mb
ছবি: মিলেনিয়াম পোস্ট

মোহনবাগান – ০                                             চার্চিল – ৩

ওয়েবডেস্ক: ঘরের মাঠে ধাক্কা খেল মোহনবাগান। রবিবার যুবভারতী ক্রীড়াঙ্গনে চার্চিলের বিরুদ্ধে তিন গোল হজম করলেন ডিকা, হেনরিরা। বল পজেশনে হোম টিম এগিয়ে থাকলেও, খেলায় তারা ছিল ছন্নছাড়া। যার কারণ মিস পাস, স্কোয়ার পাস। ম্যাচে মোহনবাগান জার্সিতে একমাত্র নজর কাড়লেন তারকা খেলোয়াড় সনি নর্ডি। হাইতিয়ান ম্যাজিশিয়ান একাই যা চেষ্টা করলেন কিন্তু সতীর্থদের থেকে কোনো সাহায্য পেলেন না।

প্রথমার্ধে সুযোগ পেয়েছিলেন তিনি কিন্তু বিপদ তৈরি হয়নি। অন্য দিকে অ্যাওয়ে ম্যাচে ট্যাকটিকাল ফুটবলে বিপক্ষকে মাত করল গোয়ার দলটি। ২১ মিনিটে গোয়ার দলটির হয়ে প্রথম গোল সিসের। ফাঁকায় দাঁড়িয়ে জালে বল ঢোকান তিনি। পিছিয়ে পড়ে অবশ্য কিছুটা চাপ বাড়াতে থাকেন কিনোয়াকিরা, তবে বিরতিতে পিছিয়ে থেকেই শেষ করে সবুজ-মেরুন।

পিছিয়ে থাকা দলের দ্বিতীয়ার্ধের শুরু থেকে চাপ বাড়ানোটাই স্বাভাবিক। কিন্তু মোহনবাগানে তা দেখা গেল না। আক্রমণ ভাগে ভীষণ শ্লথ ছিলেন ডিকারা। অন্য দিকে ব্যবধান বাড়ানোর লক্ষ্যে প্রতি-আক্রমণে চাপ বাড়ানোর চেষ্টা চালায় চার্চিল। যার ফল ৫১ মিনিটে দলের হয়ে ব্যবধান বাড়ান কলকাতায় খেলে যাওয়া প্লাজা। এর রেশ কাটতে না কাটতেই ফের গোল। চার মিনিটের মধ্যে ফাঁকা হেডে ফের গোল করে যান সেই প্লাজা। শেষ দিকে ব্যবধান কমানোর লক্ষে কিছুটা চাপ বাড়ালেও, ম্যাচে ফিরতে পারেনি মোহনবাগান।

এই ম্যাচের পর লিগ তালিকায় চতুর্থ স্থানে নেমে গেল মোহনবাগান। অন্য দিকে লিগে দ্বিতীয় স্থানে উঠে এল চার্চিল।

1 মন্তব্য

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here