দায়িত্বে রয়েছে। ইকোনমিক্স টাইমসে প্রকাশিত খবর থেকে জানা যাচ্ছে, ১ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়েছে বেসলাইন ভেন্টারস। তাদের অভিযোগ, ওই কোম্পানিগুলি বিনা অনুমতিতে পৃথ্বীর নাম এবং খ্যাতি ব্যবহার করেছিল। সুইগি, নিজেদের ব্যবসার জন্য টুইটে লেখে, “প্রথম আমরা যেগুলো সারা জীবন মনে রাখব: রসমালাইয়ের প্রথম কামড়, পৃথ্বী শ’র প্রথম ইনিংস”, যা ১৯৯৬, ট্রেডমার্ক অ্যাক্ট আইনের নিয়মের বিপরীত।

বেসলাইন ভেনটারসের এমডি তুহিন মিশ্র জানান, “হতাশাদায়ক। গোপনে ব্যবসা করছে ওরা। এটা শুধু খেলোয়াড়ের সঙ্গে অন্যায় নয়, যারা সঠিক স্পনসর তাদের সঙ্গেও। যারা নিয়ম মেনে কাজ করছে, তাদের সঙ্গেও।”

তবে শুধু এই দুই কোম্পানি নয়, পৃথ্বীর পারফরমেন্সে কাজে লাগাতে এগিয়ে আসে ‘আমূল’-ও। টুইটারে যার প্রতিফলন দেখা যায়।

নোটিশ পাওয়ার কথা স্বীকার করেছেন সুইগির মুখপাত্র। তবে বলেছেন, কোম্পানি হিসাবে তাঁরা পৃথ্বী শ’ ও তার অভিষেক সেঞ্চুরির জন্য গর্বিত। পৃথ্বী শ’র নাম ও খ্যাতি ব্যবহার করে তাঁরা কোনো আইনবিরুদ্ধ কাজ করেননি। তবে তাঁদের কোম্পানির লিগ্যাল টিম ওই নোটিশ খতিয়ে দেখছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন