Connect with us

বিনোদন

রবিবারের পড়া: শহর ছেড়ে তুমি কি চলে যেতে পারো তিন ভুবনের পারে

‘বর্ণালী’ ছবিতে নৌকায় শর্মিলার কণ্ঠে ‘যখন ভাঙল মিলন মেলা ভাঙল’ গানটি শুনে মনে হল গীতবিতান তোমার কাছে আত্মার শান্তি আর আবোলতাবোল তোমার প্রাণের স্পন্দন।

Published

on

'তিন ভুবনের পারে' ছবিতে তনুজার সঙ্গে।

পাপিয়া মিত্র

এই বাদামগাছের ছায়ায় / তোমায় আমি উপহার দেব একটি শোক / জেনো আজ এই চৈত্রদিনের সন্ধ্যার / তার থেকে আপন আর তোমার কেউ নেই। (এই বাদাম গাছের ছায়ায়)

তাঁর লেখা কবিতা দিয়েই আজকের লেখা শুরু। তাঁকে শ্রদ্ধা জানানো, খানিক গঙ্গাজলে গঙ্গাপুজোর মতো। চৈত্রের দিন নয়। হেমন্তের প্রান্তদিনের মধ‍্যগগনে মনের মধ‍্যে শেষ চৈত্রের ঝড় এল – চলে যায় মরি হায় বসন্তের দিন। সৌমিত্র মানে বসন্ত। সে বসন্ত যৌবনের, সে বসন্ত প্রৌঢ়ের, আবার সে বসন্ত বার্ধক্যেরও। এই তিন পর্যায়ের বসন্তের এক তৃপ্ত আকর্ষণ আছে, যার টানে প্রেক্ষাগৃহে দেখা গেছে নানা স্তরের দর্শকদের। তাঁকে বা তাঁর অভিনয়ক্ষমতা বিশ্লেষণ করার স্পর্ধা নেই। বরং নতমস্তকে আজ মনে করব সেই সব চিরসবুজ, চিরযৌবনের গানের কলি।  কখনও সৌমিত্র গেয়েছেন আবার কখনও তাঁর নায়িকারা। কখনও বা তিনি একাই।

Loading videos...
‘অরণ্যের দিনরাত্রি’ ছবিতে শর্মিলার সঙ্গে।

জনসমুদ্রের মাঝে আমাদের অপু, ক্ষিদদা, অমল, ফেলুদা তথা প্রদোষচন্দ্র মিত্র, গঙ্গাচরণ, সন্দীপ, অসীম, ময়ূরবাহন, অমিতাভ রায়, নরসিং, রতন, অরুণাভ মুখার্জি, শ‍্যাম, উদয়ন পণ্ডিত। সুধীন দাশগুপ্তের কথা, পুলক বন্দ‍্যোপাধ‍্যায়ের সুর, মান্না দের কণ্ঠ আর লেজেন্ডের লিপ – এই শহর থেকে আরও অনেক দূরে / চলো কোথাও চলে যাই। গঙ্গায় নৌকায়, দূরে বিবেকানন্দ সেতু। সঙ্গে ‘প্রথম কদমফুল’ ছবির নায়িকা তনুজা।

রবিবারে অলস দুপুরে তখন রাজপথে রাজার মতো অনন্তশয‍্যায় চলেছেন কিং লিয়র। এই শহর ছেড়ে যাওয়ার কথা সৌমিত্র কখনও ভাবেননি বা বলেননি। কৃষ্ণনগর জন্মস্থান আর কৈশোর যৌবন প্রৌঢ়কালের জীবনযুদ্ধের খেলাঘর তাঁর সৃষ্টির শহর এই কলকাতা। এই শহর দেখেছে তাঁর প্রথম সব কিছু। এই শহর দেখেছে ‘জীবনে কী পাবো না’র মতো যৌবনের উদ্দাম টুইস্ট। না বলা বাণী দিয়ে অনেক সময় চিরনবীন বসন্ত বুঝিয়ে দিয়েছেন প্রেমিক হতে হয় কেমন করে।

‘বসন্ত বিলাপ’ ছবিতে অপর্ণার সঙ্গে।

সংস্কৃতি জগতের কিংবদন্তি শেষ স্তম্ভকে বিদায় জানাতে যে জনদেবতার শোকমিছিল পায়ে পায়ে এগিয়েছে সেখানে ততই জীবন্ত হয়ে উঠছিল আমাদের ‘গণদেবতা’। মন বলে ওঠে চাই, তোমায় ফিরে পেতে চাই। তুমি যে চলেছ অনন্তধামের দিকে… ভুল ভেঙে যায়। সুইমিংপুলের ধার ঘেঁষে গলার শিরা ফুলিয়ে ক্ষিদদার ‘ফাইট কোনি ফাইট’ চিৎকার কানে আসছে। চোয়াল তোমার দৃঢ়, তুমি বলছ, ঘুঘু দেখেছ ফাঁদ দেখনি মগনলাল। অশনি সংকেতের হনহনিয়ে হেঁটে চলা পণ্ডিতমশাইয়ের ছাত্র পড়ানোর আওয়াজ কানে আসছে।

১৫ নভেম্বর দুপুর ১২.১৫ মিনিটে কিছু ক্ষণের জন্য সব থেমে গেলেও এই কয়দিনের সকালের পুবালি হাওয়া জানান দেয় আসলে তুমি এই শহরের জনস্রোতের মধ্যে মিশে আছ। শহর ছেড়ে তুমি কি চলে যেতে পারো তিন ভুবনের পারে? যেখানে প্রেমের জন্য দুরন্ত বন‍্য হওয়ার অমন নিবেদন করার কেউ থাকবে না? আশুতোষ মুখোপাধ‍্যায় পরিচালিত তনুজা অভিনীত বখাটে ছেলেটি আজ ৮৬র ঘরে। তোমার অসংখ্য নন্দিনীরা ঘর থেকে রাজপথে। হেমন্তের ছায়ানামা ছাদ থেকে বারান্দায়। তোমার নায়িকারা টিভির সামনে খুঁজে বেড়াচ্ছেন ‘দূরে দূরে কাছে কাছে এখানে ওখানে’ কত দূরের সেই মানুষটিকে।

ভিড়ে, ফুলে মানবসমুদ্রের মধ্যে দিয়ে তোমার শকট চলেছে হাসপাতালের দুয়ার থেকে অমৃতলোকের সিংহদুয়ারের দিকে। সে যাক। সেটা তোমার শুধুমাত্র শরীরটা। ‘মন্ত্রমুগ্ধ’র মতো মানুষ তোমার কত স্মৃতি মনে করে চলেছে। তোমার ধুতির কোঁচা মাটিতে লুটিয়ে পড়ছে। বগলে চোলাইয়ের বোতল নিয়ে তুমি গাইছ ‘একটু চোলাই খাব আর ধোলাই খাব না?’ তোমার নায়িকা সাবিত্রীকে প্রশ্ন ছুড়ে দিচ্ছ ‘মাতাল হব আর পাতালে যাব না?’ কী একস্প্রেশন দিয়েছ তুমি!

চারুলতা’ ছবিতে মাধবীর সঙ্গে।

এখন আর দুঃখ নয়। তোমার রেখে যাওয়া সম্পদ দিয়ে তোমার জন্মদিনের মালা গাঁথা শুরু। সোনালি রোদকে সঙ্গী করে সাইকেলের চাকা এগিয়ে চলেছে এক নতুন পৃথিবীর দিকে। ‘ও আকাশ সোনা সোনা, এ মাটি সবুজ সবুজ’ নায়ক সৌমিত্রের আটপৌরে পোশাকে নতুন রঙ ধরিয়ে দিল সোনার পৃথিবীতে। মাধবী-সৌমিত্রের দুরন্ত অভিনয় উপহার দিল ‘অজানা শপথ’। নায়িকা তন্দ্রা বর্মনের সঙ্গে সৌমিত্র ‘অতল জলের আহ্বান’-এ গাইলেন ‘একি চঞ্চলতা জাগে আমার মনে’। ‘কে যেন গো ডেকেছে আমায়’- আরও এক নায়িকা সন্ধ্যা রায়কে শেখাচ্ছেন গান। ‘মরমিয়া কেন গো…ফাগুন আগুন লাগে মন কোনও কাজে লাগে না, কি করিতে কী যে হয়ে যায়’।

আজ মন বড়ো চঞ্চল। কেন না তুমি নাকি নেই। এই তো মানবমন। যেখানের পৃথিবীর সীমারেখা শুধুই খিড়কি থেকে সিংহদুয়ার পর্যন্ত। সেই-ই তো নায়ক, সেই ‘অগ্রদানী’র ঠাকুরমশাই হয়ে আনন্দে গান ধরেছ নদী পার করে বটের ঝুরি ধরে – ‘শোনো গাঁয়ের মাঠঘাট/ শোনো বৃক্ষলতা / গ্রামবাসী প্রতিজনে / শোনো সুখের কথা / আমার বংশে দিতে বাতি / আমার ঘরে আসছে এবার আমার বাপের নাতি / এত দিনে ঘুচল বুঝি পাপ / আমার বৌ হবে মা আমি হব বাপ।’ কী অভিব‍্যক্তি! যখন তুমি বাবা হওয়ার খবর শুনলে।

‘সাত পাকে বাঁধা’ ছবিতে সুচিত্রার সঙ্গে।

তুমি ‘সুদূর নীহারিকা’ হয়ে থেকে যেও না। সুমিত্রা মুখোপাধ‍্যায় নাচছে ‘আজ এই রাত জলসার রাত’ গানের সঙ্গে। ওই একই চলচ্চিত্রে সোমা দের সঙ্গে গাইলে ‘জীবন মরণের সাথী’। মানবেন্দ্রের কণ্ঠে ঠোঁট মেলালে ‘কার মঞ্জীর ঝঙ্কার’ গানে। আবার ‘শেষ পৃষ্ঠায় দেখুন’-এ নায়ক যদি গায় ‘এ কী এমন কথা তাকে বলা গেল না’ পাশাপাশি নায়িকা অপর্ণা গেয়ে ওঠেন ‘নেই সত‍্যি বলে কিছু নেই’।  তা হলে তো বলতেই হয় তুমি কোথাও যেতে পার না। তুমি উদয়ন পণ্ডিত হয়ে থেকে গেছ পাঠশালার শিশুদের মধ‍্যে।

‘বেনারসী’ ছবিতে বেলডাঙার বেনারসী বাইজিকে (রুমা গুহঠাকুরতা) পানের দোকানে চিনে ফেলে রতন (সৌমিত্র)। কিশোরী সোনা গঙ্গাস্নানে হারিয়ে গিয়ে পরবর্তীতে বেনারসী বাইজি হয়। টান টান আভিজাত‍্যের মোড়কে গল্প এগিয়ে গিয়েছে। আবার মিনু কাফে চায়ের দোকানের মালিক সঞ্জুদা হয়ে তুমি ‘নতুন দিনের আলো’য় বন্ধুদের মাঝে গান ধরলে ‘চলেছে, চলছে চলবেই / যা কৈলাশে জমে আছে বরফের স্তূপ হয়ে / সে তো বন‍্যার স্রোত হতে গলবেই’।

নানা রঙের চরিত্রের পাশে কতই না নায়িকা অভিনয় করেছেন। শর্মিলা ঠাকুর, তনুজা, অরুন্ধতী দেবী, মাধবী মুখোপাধ‍্যায়, সুচিত্রা সেন, সুপ্রিয়া চৌধুরী, সাবিত্রী চট্টোপাধ‍্যায়, তন্দ্রা বর্মন, অপর্ণা সেন, আরতি ভট্টাচার্য, সুমিত্রা মুখোপাধ‍্যায়, সন্ধ্যা রায়, লিলি চক্রবর্তী, সুমিতা সান‍্যাল, অঞ্জনা ভৌমিক, মৌসুমী চট্টোপাধ‍্যায়, রুমা গুহঠাকুরতা, মমতাশঙ্কর, নন্দিনী মালিয়া-সহ বহু নায়িকা। প্রবীণদের পাশাপাশি অনেক নবীন অভিনেতার সঙ্গে অভিনয় করে ছবিকে এক নতুন মাত্রা দিয়েছ।

‘ঘরে বাইরে’ ছবিতে স্বাতীলেখার সঙ্গে।

এমন মজাদার গানের আগে পরে আমরা পাই ‘ঘরে বাইরে’র সন্দীপকে, ‘বিধির বাঁধন কাটবে তুমি এমন শক্তিমান’ গানটিতে। ‘বর্ণালী’ ছবিতে নৌকায় শর্মিলার কণ্ঠে ‘যখন ভাঙল মিলন মেলা ভাঙল’ গানটি শুনে মনে হল গীতবিতান তোমার কাছে আত্মার শান্তি আর আবোলতাবোল তোমার প্রাণের স্পন্দন।

এ বার সব বাধা দূরে সরিয়ে একবার বলে ওঠ তো ‘মুশকিল আসান, আমি এসে গেছি’।

খবরঅনলাইনে আরও পড়ুন

সৌমিত্র, কবে যে চলে এলে গৃহস্থের রান্নাঘর থেকে বৈঠকখানা হয়ে শীতের ছাদে আলোচনায়

বিনোদন

বাজেটের আগে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ মাল্টিপ্লেক্স কর্তৃপক্ষের, সঙ্গে সানি দেওল

কোভিড-১৯ মহামারিতে বিধ্বস্ত চলচ্চিত্র-সহ বিনোদন জগতের কাছে এ বারের কেন্দ্রীয় বাজেট বেশ গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠতে চলেছে।

Published

on

নির্মলা সীতারমন এবং সানি দেওল। ফাইল ছবি

খবর অনলাইন ডেস্ক: কেন্দ্রীয় অর্থ ও কর্পোরেট বিষয়ক মন্ত্রী নির্মলা সীতারমনের (Nirmala Sitharaman) সঙ্গে শুক্রবার সাক্ষাৎ করলেন দেশের শীর্ষ মাল্টিপ্লেক্স চেনের প্রতিনিধিরা।

কোভিড-১৯ মহামারি কঠিন চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি দাঁড় করিয়ে দিয়েছে বিনোদন ব্যবসাকে। সারা দেশ জুড়ে কয়েক হাজার প্রেক্ষাগৃহ স্থায়ী ভাবে বন্ধ হয়ে গিয়েছিল বেশ কয়েক মাসের জন্যে। এখন ধীরে ধীরে সেগুলি খুলতে শুরু করলেও করোনা ধাক্কা কাটিয়ে উঠতে লড়াই চলছে। এরই মধ্যে কেপিএমজির একটি সাম্প্রতিক রিপোর্টে বলা হয়েছে, ভারতে ফিল্ম ব্যবসা আগের বছরের তুলনায় ২০২১ অর্থবর্ষে ৬৭ শতাংশ সংকুচিত হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

প্রতিনিধি দলে সানি দেওল

পিভিআর লিমিটেডের ( PVR Ltd) জয়েন্ট ম্যানেজিং ডিরেক্টর সঞ্জীবকুমার বিজলির নেতৃত্বে এবং পিভিআর পিকচার্সের চিফ এগজিকিউটিভ কমল জ্ঞানচন্দনি-সহ অভিনেতা ও বিজেপির সাংসদ সানি দেওল (Sunny Deol) এ দিন সাক্ষাৎ করেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে। এমন পরিস্থিতিতে সংশ্লিষ্ট ক্ষেত্রের সহযোগিতায় কী করা প্রয়োজন, সে সব নিয়েই বিস্তারিত মত তুলে ধরেন প্রতিনিধিরা।

Loading videos...

কর্তৃপক্ষের প্রস্তাব

সীতারমনের সঙ্গে সাক্ষাতের পাশাপাশি প্রতিনিধি দল দেখা করে কেন্দ্রীয় তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী প্রকাশ জাভাড়েকরের সঙ্গেও। মাল্টিপ্লেক্স কর্তৃপক্ষের তরফে এক আধিকারিক বলেন, “আমাদের প্রথম অনুরোধটি ছিল, দর্শকদের জন্য ৫০ শতাংশ আসনের সীমাবদ্ধতা শিথিল করা। তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী বলেছেন, তিনি এই অনুরোধ বিবেচনা করবেন। তবে এখনই কথা দিতে পারছেন না”।

উল্লেখ্য, আগামী ২৯ জানুয়ারি থেকে শুরু হচ্ছে সংসদের বাজেট অধিবেশন। ১ ফেব্রুয়ারি সকাল ১১টায় বাজেট পেশ করবেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী। কোভিড-১৯ মহামারিতে বিধ্বস্ত চলচ্চিত্র-সহ বিনোদন জগতের কাছে এ বারের কেন্দ্রীয় বাজেট বেশ গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠতে চলেছে।

প্রেক্ষাগৃহের মালিকদের স্বস্তি দিতে বেশ কিছু ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়া হতে পারে বলে ধারণা করছে সংশ্লিষ্ট মহল। এমনিতে টিকিটের দামের উপর এসজিএসটি (SGST) মকুব, পুরনো প্রেক্ষাগৃহগুলি রক্ষায় জমির উপর ভরতুকি ছাড়াও একাধিক সরকারি প্রকল্প নিয়েও দাবি উঠেছে।

ফুড ডেলিভারিতে জিএসটি

ইতিমধ্যেই খাদ্য সরবরাহের ক্ষেত্রে পণ্য ও পরিষেবা কর (GST) হ্রাসের দাবি তুলেছে রেস্তোঁরা ও ফুড ডেলিভারি (food delivery) সংস্থাগুলি। বর্তমানে এই করের হার ১৮ শতাংশ। তারা দাবি করেছে, এখন ৩০০ কোটি টাকার জোগান দিতে সেই করের হার পাঁচ শতাংশে নামিয়ে আনতে হবে।

লকডাউনের পর পুনরায় ব্যবসা চালু হওয়ার পরেও সব কিছু এখনও স্বাভাবিক হয়নি। বিস্তারিত পড়ুন এখানে ক্লিক করে: বাজেট ২০২১: ফুড ডেলিভারিতে জিএসটি কমানোর দাবি

Continue Reading

বিনোদন

মির্জাপুর: কেন্দ্র, অ্যামাজন প্রাইম ভিডিওকে নোটিশ জারি সুপ্রিম কোর্টের

মির্জাপুরের বাসিন্দাদের অনেকেই মনে করেন, শহরের বাইরের লোকেরা ওয়েবসিরিজটা দেখার পরে তাঁদের সন্দেহের চোখে দেখছেন।

Published

on

খবর অনলাইন ডেস্ক: ওয়েব সিরিজ ‘মির্জাপুর’ নিয়ে এ বার কড়া পদক্ষেপ নিল সুপ্রিম কোর্ট। আইন বিষয়ক নিউজ পোর্টাল ‘লাইভ ল’ জানিয়েছে, ‘মির্জাপুর’ নিষিদ্ধ করার দাবিতে একটি আবেদনের ভিত্তিতে কেন্দ্রীয় সরকার, অ্যামাজন প্রাইম ভিডিও এবং নির্মাতা সংস্থা এক্সেল এন্টারটেনমেন্টকে নোটিশ পাঠিয়েছে শীর্ষ আদালত।

ভারতের প্রধান বিচারপতি এসএ বোবদের নেতৃত্বে একটি বেঞ্চ মির্জাপুরের বাসিন্দা সুজিতকুমার সিংহের দায়ের করা আবেদনের শুনানি করে। প্রধান বিচারপতি বলেন, এই আবেদনের উদ্দেশ্য উত্তরপ্রদেশে অবস্থিত জেলার ঐতিহাসিক ও সাংস্কৃতিক মূল্য রক্ষা করা। ওয়েব সিরিজটিতে এর হিংসাত্মক রূপকে চিত্রিত করা হয়েছে।

গত বছরের অক্টোবর মাসে মির্জাপুর-এর দ্বিতীয় পর্বটি প্রকাশিত হয়। যেখানে ভারতের ছোটো একটি শহরের দুই পরিবারের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনাকে তুলে ধরা হয়েছে। ছবির ছত্রে ছত্রে বেআইনি কাজকর্ম, গোষ্ঠী সংঘর্ষ এবং অপরাধকে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে।

Loading videos...

এর প্রধান চরিত্রগুলিতে অভিনয় করেছেন পঙ্কজ ত্রিপাঠি, আলি ফজল, দিব্যেন্দু, বিক্রান্ত মাসে, রসিকা দুগ্গল, এবং কুলভূষণ খারবান্দা প্রমুখ। এটি প্রযোজনা করেছেন ফারহান আখতার এবং রীতেশ সিদ্ধওয়ানির এক্সেল এন্টাটেনমেন্ট।

মির্জাপুরের প্রতিটি বাসিন্দাকে “দেশের সামনে গুন্ডা, ভবঘুরে এবং ব্যভিচারী” হিসাবে দেখানো হয়েছে অভিযোগ করে আবেদনে বলা হয়েছে, ওয়েব সিরিজটি “শহর / জেলার ঐতিহাসিক এবং সাংস্কৃতিক চিত্রকে পুরোপুরি কলঙ্কিত করেছে”।

লাইভ ল-এর প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আবেদনকারীর অভিযোগ, নগ্নতা, অশ্লীলতা এবং অবমাননাকর ভাষা ব্যবহার ছাড়াও মির্জাপুরের বাসিন্দাদের অপমানের অভিযোগে মামলা করা হয়েছে। অনেকেই মনে করেন যে শহরের বাইরের লোকেরা ওয়েবসিরিজটা দেখার পরে তাঁদের সন্দেহের চোখে দেখছেন।

এ বিষয়ে অবশ্য অ্যামাজন প্রাইম এবং এক্সেল এন্টারটেনমেন্টের তরফে কোনো মন্তব্য করা হয়নি।

আরও পড়তে পারেন: এল ‘মির্জাপুর ২’-এর ট্রেলার! কালীন ভাইয়া, গুড্ডু আর মুন্নার ক্ষমতা দখলের লড়াইয়ের ঝলক দেখুন এখানে

Continue Reading

বিনোদন

সুশান্ত সিং রাজপুতের জন্মদিনে ২৫ লক্ষ টাকার স্কলারশিপ ঘোষণা করলেন দিদি শ্বেতা

ইউসি বার্কলে বিশ্ববিদ্যালয়ে ৩৫ হাজার মার্কিন ডলার বা প্রায় ২৫.৫ লক্ষ টাকার একটি স্কলারশিপ তহবিল…

Published

on

সুশান্ত সিং রাজপুত। ফাইল ছবি

খবর অনলাইন ডেস্ক: প্রয়াত বলিউড অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের (Sushant Singh Rajput) ৩৫তম জন্মদিনকে স্মরণীয় করে রাখলেন তাঁর দিদি শ্বেতা সিং কীর্তি।

গত ২০২০ সালের ১৪ জুন মুম্বইয়ের বান্দ্রায় নিজের ফ্ল্যাট থেকে ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয় সুশান্তের। মৃত্যুর পর বৃহস্পতিবারই তাঁর প্রথম জন্মবার্ষিকী। এ দিন শ্বেতা সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘোষণা করেন, ইউসি বার্কলে বিশ্ববিদ্যালয়ে ৩৫ হাজার মার্কিন ডলার বা প্রায় ২৫.৫ লক্ষ টাকার একটি স্কলারশিপ তহবিল গঠিত হয়েছে।

শ্বেতা নিজের ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে লেখেন, সুশান্তের একটি স্বপ্ন পূরণের লক্ষ্যই এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। তিনি লিখেছেন, “ইউসি বার্কলে-তে ৩৫ হাজার মার্কিন ডলারের সুশান্ত সিং রাজপুত স্মৃতি তহবিল গঠন করা হয়েছে। ইউসি বার্কলে অ্যাস্ট্রোফিজিক্স অনুসরণ করতে আগ্রহী যে কেউ এই তহবিলের জন্য আবেদন করতে পারেন। যাঁরা এটা সম্ভব করেছেন, তাঁদের প্রতি আমি কৃতজ্ঞ”।

Loading videos...

সুশান্তের একটি পুরোনো ইনস্টাগ্রামের স্ক্রিনশট শেয়ার করেছেন শ্বেতা। ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য সুশান্ত কী ধরনের শিক্ষাব্যবস্থার স্বপ্ন দেখতেন, সে সবই লেখা রয়েছে সেখানে। লেখা রয়েছে, “আমার স্বপ্ন হল ভারতের এবং অনন্যা জায়গার পড়ুয়াদের জন্য এমন একটা পরিবেশ তৈরি করা, যেখানে নি:খরচায় প্রয়োজনীয় শিক্ষা পাওয়া যাবে। যে শিক্ষা তাঁদের বিভিন্ন ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় স্কিল তৈরিতে সাহায্য করবে, সেটা তাঁদের নিজেদের পছন্দমতোই”।

নোটটিতে এমনও লেখা রয়েছে, “আমি মনে করি আমার জীবনের তিরিশটা বছর কেটে গেছে। কিছু হওয়ার চেষ্টা করেই এই প্রথম ৩০ বছর কেটে গেছে। আমি টেনিস, স্কুল এবং গ্রেডে ভালো হতে চেয়েছি। সব কিছু আমি সেই দৃষ্টিকোণ থেকেই দেখেছি। আমি যে ভাবে আছি, তা সব নয়, তবে যদি ভালো কিছু পেয়ে যাই!”

সুশান্ত সিং রাজপুত সম্পর্কিত আরও প্রতিবেদন পড়তে পারেন: সুশান্ত সিং রাজপুত

Continue Reading
Advertisement
Advertisement
রাজ্য6 mins ago

রাজ্যে দৈনিক সংক্রমণের হার নেমে এল ১.১৬ শতাংশে

দেশ1 hour ago

১০ দিনে করোনা টিকা নিলেন ২০ লক্ষের বেশি স্বাস্থ্যকর্মী! কোন রাজ্যে কত

দেশ2 hours ago

কৃষক বিক্ষোভে উত্তাল দিল্লি, পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে বৈঠকে অমিত শাহ

প্রযুক্তি4 hours ago

টিকটক-সহ ৫৯টি চিনা অ্যাপ চিরতরে বন্ধ করে দিল কেন্দ্র

marchpast of black cat commando
দেশ4 hours ago

দিল্লিতে সাধারণতন্ত্র দিবসে নজিরবিহীন প্যারেড, প্রদর্শনীতে এই প্রথম রাফাল, নজর কাড়ল পশ্চিমবঙ্গের ‘সবুজসাথী’

কলকাতা4 hours ago

উত্তর কলকাতার অলিতেগলিতে লুকিয়ে রয়েছে ইতিহাস, সাধারণতন্ত্র দিবসে হেঁটে দেখা

সাংবাদিক বৈঠকে প্রবীর ঘোষাল
রাজ্য5 hours ago

দলের সমস্ত পদ ছেড়ে বিস্ফোরক তৃণমূল বিধায়ক প্রবীর ঘোষাল

দেশ5 hours ago

মরণোত্তর পদ্মবিভূষণ এসপি বালসুব্রহ্মণ্যমকে, ভাস্কর সুদর্শন সাহুকেও পদ্মবিভূষণ, সংগীতশিল্পী চিত্রাকে পদ্মভূষণ

শরীরস্বাস্থ্য3 days ago

থাইরয়েড ধরা পড়েছে? এই খাবারগুলি সম্পর্কে সচেতন হন

রাজ্য2 days ago

তৃণমূলে যোগ দিলেন অভিনেত্রী কৌশানী মুখোপাধ্যায়, প্রিয়া সেনগুপ্ত

ফুটবল1 day ago

বিমান দুর্ঘটনায় মৃত্যু ব্রাজিলের ফুটবল ক্লাবের প্রেসিডেন্ট ও চার ফুটবলারের

রাজ্য2 days ago

উন্নয়ন দেখাতে ‘ছানিশ্রী’ প্রকল্প করবে সরকার, বিজেপিকে কটাক্ষ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের

ladakh standoff
দেশ2 days ago

সীমান্ত বিতর্কে নবম দফার বৈঠকে ভারত, চিন

election
রাজ্য2 days ago

রাজ্যে আসতে পারে এক লক্ষ আধা সেনা

রাজ্য2 days ago

বুকে ব্যথা নিয়ে হাসপাতালে রাজ্যের সমবায়মন্ত্রী অরূপ রায়

দেশ3 days ago

কৃষকদের ট্র্যাক্টর মিছিলের অনুমতি দিয়েছে দিল্লি পুলিশ, দাবি প্রতিবাদী সংগঠনগুলির

কেনাকাটা

কেনাকাটা3 days ago

বাসন্তী রঙের পোশাক খুঁজছেন?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই আসছে সরস্বতী পুজো। সেই দিন হলুদ বা বাসন্তী রঙের পোশাক পরার একটা চল রয়েছে অনেকের মধ্যেই। ওই...

কেনাকাটা3 days ago

ঘরদোরের মেকওভার করতে চান? এগুলি খুবই উপযুক্ত

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ঘরদোর সব একঘেয়ে লাগছে? মেকওভার করুন সাধ্যের মধ্যে। নাগালের মধ্যে থাকা কয়েকটি আইটেম রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার...

কেনাকাটা4 days ago

সিলিকন প্রোডাক্ট রোজের ব্যবহারের জন্য খুবই সুবিধেজনক

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যপ্রয়োজনীয় বিভিন্ন সামগ্রী এখন সিলিকনের। এগুলির ব্যবহার যেমন সুবিধের তেমনই পরিষ্কার করাও সহজ। তেমনই কয়েকটি কাজের সামগ্রীর খোঁজ...

কেনাকাটা5 days ago

আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আজ রইল আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার সময় যে দাম ছিল...

কেনাকাটা5 days ago

রান্নাঘরের এই সামগ্রীগুলি কি আপনার সংগ্রহে আছে?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরে বাসনপত্রের এমন অনেক সুবিধেজনক কালেকশন আছে যেগুলি থাকলে কাজ অনেক সহজ হয়ে যেতে পারে। এমনকি দেখতেও সুন্দর।...

কেনাকাটা6 days ago

৫০% পর্যন্ত ছাড় রয়েছে এই প্যান্ট্রি আইটেমগুলিতে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দৈনন্দিন জীবনের নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসগুলির মধ্যে বেশ কিছু এখন পাওয়া যাচ্ছে প্রায় ৫০% বা তার বেশি ছাড়ে। তার মধ্যে...

কেনাকাটা1 week ago

ঘরের জন্য কয়েকটি খুবই প্রয়োজনীয় সামগ্রী

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যদিনের প্রয়োজনীয় ও সুবিধাজনক বেশ কয়েকটি সামগ্রীর খোঁজ রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদনটি লেখার সময় যে দাম ছিল তা-ই...

কেনাকাটা2 weeks ago

৯৯ টাকার মধ্যে ব্র্যান্ডেড মেকআপের সামগ্রী

খবর অনলাইন ডেস্ক : ব্র্যান্ডেড সামগ্রী যদি নাগালের মধ্যে এসে যায় তা হলে তো কোনো কথাই নেই। তেমনই বেশ কিছু...

কেনাকাটা3 weeks ago

কয়েকটি ফোল্ডিং আইটেম খুবই কাজের

খবরঅনলাইন ডেস্ক: এমন অনেক কিছুই থাকে যেগুলি সঙ্গে থাকলে অনেক সুবিধে হত বলে মনে হয়, কিন্তু সব সময় তা পাওয়া...

কেনাকাটা3 weeks ago

রান্নাঘরের কাজ এগুলি সহজ করে দেবেই

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরের কাজ অনেক বেশি সহজ করে দিতে পারে যে সমস্ত জিনিস, তারই কয়েকটির খোঁজ রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন...

নজরে