ওয়েব ডেস্ক: ভারতের ফুটবল-বাজারকে আরও বেশি বেশি করে কাজে লাগাতে উঠপড়ে লেগেছে আন্তর্জাতিক ফুটবল সংস্থাগুলি। কয়েকদিন আগেই এদেশে হয়ে গেছে অনূর্ধ্ব ১৭ ফুটবল বিশ্বকাপ। এবার নতুন চমক। আন্তর্জাতিক ক্লাব ফুটবলের সবচেয়ে আকর্ষণীয় দ্বৈরথ এই মুহূর্তে মেসি বনাম রোনাল্ডোর লড়াই। অর্থাৎ লা লিগার বার্সেলোনা বনাম রিয়াল মাদ্রিদ ম্যাচ। অর্থাৎ এল ক্ল্যাসিকো। সেই সেই এল ক্ল্যাসিকো বরাবরই হয় স্পেনের স্থানীয় সময় অনুযায়ী সন্ধ্যার শেষের দিকে। রাত আটটা নাগাদ। সেই পালটে দেওয়া হল ভারতীয় দর্শকদের জন্য।

এল ক্ল্যাসিকোর মতো গুরুত্বপূর্ণ ও আকর্ষণীয় ডুয়েল দেখতে বরাবরই ভারতের ফুটবল প্রেমীরা রাত জেগে থাকেন। কিন্তু যতই হোক, রাত বারোটার পর সবার জেগে থাকা নানা কারণে সম্ভব হয় না। সেই অসম্ভবকেই সম্ভব করল লা লিগা কর্তৃপক্ষ এবং সম্প্রচারকারী সংস্থা সোনি। ভারতের ফুটবলপ্রেমীদের জন্য ম্যাচের সময়ে নাটকীয় বদল আনল তাঁরা। চলতি লা লিগার প্রথম এল ক্ল্যাসিকো অনুষ্ঠিত হবে সান্তিয়াগো বার্নাবাউতে আগামী ২৩ ডিসেম্বর, শনিবার। খেলা শুরু হবে স্থানীয় সময় দুপুর ১টায়। অর্থাৎ ভারতীয় দর্শকরা ম্যাচটির সরাসরি সম্প্রচার দেখবেন বিকেল সাড়ে পাঁচটা থেকে। সোনি টেন ১ ও টেন ২ চ্যানেলে সম্প্রচার শুরু হবে ভারতীয় সময় বিকেল সাড়ে চারটে থেকে।

এছাড়া ভারতীয় দর্শকদের আরও বেশি করে ম্যাচের অংশ করে তুলতে আরও একটি বড়ো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। লা লিগার ম্যাচগুলির একটি গুরুত্ব অঙ্গ হল ‘ফুটবল এক্সট্রা’। খেলার আগে, মাঝে ও পরে ম্যাচ নিয়ে উপস্থাপক ও বিশেষজ্ঞরা আলোচনা করন এই অনুষ্ঠানে। ওই দিন এই অনুষ্ঠানটি হবে দর্শকদের মধ্যেই। যার ফলে মাঠের মধ্যেকার উত্তেজনার আঁচ আরও বেশি করে পাবেন টিভির দর্শকরা। এছাড়া ভারতীয় দর্শকরা ওই দিন অনুষ্ঠানের অতিথিদের কাছে টুইটারে প্রশ্ন করতে পারবেন। প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে জিততে পারবেন পুরস্কার। সব মিলিয়ে ভারতের ফুটবলপ্রেমীদের জন্য বড়োদিনের আগেই বড়োদিনের আয়োজন করছে লা লিগা কর্তৃপক্ষ এবং সোনি।

এছাড়া নয়াদিল্লির এনএসআইসি মাঠে ওই ম্যাচের একটি বিশেষ প্রদর্শনীরও ব্যবস্থা করা হচ্ছে। ভারতীয় দর্শকরা যাতে স্টেডিয়ামে বসে লা লিগা দেখার আমেজ পান, তার জন্যই এই বন্দোবস্ত করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন লা লিগার প্রেসিডেন্ট জেভিয়ার তেবাস।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here