ফ্রেঞ্চ ওপেন: অঘটন ঘটাতে পারলেন না সিতসিপাস, ১৯ নম্বর গ্র্যান্ড স্লাম খেতাব জিতলেন জোকোভিচ

0

খবরঅনলাইন ডেস্ক: প্রথম দু’টি সেটে এগিয়ে থেকেও পারলেন না গ্রিক তরুণ স্তেফানোস সিতসিপাস (Stefanos Tsitsipas)। প্রতিপক্ষ যে নোভাক জোকোভিচ (Novak Djokovic), যাঁর লড়াকু মেজাজ এখন টেনিসজগতে কিংবদন্তি স্বরূপ হয়ে উঠেছে। গ্রিস দেশ থেকে রোলাঁ গ্যারোর (Roland Garros) ফাইনালে খেলতে আসা ২২ বছরের তরুণকে সার্বিয়ার জোকোভিচ হারালেন ৬-৭ (৬-৮), ২-৬, ৬-৩, ৬-২, ৬-৪ ফলে।

২০২১-এর ফ্রেঞ্চ ওপেনে (French Open 2021) পুরুষদের সিঙ্গলসে চ্যাম্পিয়নের খেতাব জিতে ১৯টি গ্র্যান্ড স্লাম জেতার কৃতিত্ব অর্জন করলেন জোকোভিচ। আর একটা গ্র্যান্ড স্লাম জিতলে তিনি ছুঁয়ে ফেলবেন রজার ফেডেরার ও রাফায়েল নাদালকে।

Loading videos...

আরও এক বিরল কৃতিত্ব

আরও একটি বিরল কৃতিত্বের অধিকারী হলেন জোকোভিচ। ১৯৬৮ সালে টেনিসজগতে ‘ওপেন এরা’ শুরু হওয়ার পর জোকোভিচই প্রথম খেলোয়াড় যিনি বিশ্বের চারটি গ্র্যান্ড স্লাম টুর্নামেন্ট দু’ বার করে জিতলেন। ‘ওপেন এরা’ শুরু হওয়ার আগে এই কৃতিত্বের অধিকারী ছিলেন রয় এমার্সন ও রড লেভার। টেনিসের ‘ওপেন এরা’ অর্থে পেশাদার টেনিসের যুগ।              

ফ্রেঞ্চ ওপেনে ফাইনাল খেলার আগে ৭ বার জোকোভিচ ও সিতসিপাস মুখোমুখি হয়েছেন। এর মধ্যে ৫ বার জিতেছেন জোকোভিচ আর ২ বার সিতসিপাস। শেষ বার দেখা হয়েছিল রোমে এটিপি মাস্টার্সের কোয়ার্টার ফাইনালে। সেখানে জোকোভিচ জিতেছিলেন ৪-৬, ৭-৫, ৭-৫ ফলে। তাই ম্যাচের প্রথম দু’টি সেট যখন সিতসিপাস জিতলেন, তখন মনে হয়েছিল এ বারের ফ্রেঞ্চ ওপেন ফাইনালে অঘটন ঘটলেও ঘটতে পারে।

প্রথম দু’টি সেট সিতসিপাসের দখলে  

খেলার শুরুতেই ডাবল ফল্ট করলেন সিতসিপাস। কিন্তু প্রথম গেম ডিউস পর্যন্ত গড়াল এবং সেই ডিউস ভেঙে গেম জিতলেন সিতসিপাসই। প্রথম ফ্রেঞ্চ ওপেনের ফাইনালটা ভালোই শুরু করলেন তিনি। হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর প্রথম সেট টাইব্রেকারে গড়ায়। টাই ভেঙে সেই সেট সিতসিপাস জিতে নেন ৮-৬ ফলে।

দ্বিতীয় সেটেও অ্যাডভানটেজ সিতসিপাস। ২-০ ফলে এগিয়ে যান তিনি। এ বার ম্যাচে ফেরেন জোকোভিচ এবং এই প্রথম এই সেটে নিজের সার্ভ ধরে রাখতে সমর্থ হন। কিন্তু ফের চাপে পড়ে যান তিনি এবং এই সেট ৬-২ ফলে সহজেই দখল করেন সিতসিপাস।

স্বমহিমায় জোকোভিচ

তা হলে স্ট্রেট সেটেই হার মানতে চলেছেন জোকোভিচ আর ফ্রেঞ্চ ওপেনে ঘটতে চলেছে বিশাল অঘটন? এই প্রশ্ন যখন উঁকি মারতে শুরু করেছে টেনিসপ্রেমীদের মনে তখনই ঘুরে দাঁড়ান নোভাক জোকোভিচ। লড়াকু মনোভাবের জন্য খ্যাতি আছে জোকোভিচের। তিনি জানতেন এই সেট হারা মানেই তো বিদায়। এত সহজে হাল ছেড়ে দেওয়ার পাত্র নন তিনি। সেই মনের জোরই তাঁকে ফিরিয়ে আনে ম্যাচে এবং তৃতীয় সেট ৬-৩ ফলে দখল করেন জোকোভিচ।

এবং চতুর্থ সেটও দখল করে নেন জোকোভিচ। এই সেটে নিজের সার্ভ তো ধরে রাখেনই, তার ওপর সিতসিপাসের সার্ভ ভাঙেন। ফলে এই সেটে জোকোভিচ এগিয়ে যান ৬-২ ফলে। ফলে খেলা গড়াল পাঁচ সেটের লড়াইয়ে।

শেষ হাসি জোকোভিচেরই

এই সেটে কেউই কাউকে ছাড়তে চাইছেন না। প্রথম গেমে নিজের সার্ভ ধরে রেখে জোকোভিচ দ্বিতীয় গেম নিয়ে গেলেন ডিউসে। এক সময় এগিয়ে গেলেন ২-১-এ। আবার নিজের সার্ভ ধরে রেখে এবং সিতসিপাসের সার্ভ ভেঙে ফল নিয়ে গেলেন ৪-২-এ।

কিন্তু লড়াই চালিয়ে গেলেন সিতসিপাস। এবং একটা পয়েন্টের জন্য যেন সারা কোর্ট জুড়ে ব্যালে নাচ নেচে গেলেন দু’ জনে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত এই গেম এল সিতসিপাসের দখলে। ফল দাঁড়াল সিতসিপাসের অনুকূলে ৩-৪।

পরের গেমে জয় জোকোভিচের, পয়েন্ট দাঁড়ায় ৫-৩। এর পরের গেমে নিজের সার্ভ ধরে রেখে সিতসিপাস ফল নিয়ে যান ৫-৪-এ। পরের গেমটা ছিল জোকোভিচের কাছে ম্যাচ পয়েন্ট। সেই ম্যাচ পয়েন্ট দখল করে জোকোভিচ সেটের ফয়সালা করে নেন ৬-৪ পয়েন্টে।

আরও পড়ুন: ফ্রেঞ্চ ওপেন: মহিলাদের সিঙ্গলসে চ্যাম্পিয়নের খেতাব অবাছাই বারবোরা ক্রেইসিকোভার, প্রথম গ্র্যান্ড স্লাম জয়                                   

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.