manchester

ওয়েবডেস্ক: বিশ্বের অন্যতম সেরা ফুটবল লিগ ইংলিশ প্রিমিয়র লিগ। ইতিমধ্যেই বেশ কয়েকবার বড়ো দলগুলি একে অপরের মুখোমুখি হয়েছে। চলতি সপ্তাহে ফের তেমনই একটি ম্যাচ রয়েছে। রবিবার ঘরের মাঠে ম্যাঞ্চেস্টার ডার্বিতে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ম্যান ইউনাটেডের মুখোমুখি হতে চলেছে ম্যান সিটি। লিগে এখনও অপরাজিত গুয়ারদিওলার সিটি। অন্যদিকে শুরুটা ভাল না হলেও ধীরে ধীরে এগোচ্ছে মোরিনহোর ইউনাইটেডও। ম্যাঞ্চেস্টার ডার্বি বরাবরই রোমাঞ্চকর। গত মরশুমে ঘরের মাঠে দু’গোলে এগিয়ে গিয়েও ড্র করে সিটি। তবে নতুন মরশুমে কি হয় তা তো সময়ই বলবে।

তবে এই ম্যাচে এমন তিন লড়াই যা ম্যাঞ্চেস্টার ডার্বি জয়ের ভূমিকা নিতে পারে :

১। রহিম স্টারলিং বনাম অ্যাশলে ইয়াং

ম্যান ইউনাইটেডের অন্যতম নির্ভরশীল খেলোয়াড় ইয়াং। ডানদিক-বাঁদিক দু’দিকেই খেলতে সিদ্ধহস্ত তিনি। সিটির বিরুদ্ধে ম্যাচে তাঁর অধিনায়ক হওয়ার সুযোগ সবচেয়ে বেশি। অন্যদিকে তাঁর বিপক্ষে জাতীয় দলে তাঁর সতীর্থ স্টারলিং। গত মরশুমে ২৩ গোল করেছিলেন। এই মরশুমেও ইতিমধ্যে ১৪ ম্যাচে সাত গোল করে ফেলেছেন। প্রচুর ওয়ার্কলোড নেন দু’জনেই।

২। অ্যান্থনি মার্শিয়াল বনাম কাইল ওয়াকার

ম্যাচে নজর থাকবে এই দু’জনের লড়াইয়ের ওপরও। ২০১৭-য় সিটি-তে যোগ দেওয়ার পর থেকেই দায়িত্ব নিয়ে নিজের খেলাটা খেলে চলেছেন ওয়াকার। অন্যদিকে এই মরশুমে শুরু থেকেই নির্ভরতা দিচ্ছেন তরুণ খেলোয়াড় মার্শিয়াল। লিগে ইতিমধ্যেই আট ম্যাচে করেছেন পাঁচ গোল। একসময় দলে নিয়মিত সুযোগ পাচ্ছিলেন না। তবে এখন তিনিই দলের ত্রাতা। গত ম্যাচে সংযোজিত সময়ে জয়সূচক গোল এবং চেলসির বিরুদ্ধে জোড়া গোল করেছিলেন।

৩। আন্দ্রে হেরেরা বনাম বার্নার্ড সিলভা

তৃতীয় এবং সবচেয়ে রোমাঞ্চকর লড়াইয়ে হতে পারে এই দু’জনের মধ্যে। চলতি মরশুমে চোট পেয়ে দলের বাইরে সিটির তারকা খেলোয়াড় ডি ব্রুইন। অবশ্য তাঁর অনুপস্থিতি কিন্তু বুঝতে দিচ্ছেন না পর্তুগিজ সিলভা। পাসে থাকা দাভিদ সিলভাকে নিয়ে রীতিমতো দাপট দেখাচ্ছেন তিনি। অন্যদিকে ইউনাইটেডের হয়ে সব বড়ো ম্যাচেই মাঠে নেমেছেন হেরেরা। ডিফেন্সিভ মিডফিল্ডের কাজ করেছেন। দলের অন্যতম পরিশ্রমী খেলোয়াড় তিনি।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here