মোবাইল নেটের স্পিডে শ্রীলঙ্কা, নেপাল এবং পাকিস্তানের থেকে পিছিয়ে পড়ল ভারত

0
net speed
প্রতীকী ছবি

ওয়েবডেস্ক: ব্রডব্যান্ড স্পিডের বিশ্লেষক সংস্থা ওকলার একটি রিপোর্টে বলা হয়েছে, ২০১৯ সালের সেপ্টেম্বরে মোবাইল ইন্টারনেটের গতিতে ভারত প্রতিবেশী দেশ শ্রীলঙ্কা, পাকিস্তান এবং নেপালের থেকে নীচে অবস্থান করছে। গত সেপ্টেম্বরের পরিসংখ্যানে ১২৮তম স্থানে রয়েছে ভারত।

তবে এর আগে মাসে প্রকাশিত রিপোর্টে ভারত দক্ষিণ এশিয়ার প্রতিবেশী দেশগুলির থেকে যথেষ্ট এগিয়ে ছিল ভারত। সে বার ব্রডব্যান্ড গতিতে ৭২তম স্থানে ছিল এ দেশ।

ওক্লার গতি নির্ণয়ের সূচক বলছে, বিশ্বে প্রতি সেকেন্ডে ডাউনলোড করার গড় স্পিড ২৯.৫ মেগাবাইট এবং আপলোডের স্পিড ১১.৩৪ এমবিপিএস। দক্ষিণ কোরিয়া ৯৫.১১ এমবিপিএস ডাউনলোড গতি এবং মোবাইল নেটওয়ার্কে আপলোডের ক্ষেত্রে ১৭.৫৫ এমবিপিএসের গতি নিয়ে তালিকার শীর্ষস্থানে রয়েছে। যেখানে ভারতে ডাউনলোডের গতি ১১.১৮ এমবিপিএস এবং আপলোডের গতি ৪.৩৮ এমবিপিএস বলে উল্লেখ করা হয়েছে ওই রিপোর্টে।

ভারতের ক্ষেত্রে রিপোর্টে বলা হয়েছে, “এয়ারটেল ভারতের বৃহত্তম ১১টি শহরে দ্রুততম মোবাইল নেট পরিষেবা দিয়েছে। ২০১৯ সালের দ্বিতীয় এবং তৃতীয় ত্রৈমাসিকে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে জিও। এয়ারটেলের সর্বোচ্চ গতির স্কোর নাগপুরে মাপা হয়েছিল। এ ছাড়া দু’টি শহরে ভোডাফোন এবং একটিতে আইডিয়া দ্রুততম মোবাইল পরিষেবা দিয়েছিল”।

ওই রিপোর্টে বলা হয়েছে, শ্রীলঙ্কা রয়েছে ৮১তম স্থানে, যা দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলির মধ্যে সর্বোচ্চ। সেখানে প্রতি সেকেন্ডে ডাউনলোড করার গড় স্পিড ২২.৫৩ মেগাবাইট এবং আপলোডের স্পিড ১০.৫০ এমবিপিএস।

[ আরও পড়ুন: কী এই আরসিইপি বাণিজ্য চুক্তি, যেখান থেকে বেরিয়ে এলেন প্রধানমন্ত্রী মোদী? ]

অন্য দিকে পাকিস্তান রয়েছে ১১২তম স্থানে। সেখানে প্রতি সেকেন্ডে ডাউনলোড করার গড় স্পিড ১৪.৩৮ মেগাবাইট এবং আপলোডের স্পিড ১০.৩২ এমবিপিএস। নিয়েছে। এর পরেই ১১৯তম স্থানে রয়েছে নেপাল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here