ঢাকা: মাত্র চারটি বৈধ বল, আর তাতেই ৯২ রান দিলেন বোলার। না কোনো কম্পিউটার গেম নয়, এমন ঘটনা ঘটেছে ঢাকা দ্বিতীয় ডিভিশন ক্রিকেট লিগে।

এই কাণ্ডটি ঘটিয়েছে লালমাটিয়া ক্লাবের বোলার সুজন মেহমুদ। আক্সিওম ক্লাবের বিরুদ্ধে ম্যাচে চারটি বৈধ বল ছাড়া তেরোটি ওয়াইড এবং পনেরোটি নো-বল করেছে সে। তেরোটি ওয়াইডে ৬৫ রান দেয় সুজন। নো-বলে ওঠে ১৫ রান। বৈধ বলগুলিতে বাকি বারো রান তুলে নেয় আক্সিওম ক্লাবের এক ওপেনিং ব্যাটসম্যান। লালমাটিয়ার খাড়া করা ৮৮ রানের টার্গেট, মাত্র চার বলেই তুলে নেয় আক্সিওম।

অবশ্য আদৌ ভুলবশত এমন কাজ করেনি সুজন, পুরোটাই ছিল ইচ্ছাকৃত। এর পেছনে রয়েছে আম্পায়েরদের একাধিক ভুল সিদ্ধান্ত। লালমাটিয়া ক্লাবের মতে ম্যাচে আম্পায়ারদের একধিক সিদ্ধান্ত তাদের বিপক্ষে গিয়েছে, এর প্রতিবাদের এই কাণ্ড ঘটিয়েছে ওই বোলারটি।

লালমাটিয়া ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক, আদনান রহমন দীপনের কথায়, “টসের সময় থেকেই আমাদের বিপক্ষ দলের হয়ে পক্ষপাতিত্ব করে যাচ্ছিলেন আম্পায়ার। আমাদের অধিনায়ককে কয়েন দেখতে দেওয়া হয়নি। আমাদেরকে আগে ব্যাট করতে পাঠানো হয়, এবং প্রত্যাশামতোই একাধিক সিদ্ধান্ত আমাদের বিরুদ্ধে দেওয়া হয়।” তিনি আরও যোগ করেন, “আমাদের দলের খেলোয়াড়রা সবাই তরুণ। এই অন্যায় তারা সহ্য করতে পারেনি, তাই এক ওভারেই ৯২ রান দিয়েছে।”

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here