মেসি-রোনাল্ডোর থেকে কারা ছিনিয়ে নিতে পারেন ব্যালন ডি ‘ অর?

0
277
messironaldotrophy

ওয়েবডেস্ক: ক্রিস্টিয়ানো রোনাল্ডো এবং লিয়নেল মেসিকে নিয়ে আলাদা করে বলার কিছু নেই। এই প্রজন্মের দুই সেরা ফুটবলার তাঁরা। শেষ দশ বছরে পাঁচ বার করে জিতেছেন ব্যালন ডি’ অর বা চলতি কথায় বিশ্বসেরা ফুটবলারের তকমা। কে এগিয়ে বা কে পিছিয়ে সেই নিয়ে তর্ক বিতর্কের শেষ নেই। তবে ষষ্ঠবারের জন্য কি তাঁরা সেরা খেলোয়াড়ের শিরোপা জিততে পারবেন? এই মুহূর্তে দাড়িয়ে বলা একটু হলেও মুশকিল। কেননা এই মরশুমে শুধু দু’জনের মধ্যে সীমাবদ্ধ নেই এই লড়াই। এমন কিছু খেলোয়াড় রয়েছেন, যাদের পরিসংখ্যান মনে রাখার মতো।

জেনে নিন এমন পাঁচ ফুটবলারের কথা, যারা এই মরশুমে ব্যালন ডি’ অর জেতার অন্যতম দাবিদার।

১। মহাম্মাদ সালাহ: এই মুহূর্তে রোনাল্ডো, মেসির সবথেকে কাছের প্রতিপক্ষ হিসাবে ধরা হচ্ছে তাঁকে। লিভারপুলের হয়ে ইপিএলে করেছেন ৩০ গোল। সব টুর্নামেন্ট মিলিয়ে দলের সর্বাধিক গোলের মালিক তিনি। শুধু তাই নয়, প্রথম খেলোয়াড় হিসাবে ইপিএলে এক মরশুমে তিনবার, মাসের সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হয়েছেন। নিজের দেশ মিশরকে নিয়ে গেছেন বিশ্বকাপের মূলপর্বেও। তাই মরশুমের শেষ পর্যন্ত ফর্ম ধরে রাখতে পারলে, হয়ে যেতে পারেন ব্যালন ডি’ অর-এর দাবিদার।

salahfinal

২। নেইমার: রোনাল্ডো, মেসির পর যাকে নিয়ে সবথেকে বেশি চর্চা হয়, তিনি ব্রাজিলিয়ান ম্যাজিশিয়ান নেইমার। তবে মেসি- রোনাল্ডো যুগে ফুটবল খেলার ফলে নিজেকে সেই ভাবে শিরোনামে আনতে পারছেন না তিনি। এই মরশুমে বার্সেলোনা ছেড়ে যোগ দিয়েছেন পিএসজিতে। শুরুটা ভালো করেছিলেন। তবে মাস দুয়েক আগে চোট পেয়ে আপাতত বিশ্রামে। তবে বিশ্বকাপকে টার্গেট করে, যদি ব্রাজিলকে ষষ্ঠবার বিশ্বজয়ী করতে পারেন, তাহলে ব্যালন ডি’ অর জেতার প্রবল দাবিদার হতে পারেন তিনি।

neymarfinal

৩। রবার্ট লিয়োনডোস্কি: এই মুহূর্তে বিশ্ব ফুটবলের অন্যতম সেরা স্ট্রাইকার তিনি। বায়ার্ন মিউনিখের হয়ে ইতিমধ্যেই ২৬ গোল করে ফেলেছেন বুন্দেসলিগায়। চ্যাম্পিয়ন্স লিগেও করেছেন পাঁচ গোল। দলকে তুলেছেন সেমিফাইনালেও। তাই আসন্ন বিশ্বকাপে যদি নিজের ফর্ম ধরে রাখতে পারেন, তবে ব্যালন ডি’ অর জেতার দাবিদার হয়ে উঠতে পারেন পোল্যান্ড জাতীয় দলের এই খেলোয়াড়।

lewandowskifinal

৪। হ্যারি কেন: এই মুহূর্তে ইংল্যান্ড জাতীয় দলের ভরসার মুখ তিনি। শেষ দু’বছরে ইপিএলের সোনার বুট তাঁর দখলে। গত বছর ইংল্যান্ডের সেরা ফুটবলারও হয়েছিলেন। এই মরশুমেও, নিজের দল টটেনহ্যাম হটস্পারের হয়ে তাঁর ফর্ম দেখার মতো। সাম্প্রতিক সময়ে চোট কাটিয়ে ফের চেনা ছন্দে পাওয়া যাচ্ছে তাঁকে। বিশ্বকাপে তাঁর পারফর্মেন্সের দিকে তাকিয়ে আছে সমস্ত ইংল্যান্ডবাসী। নিজের ফর্ম ধরে রাখতে পারলে, ব্যালন ডি’ অরের অন্যতম দাবিদার হতে পারেন।

kanefinal৫। কেভিন ডি ব্রুইন:  ইপিএলের অন্যতম সেরা খেলোয়াড় তিনি। নিজের দল ম্যাঞ্চেস্টার সিটির হয়ে তাঁর ফর্ম দেখার মতো। দলের হয়ে ১৫টি গোলে সহায়কের ভূমিকা নিয়েছেন । ইতিমধ্যেই এই মরশুমে লিগ চ্যাম্পিয়ন হয়ে গেছে সিটি। যেখানে তাঁর অবদান অনস্বীকার্য। গত বছর ইংল্যান্ডের অন্যতম সেরা দৈনিক, দ্য গার্ডিয়ানের বিচারে শ্রেষ্ঠ খেলোয়াড়দের তালিকায় ছিলেন চতুর্থ স্থানে। তাই আসন্ন বিশ্বকাপকে মাথায় রেখে যদি নিজের ফর্ম ধরে রাখতে পারেন, তবে ব্যালন ডি’ অরে তাঁর নাম অবশ্যই বিবেচিত হবে।

de-bruynfinal2

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here