messi

ওয়েবডেস্ক: বুধবার মধ্যরাতে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের গ্রুপ পর্যায়ের ম্যাচে টটেনহ্যাম হটস্পারের মুখোমুখি হবে বার্সেলোনা। এই মুহূর্তে বার্সার ফর্মে ধারাবাহিকতার অভাব লক্ষ্য করা যাচ্ছে। কারণ লিগের শেষ তিনটি ম্যাচে দু’টি ড্র এবং একটি হার। ফলে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ম্যাচে জয় পেয়ে সেই মনোবল ফিরে পেতে বদ্ধপরিকর তারা।

আরও পড়ুন: চ্যাম্পিয়ন্স লিগে হেরে গেল গত তিনবারের চ্যাম্পিয়নরা, ঘরের মাঠে পয়েন্ট নষ্ট ম্যান ইউয়ের

তবে বার্সা যখন থাকবে তখন মেসি শিরোনামে থাকবেন না তা তো হয় না। এ ক্ষেত্রেও তাই। ২০১১-র পর ফের ওয়েম্বলির মাঠে দেখা যাবে তাঁকে। সে বার চ্যাম্পিয়ন্স লিগ ফাইনালে ৩-১ ব্যবধানে ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেডকে হারায় তাঁরা। গোলও করেছিলেন মেসি। কিন্তু তার পর থেকে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে বার্সার পারফরমেন্স তেমন ভালো নয়। গতবারও সেমিফাইনাল থেকে বিদায় নিতে হয় তাঁদের। যে কোনো খেলোয়াড়ের কাছে চারবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগ পাওয়া খুব গর্বের। তবে মেসি-রোনাল্ডো কখনও থেমে থাকতে চান না। অধিনায়ক হিসাবে ফের দলকে ইউরোপ সেরা করতে বদ্ধপরিকর তিনি।

লিগের শেষ ম্যাচের পর তিনি জানিয়েছিলেন, বার্সা একজনের ওপর নির্ভর নয়। আমরা একটা দল হিসাবে খেলি। গত মাসে কাতালুনিয়া রেডিওকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, “আমরা ফের ইউরোপ সেরা হতে চাই”। গত মরশুমে ডাবল খেতাব জিতলেও, চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রেয়াল মাদ্রিদ পরপর তিনবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জয় করায় সেই আনন্দ ফিকে হয়ে যায়।

ফলে ওয়েম্বলি থেকেই চ্যাম্পিয়ন্স লিগকে পাখির চোখ করতে চায় তাঁরা।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন