কলকাতা: চেন্নাই বধ সেরে কলকাতায় ফিরল চনমনে ইস্টবেঙ্গল। পরের ম্যাচ ২৭ তারিখ, গোকুলমের বিরুদ্ধে। তাই অনুশীলনে ছুটি দেওয়া হচ্ছে না। বিদেশি ফুটবলাররা সাধারণত এই সময় গোয়ায় ছুটি কাটাতে যান, কিন্তু এবার সেই সুযোগ নেই। এসবের মধ্যেই লালহলুদে আপাতত লাইফ লাইন পেয়ে গেলেন ব্রাজিলের স্ট্রাইকার চার্লস। সৌজন্যে, চেন্নাই ম্যাচে তাঁর গোল।

শনিবার কলকাতায় ফিরে চার্লস বলেন, তিনি জানতেন তাঁকে নিয়ে নানা কথা হচ্ছে। তবে কোচকে বলেছিলেন একটা পুরো ম্যাচ খেলার সুযোগ দিতে। সেটা পেয়ে যে গোল করতে পেরেছেন, তাতে তিনি খুশি। তবে আরও খুশি দল তিন পয়েন্ট পাওয়ায়। ইস্টবেঙ্গল কর্তারা প্রায় মনস্থির করে ফেলেছিলেন, চার্লসের বিকল্প আনবেন। খেলোয়াড় খোঁজাও চলছিল। আপাতত সেই প্রক্রিয়া বন্ধ রাখা হচ্ছে।

অন্যদিকে এদিন ফিজিও গার্সিয়াকে প্রশ্ন করা হয়, মোহনবাগানের চোট সমস্যা নিয়ে। সতর্ক গার্সিয়া বললেন, “আমার কাজ আমার দলকে ফিট রাখা। সেটা আমি করছি। ইস্টবেঙ্গলে কোনো চোটআঘাত নেই। অন্য দলের খবর রাখি না।”

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here