সিরিজটা শুরুর আগেও পরিস্থিতি ছিল একদম উল্টো।  এক দিকে ক্রমাগত হারে জেরবার শ্রীলঙ্কার অধিনায়ক অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস অন্য দিকে পরের পর ম্যাচ জিতে টগবগ করে ফুটতে থাকা অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক স্টিভ স্মিথ। সিরিজে মাত্র সাতটি দিন গেল, আর তাতেই পাল্টে গেল পরিস্থিতি। প্রথম টেস্টে ঐতিহাসিক জয় পাওয়া শ্রীলঙ্কা এখন দ্বিতীয় টেস্ট জিতে সিরিজ পকেটে পোরার অপেক্ষায়।

নৈসর্গিক শোভামণ্ডিত সমুদ্রশহর গলে এ যাবতকালের সব থেকে কুৎসিত ব্যাটিং উপহার দিল অস্ট্রেলিয়া। বৃহস্পতিবার টেস্টের প্রথম দিন, প্রথমে ব্যাট করে ২৮১ রানে গুটিয়ে যায় শ্রীলঙ্কা।  নেপথ্যে অস্ট্রেলিয়ার মিচেল স্টার্কের পাঁচ উইকেট। শ্রীলঙ্কার হয়ে ৮৬ রান করেন আগের টেস্টের নায়ক কুশল মেন্ডিস। শুক্রবার, যখন দ্বিতীয় দিন শুরু হয় অস্ট্রেলিয়া তখন দুই উইকেটে ৫৪, প্রথম ইনিংসে শ্রীলঙ্কার রানের থেকে ২২৭ রানে পিছিয়ে। আসরে নেমে পড়েন শ্রীলঙ্কার দুই স্পিনার রঙ্গনা হেরাথ আর দিলরুওয়ান পেরেরা। পর পর তিন বলে ভোজেস, নেভিল আর স্টার্কের উইকেট নিয়ে হ্যাটট্রিক করেন হেরথ। টেস্ট কেরিয়ারে এটিই হেরথের প্রথম হ্যাটট্রিক। মাত্র ১০৬ রানে অল আউট হয়ে যায় অস্ট্রেলিয়া।

১৭৫ রানের লিড নিয়ে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে দ্রুত তিন উইকেট খুইয়ে চাপে পড়ে শ্রীলঙ্কা। মাত্র ৭ রান করে আউট হন মেন্ডিস। দিলরুওয়ান পেরেরা (৬৪), ম্যাথিউস (৪৭) আর ধনঞ্জয় ডি সিলভার (৩৪) ব্যাটে ভর করে দ্বিতীয় ইনিংসে ২৩৭ করে শ্রীলঙ্কা। ৪১৩ রানের টার্গেট তাড়া করতে নেমে আবার ভেঙে পড়েছে অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটিং। মাত্র ছয় ওভার ব্যাট করে ইতিমধ্যেই তিন উইকেট খুইয়েছে তারা। একটি উইকেট পেয়েছেন হেরাথ আর দু’টি পেয়েছেন পেরেরা। দিনের শেষে ক্রিজে স্মিথের সঙ্গে ব্যাট করছেন ডেভিড ওয়ার্নার।

হাতে এখনও তিন দিন সময়। তাই এই টেস্টও যে শ্রীলঙ্কা জিততে চলেছে তা এখনই বলে দেওয়া যায়।  

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here