কলকাতা: নতুন সমস্যা ইস্টবেঙ্গলে। কলকাতা লিগের তৃতীয় বিদেশি হিসেবে প্যালেস্তাইনের ফরওয়ার্ড ইসলাম বাতরানকে সই করানোর পর তাঁর সম্পর্কে অনাস্থা প্রকাশ করেছেন ক্লাবের এক শীর্ষকর্তা। ফুটবল সংক্রান্ত বিষয়ে যিনি কার্যত ক্লাবের শেষ কথা।

বিষয়টা কী?

টোরেসের চোটের খবর পাওয়ার পর এবং লেবাননের আবু বকরের দাম বেশি হওয়ায় প্যালেস্তাইনের এই ২৪ বছর বয়সি উইঙ্গারকেই পছন্দ করেছিলেন টেকনিক্যাল ডিরেক্টর সুভাষ ভৌমিক। স্পনসর জোগার ইত্যাদি নিয়ে ব্যস্ত কর্তারা সুভাষের ইচ্ছাতেই সিলমোহর দেন। কারণ বাতরানকে কিছুটা কম টাকায় পাওয়া যাচ্ছিল। সেই মতো কিছুদিন আগে সইও করানো হয় বাতরানকে। তারপরই বাঁধে গোলমাল।

ইসলাম বাতরান

খবর অনলাইনে আগেই প্রকাশিত হয়েছিল, মিশরের প্রিমিয়ার লিগের ক্লাব ওয়াদি ডেংলার ফুটবলার বাতরান ২০১৬ সালে এক বড়োমাপের দুর্ঘটনার কবলে পড়েন। তারপর সুস্থ হয়ে উঠলেও বহুদিন ক্লাবের হয়ে খেলতে পারেননি। যদিও বর্তমানে তিনি ফিট। কিন্তু টাকার জোগাড় করে ফেলার পর হঠাৎই ক্লাবের ওই শীর্ষকর্তার নজরে আসে বাতরানের চোটের ইতিহাস। তখনই তিনি বেঁকে বসেন। সুভাষ ভৌমিককে বলেন, বাতরানের স্থানীয় এজেন্টের সঙ্গে কথা বলে চুক্তি বাতিল করার ব্যবস্থা করতে। যদিও সুভাষ চাইছেন, বাতরানকে কলকাতায় এনে ফিটনেস দেখা হোক। কিন্তু তাতে সেই শীর্ষকর্তা নারাজ। অন্যদিকে চুক্তি হয়ে যাওয়ার পর এই সমস্যার কথা শুনে বাতরানও বিরক্ত বলে খবর।

সব মিলিয়ে পরিস্থিতি কোন দিকে গড়াচ্ছে এখনও স্পষ্ট নয়। তবে ইস্টবেঙ্গল এখন নতুন করে আগ্রহ দেখাচ্ছে আবু বকরের প্রতি। সনি নর্দের দিকে লালহলুদের নজর থাকলেও তাঁকে আনার সমীকরণে টাকা ছাড়াও বহু জটিলতা রয়েছে। তাই আবু বকরকেই বাজিয়ে দেখতে চাইছেন ক্লাবকর্তারা।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here