বার্সেলোনা-৩(সুয়ারেজ, মেসি-পেনাল্টি, ভিদাল)     রিয়াল মাদ্রিদ-০

ওয়েবডেস্ক: ভারতের দর্শকদের কথা মাথায় রেখে স্পেনে ভর দুপুরে মধ্যাহ্নভোজনের সময়ে এনে ফেলা হয়েছিল এল ক্ল্যাসিকো। ঘরের মাঠে নিজেদের ক্লাবের খেলা দেখতে হাজির হয়েছিলেন মাদ্রিদবাসী। কিন্তু খেলা শেষ হওয়ার আগেই দেখা গেল সান্তিয়াগো বের্নাবাউয়ের গ্যালারি ফাঁকা হতে শুরু করেছে। দুপুরের খাওয়া বাকি পড়ে রয়েছে যে! আর দেরি করে কিই বা হবে!

কল স্বপ্নই যে ছিল মাদ্রিদবাসীর। সঙ্গে রিয়াল কোচ জিনেদিন জিদানেরও(রোনাল্ডোরও কি নয়)। নিজেদের মাঠে মেসিকে হারানোর সুযোগ তো রয়েছেই। তার ওপর লা লিগায় রিয়াল মাদ্রিদ, আপাতত এক নম্বরে থাকা বার্সেলোনার থেকে ১১ পয়েন্টে পিছিয়ে ছিল ম্যাচ শুরুর আগে। নিজেরা চার নম্বরে। ম্যাচটা জিতে ব্যবধান কমানো এবং লা লিগার খেতাব ধরে রাখার চেষ্টা ছিল গুরুত্বপূর্ণ মোটিভেশন।

কিন্তু কিছুই হল না। উল্টে নিজেদের মাঠে মেসির দলের কাছে ৩-০ গোলে বিপর্যস্ত হলেন রোনাল্ডোরা। প্রথমার্ধে যদিও অন্যকরম লাগছিল। মনে হচ্ছিল বার্সাকে ছিঁড়ে খেয়ে ফেলবে রিয়াল। দাপিয়ে খেলছিলেন সিআর সেভেন। গোলের সুযোগও তৈরি হচ্ছিল। মেসিকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। কিন্তু গোল হল না।

দ্বিতীয়ার্ধ শুরু হতেই খেলার রং বদল। নিয়ন্ত্রিত আগ্রাসন দেখিয়ে মাখনের ওপর ছুরি চালানোর মতো রিয়ালকে ছিন্নভিন্ন করে দিল মেসির দল। দলকে এগিয়ে দিলেন সুয়ারেজ। পেনাল্টিতে গোল করে ব্যবধান বাড়ালেন এলএম টেন। শেষ মুহূর্তে গোল করালেন ভিদালকে দিয়ে।

লা লিগায় এক নম্বরে তো থাকলেনই মেসিরা। চার নম্বরে থাকা রোনাল্ডোদের থেকে এদিয়ে গেলেন ১৪ পয়েন্টে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here