Connect with us

ভ্রমণের খবর

বাসে দিল্লি থেকে লন্ডন যাবেন নাকি? জানুন বিস্তারিত

৭০ দিনে লন্ডন পৌঁছানোর জন্য (Delhi to London Bus) বাসটি ১৮টি দেশের মধ্যে দিয়ে যাবে।

Published

on

Bus delhi-to-laondon

খবর অনলাইন ডেস্ক : বাসে দিল্লি থেকে লন্ডন (Delhi to London Bus) ! কথাটা শুনে একটু অবাক লাগছে। গুরগাঁও-এর একটি বেসরকারি পর্যটন কোম্পানি ১৫ আগস্ট একটি বাস পরিষেবা চালু করেছে। এই বাসে চড়ে ৭০ দিনে লন্ডন পৌছানো যাবে।

কী ভাবে লন্ডন পৌঁছবে বাসটি?

৭০ দিনে লন্ডন পৌঁছানোর জন্য বাসটি ১৮টি দেশের মধ্যে দিয়ে যাবে। এই দেশগুলি হল, মায়ানমার, থাইল্যান্ড, লাওস, চিন, কিরঘিজস্তান, উজবেকিস্তান, কাজাখস্তান, রাশিয়া, লাটভিয়া, লিথুয়ানিয়া, পোল্যান্ড, চেক প্রজাতন্ত্র, জার্মানি, নেদারল্যান্ড, বেলজিয়াম, ফ্রান্স ও ইংল্যান্ড।

Loading videos...

পরিকল্পনার গোড়ার কথা

দিল্লির বাসিন্দা তুষার ও সঞ্জয় মদান তিনবার সড়ক পথে লন্ডন গিয়েছেন। ২০১৭, ১৮ ও ১৯ সালে। সেই সময় থেকে তাদের এই পরিকল্পনা মাথায় আসে।

২০ জন সাওয়ারি নিয়ে তাঁরা বাস যাত্রা সম্পূর্ণ করা পরিকল্পনা করেছেন।

২০ যাত্রী ছাড়াও আরও চারজন থাকবেন। তারা হলেন, একজন চালক, সহকারী চালক, আয়োজকদের পক্ষে এক ব্যক্তি এবং একজন গাউড। ১৮টি দেশ সফরের সময় একজন করে গাইড বদলে যাবে।

কতগুলি ভিসা এবং কতো খরচ?

এই যাত্রার জন্য মোট ১০টি ভিসা লাগবে। পর্যটন সংস্থাটি নিজেরাই এই ভিসার ব্যবস্থা করে দেবে। এই সফরের জন্য খরচ পড়বে ১৫ লক্ষ টাকা, সঙ্গে ইএমআই-এরও ব্যবস্থা থাকছে।

এই বাস যাত্রায় বিভিন্ন বিভাগ রয়েছে

কেউ টানা লন্ডন নাও যেতে পারেন। চাইলে পথের কোনো দেশে যাত্রা শেষ করে দিতে পারেন। এ জন্য এই যাত্রায় চারটি বিভাগ বা ক্যাটাগরি রাখা হয়েছে। প্রত্যেক ক্যাটাগরির খরচ আলাদা।

কবে থেকে শুরু হবে যাত্রা?

উদ্যোক্তা অ্যাডভেঞ্চার ওভারল্যান্ড ট্রাভেলার কোম্পানির প্রতিষ্ঠাতা তুষার অগ্রবাল জানিয়েছেন, ‘‘১৫ আগস্ট আমরা ট্রিপ লঞ্চ করেছি। ২০১২-এর মে মাস থেকে আমাদের যাত্রা শুরু হবে। ’’

যদিও করোনা পরিস্থিতিতে এখনও রেজিস্ট্রেশন শুরু হয়নি। ভারতের পাশাপাশি অন্যান্য দেশের পরিস্থিতি দেখে তবেই যাত্রা শুরু হবে বলে তিনি জানিয়েছেন।

পড়তে পারেন :

পুজোর আগে পাহাড়ে পর্যটন চালু করতে চাইছে জিটিএ

ভ্রমণ সংক্রান্ত খবর এবং অন্যান্য প্রয়োজনীয় তথ্য পেতে পড়ুন ভ্রমণ অনলাইন

Advertisement
Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

ভ্রমণের খবর

ব্যাপক ক্ষতির মুখে পর্যটন, রাঢ়বঙ্গে ভোট পেছোনোর আর্জি নিয়ে কমিশনের দ্বারস্থ পর্যটন ব্যবসায়ীদের সংগঠন

সংগঠনের দাবি, ভোটের কারণে পর্যটকদের বুকিং বাতিলের ফলে কম করে ৫০ কোটি টাকা ক্ষতির সম্মুখিন তাঁরা।

Published

on

খবরঅনলাইন ডেস্ক: করোনার করাল গ্রাসে পড়ে পর্যটন ব্যাবসা পুরোপুরি ভেঙে পড়েছিল। গত কয়েক মাস হল সেই ধাক্কা কাটিয়ে উঠে ক্রমশ সুদিন দেখতে শুরু করেছে রাজ্যের পর্যটন। কিন্তু এরই মধ্যে ফের বাজ পড়ল। রাজ্যের প্রথম দফার নির্বাচন পড়েছে ২৭ মার্চ, অর্থাৎ দোলের আগের দিন।

দোলে যে যে জায়গায় ভিড় সব থেকে বেশি হয়, সেখানেই নির্বাচন। অর্থাৎ, পুরুলিয়া, ঝাড়গ্রাম, বাঁকুড়ার একাংশ। পাশাপাশি দিঘা, মন্দারমণি, তাজপুরের মতো জায়গাতেই ভোট পড়েছে ওই দিনই।

Loading videos...

রাজ্যের পর্যটন ব্যবসায়ীদের দাবি ইতিমধ্যেই হোটেল বুকিং বাতিল হতে শুরু করেছে। স্থানীয় পুলিশের তরফে নির্দেশ এসে গিয়েছে গাড়ি অধিগ্রহণ করার, সব নির্বাচনের ক্ষেত্রেই যা খুবই পরিচিত চিত্র। ভোট মিটলে ফের ছেড়ে দেওয়া হবে গাড়িগুলিকে।

বুকিং বাতিলের জেরে প্রভূত আর্থিক ক্ষতির মধ্যে পড়েছে হোটেল-রিসর্ট কর্তৃপক্ষ, ট্র্যাভেল এজেন্সি, ট্র্যাভেল এজেন্ট-সহ পর্যটন ব্যাবসার সঙ্গে যুক্ত সকলেই। এই পরিপ্রেক্ষিতে ২৭ মার্চ রাজ্যের কেন্দ্রগুলিতে ভোট পিছিয়ে দেওয়ার দাবি নিয়ে কলকাতায় নির্বাচন কমিশনের দফতরে লিখিত ভাবে আর্জি জানাল ট্র্যাভেল এজেন্টস অ্যাসোসিয়েশন অফ বেঙ্গল (TAAB)।

সংগঠনের দাবি, ভোটের কারণে পর্যটকদের বুকিং বাতিলের ফলে কম করে ৫০ কোটি টাকা ক্ষতির সম্মুখীন তাঁরা। ট্যাবের সাধারণ সম্পাদক নীলাঞ্জন বসু এই প্রসঙ্গেই বলেন, “অতিমারির কারণে পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, ঝাড়গ্রামের পর্যটনে ব্যাপক প্রভাব পড়েছিল। আমরা তাই দোলের দিকেই তাকিয়েছিলাম, পর্যটন ব্যবসায়ে লাভের আশায়। লক্ষাধিক মানুষ এই সময়ে হোটেল বুক করেছিলেন। সেগুলো বাতিল হয়ে গেলে কী বিপুল আর্থিক ক্ষতি হবে তা আমরা ধারণাও করতে পারছি না।”

লিখিত আর্জিতে আরও জানানো হয়েছে যে ভোটের কাজ থেকে কেন্দ্র এবং রাজ্য পর্যটন দফতর স্বীকৃত গাড়িগুলোকে যাতে অন্তত রেহাই দেওয়া হয়। ট্যাবের এই লিখিত আর্জির কোনো প্রতিক্রিয়া এখনও নির্বাচন কমিশনের তরফে পাওয়া যায়নি।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

আচরণবিধি ভঙ্গ! পেট্রোল পাম্প থেকে নরেন্দ্র মোদীর ছবি সরানোর নির্দেশ নির্বাচন কমিশনের

Continue Reading

ভ্রমণের খবর

দোলেই ভোট! পর্যটন ব্যবসায়ে ব্যাপক ক্ষতির আশঙ্কায় হতাশ রাঢ়বঙ্গ

২৪ থেকে ৩১ মার্চ, পুরুলিয়া-ঝাড়গ্রাম যাওয়া অনুচিত!

Published

on

দোলের পরেই পড়বে গরম, আসবেন না পর্যটকরা। হতাশ রাঢ়বঙ্গ। নিজস্ব চিত্র।

খবরঅনলাইন ডেস্ক: টানা কয়েক মাস বন্ধ থাকার পর সদ্য গত বছর অক্টোবর থেকে আশার আলো দেখতে শুরু করেছিল পুরুলিয়া, ঝাড়গ্রাম-সহ রাঢ়বঙ্গের পর্যটন। গত বছর দোলের পর বন্ধ হয়ে যাওয়া পর্যটন, ধীরে ধীরে খুলতে শুরু করেছিল দুর্গাপুজোর পর থেকে। করোনাতঙ্ক কাটিয়ে মানুষও বেরিয়ে পড়ছিলেন ভ্রমণে।

আশা ছিল এই দোলের সময়ে পর্যটকদের ঢল নামবে রাঢ়বঙ্গে। পলাশের পার্বণে মেতে উঠবে এই সব অঞ্চল। পর্যটন ব্যবসায়ী-সহ স্থানীয় মানুষজন ফের লাভের আশা দেখতে শুরু করেছিলেন।

Loading videos...

কিন্তু সব আশায় জল ঢেলে দিল নির্বাচন কমিশন। রাজ্যের ৮টা দফা ভোটের প্রথম দফাটিই পড়েছে পুরুলিয়া-ঝাড়গ্রাম। এবং সেটা ২৭ মার্চ, অর্থাৎ দোলের আগের দিন। এই পরিস্থিতিতে রাঢ়বঙ্গের পর্যটনে আচমকা কালো মেঘ ঘনিয়ে এসেছে। ভোটের সময়ে পরিস্থিতি অশান্ত হওয়ার আশঙ্কা থেকেই যায়। তাই ইতিমধ্যেই দোল এবং আশেপাশের তিন-চারটে দিনের বুকিং বাতিল করতে শুরু করে দিয়েছেন পর্যটকরা।

নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্তে রীতিমতো ক্ষুব্ধ পর্যটন ব্যবসায়ীরা। বড়ন্তির একটি রিসর্টের কর্ণধার সপ্তর্ষি রায় বলেন, “পুরুলিয়া এমনিতেই পিছিয়ে পড়া জেলা। কিন্তু বর্তমানে পর্যটনের সুবাদে পর্যটন ব্যবসায়ীরা তো বটেই স্থানীয় মানুষজনের আর্থিক অবস্থাও অনেকটাই উন্নত হয়েছে। করোনার কারণে দীর্ঘ কয়েক মাস বন্ধ ছিল পর্যটন। বিপুল ক্ষতির মুখে পড়েছিলেন সবাই। এ বার দোলের সময়েই ভোট স্থানীয় মানুষদের কাছে একটা বড়ো আঘাত।”

ভোটের সময়ে নিজের রিসর্ট খুলে রাখতে পারবেন কি না জানেন না সপ্তর্ষিবাবু। পুলিশের তরফে কী নির্দেশ আসে, সেই দিকেই তাকিয়ে রয়েছেন তিনি।

ভ্রমণ ব্যবসায়ে যুক্ত সৌরভ নায়েক নির্বাচন কমিশনের এই সিদ্ধান্তে হতাশ। হোটেল বা রিসর্ট খোলা থাকলেও তাঁর চিন্তা গাড়ির পরিষেবা নিয়ে। তাঁর বক্তব্য, ট্রেনে করে কোনো স্পটে যদি চলেও যাওয়া যায়, সে ক্ষেত্রেও ঘরবন্দি হয়েই হয়তো কাটাতে হবে, কারণ ভ্রমণের গাড়ি হয়তো পাওয়াই যাবে না। তাঁর উপদেশ, অন্তত ২৪ থেকে ৩১ মার্চ পর্যন্ত রাঢ়বঙ্গে যাওয়া উচিত নয়।

এই সাত দিনের সময়টাই যে পিক সিজন এ বার। সেই সময়টা কাটিয়ে পর্যটনের পালে হাওয়া লাগবে কি না, সেই নিয়েও প্রশ্ন থেকে যাচ্ছে। কারণ, এর পরেই গরম পড়ে যাবে। এপ্রিলের গরমে রাঢ়বঙ্গকে এড়িয়েই যেতে চাইবেন পর্যটকরা।

বাংলার বিভিন্ন দিক চষে বেড়ানো ভ্রামণিক সঞ্জয় গোস্বামী চাঁচাছোলা ভাবেই বলে দিচ্ছেন যে পর্যটনের সঙ্গে যুক্ত মানুষজনের পেটে সরাসরি হাত দিয়ে দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। তিনি বলেন, “গোটা রাঢ়বঙ্গের পর্যটন শিল্প চলে এই সময়টার ওপর ভিত্তি করে। আজ তাদের জন্য ভোটের করাল গ্রাসের খবর।”

কিন্তু এই ব্যাপারটার সমাধান আগেই মিলত বলে মনে করেন সঞ্জয়বাবু। তাঁর কথায়, “আমার প্রশ্ন হল পর্যটনের সঙ্গে সম্পর্কিত কয়েকশো প্ল্যাটফর্ম বা বিভিন্ন ইউনিয়নের তো নির্বাচন কমিশনের কাছে যাওয়া উচিত ছিল অনেক আগেই। সব সরকারের উপর ছেড়ে বসে না থেকে নিজেদেরই এগিয়ে যাওয়া উচিত ছিল।”

ভারতে খেলাধুলো (ক্রিকেট বাদে) এবং পর্যটন সব থেকে ব্রাত্য বিষয় বলেই মনে করেন সঞ্জয়বাবু।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

দু’মাস আগের টুইট মনে করিয়ে বিজেপির উদ্দেশে প্রশান্ত কিশোর বললেন, “বাংলা নিজের মেয়েকেই চায়”

Continue Reading

ভ্রমণের খবর

পর্যটন শিল্পকে চাঙ্গা করতে উদ্যোগী রাজ্য, বাজেটে বরাদ্দ ১০ কোটি টাকা

বেশ কয়েক বছর ধরেই পর্যটনে বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছে রাজ্য সরকার।

Published

on

খবরঅনলাইন ডেস্ক: করোনা অতিমারির ভয়াবহ প্রভাব পড়েছে রাজ্যের পর্যটন শিল্পে। এই শিল্পকে চাঙ্গা করতে রাজ্য বাজেটে পর্যটনের দিকেও বিশেষ নজর দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পর্যটনে ১০ কোটি টাকা বরাদ্দের প্রস্তাব দেন তিনি।

এক দিকে পর্যটনকেন্দ্রগুলিকে ঢেলে সাজা অন্য দিকে এর মাধ্যমে কর্মসংস্থান সৃষ্টি করা বা যাঁরা এই শিল্পের সঙ্গে যুক্ত তাঁদের সমৃদ্ধ করাও যে লক্ষ্য তা তাঁর এ দিনের বাজেট থেকে আবার স্পষ্ট হল।

Loading videos...

শুক্রবার রাজ্য বাজেট পেশ করার সময়ে পর্যটন সহায়তা প্রকল্পের ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। এই প্রকল্পের আওতায় আসবে রিসর্ট, হোটেল, হোমস্টে, ভ্রমণ সহায়ক সংস্থাগুলি।  ৫০ হাজার থেকে ১০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ব্যাঙ্ক ঋণ পাওযার সুবিধা দেওয়ার কথাও এ দিন জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। সুদের ৫০ শতাংশ প্রথম বছরে বহন করবে রাজ্য।

বাজেট ভাষণে তিনি বলেন, “কোভিড-১৯ অতিমারিতে ভ্রমণ ও পর্যটন শিল্প বিশেষ ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বিভিন্ন সংস্থা ও বহু মানুষ এই শিল্পের সঙ্গে যুক্ত। এই সব সংস্থার পাশে দাঁড়ানোর জন্য রাজ্য সরকার একটি পর্যটন সহায়ক প্রকল্প শুরু করেছে।” এ ছাড়াও আগামী পাঁচ বছরের জন্য একটি নতুন ইনসেনটিভ স্কিমের কথাও ঘোষণা করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

বেশ কয়েক বছর ধরেই পর্যটনে বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছে রাজ্য সরকার। পর্যটন মেলাও চলছে বেশ কয়েক বছর ধরে। গত কয়েক বছরে রাজ্যের পর্যটন শিল্পে বেশ উন্নতিও হয়েছে। যদিও অতিমারির কারণে ২০২০-এর মার্চ থেকে জুন পর্যন্ত পর্যটন পুরোপুরি বন্ধ থাকায় ব্যাপক ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিলেন এই শিল্পের সঙ্গে যুক্ত মানুষজন।

খবরঅনলাইনে আরও পড়ুন

আজ সন্ধ্যার পর রাজ্য জুড়ে ঝড়বৃষ্টির সম্ভাবনা, কোথাও কোথাও শিলাবৃষ্টিও

Continue Reading
Advertisement
Advertisement
বিদেশ1 hour ago

ব্রিটিশ রাজপরিবারের কিছু সদস্যকে বর্ণবিদ্বেষী বলে চার্লসের পুত্রবধূ মেঘান বললেন, তিনি ‘আর বেঁচে থাকতে চাননি’

ফুটবল2 hours ago

‘সাডেন ডেথ’-এ গোয়াকে হারিয়ে এই প্রথম আইএসএল-এর ফাইনালে মুম্বই

শিক্ষা ও কেরিয়ার3 hours ago

জয়েন্ট এনট্রান্স মেন ২০২১-এর ফেব্রুয়ারি সেশনের ফল প্রকাশিত

কলকাতা4 hours ago

নিউ কয়লাঘাট বিল্ডিং-এ রেলের দফতরে আগুন, ৭ জনের মৃত্যু, ২ জন নিখোঁজ

রাজ্য6 hours ago

অস্বস্তি বাড়িয়ে রাজ্যে ব্যাপক ভাবে বাড়ল সংক্রমণের হার

রাজ্য10 hours ago

সোমেন মিত্রের স্ত্রী-পুত্রের বিজেপিতে যোগদান নিয়ে জল্পনা

রাজ্য11 hours ago

মুখ্যমন্ত্রীর ছায়াসঙ্গী, সিঙ্গুরের বিধায়ক রবীন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য-সহ তৃণমূলের একাধিক হেভিওয়েট বিজেপিতে

দেশ11 hours ago

ধর্ষককে বিয়ে করতে বলেননি, জানিয়ে দিলেন প্রধান বিচারপতির

রাজ্য3 days ago

কেন তড়িঘড়ি প্রার্থী তালিকা প্রকাশ তৃণমূলের, সরব পশ্চিমবঙ্গে বিজেপির সহ-পর্যবেক্ষক অমিত মালব্য

রাজ্য2 days ago

লড়াই মুখোমুখি! নন্দীগ্রামে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে দাঁড়াচ্ছেন শুভেন্দু অধিকারী

রাজ্য2 days ago

অস্বস্তি বাড়াচ্ছে রাজ্যের করোনা সংক্রমণ, কলকাতাতেও বাড়ল আক্রান্তের সংখ্যা

রাজ্য2 days ago

বিজেপির ব্রিগেড: বাংলা চায় প্রগতিশীল বাংলা, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

দেশ2 days ago

স্বামী থাকতেও প্রেমিক খুঁজছেন ভারতের বিবাহিত মহিলারা! এটা কি খারাপ খবর?

প্রবন্ধ3 days ago

ভরা ব্রিগেডের জনসভা কি প্রত্যাশা পূরণের কোনো ইঙ্গিত দিতে পারল?

ক্রিকেট2 days ago

ইংল্যান্ডকে ৩-১ ব্যবধানে হারিয়ে সিরিজ জিতল ভারত

রাজ্য2 days ago

আজ ব্রিগেডে নরেন্দ্র মোদী, সকাল হতেই ভিড় বিজেপি কর্মী-সমর্থকদের

কেনাকাটা

কেনাকাটা4 weeks ago

সরস্বতী পুজোর পোশাক, ছোটোদের জন্য কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সরস্বতী পুজোয় প্রায় সব ছোটো ছেলেমেয়েই হলুদ লাল ও অন্যান্য রঙের শাড়ি, পাঞ্জাবিতে সেজে ওঠে। তাই ছোটোদের জন্য...

কেনাকাটা1 month ago

সরস্বতী পুজো স্পেশাল হলুদ শাড়ির নতুন কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই সরস্বতী পুজো। এই দিন বয়স নির্বিশেষে সবাই হলুদ রঙের পোশাকের প্রতি বেশি আকর্ষিত হয়। তাই হলুদ রঙের...

কেনাকাটা1 month ago

বাসন্তী রঙের পোশাক খুঁজছেন?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: সামনেই আসছে সরস্বতী পুজো। সেই দিন হলুদ বা বাসন্তী রঙের পোশাক পরার একটা চল রয়েছে অনেকের মধ্যেই। ওই...

কেনাকাটা1 month ago

ঘরদোরের মেকওভার করতে চান? এগুলি খুবই উপযুক্ত

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ঘরদোর সব একঘেয়ে লাগছে? মেকওভার করুন সাধ্যের মধ্যে। নাগালের মধ্যে থাকা কয়েকটি আইটেম রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার...

কেনাকাটা2 months ago

সিলিকন প্রোডাক্ট রোজের ব্যবহারের জন্য খুবই সুবিধেজনক

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যপ্রয়োজনীয় বিভিন্ন সামগ্রী এখন সিলিকনের। এগুলির ব্যবহার যেমন সুবিধের তেমনই পরিষ্কার করাও সহজ। তেমনই কয়েকটি কাজের সামগ্রীর খোঁজ...

কেনাকাটা2 months ago

আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আজ রইল আরও কয়েকটি ব্র্যান্ডেড মেকআপ সামগ্রী ৯৯ টাকার মধ্যে অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন লেখার সময় যে দাম ছিল...

কেনাকাটা2 months ago

রান্নাঘরের এই সামগ্রীগুলি কি আপনার সংগ্রহে আছে?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরে বাসনপত্রের এমন অনেক সুবিধেজনক কালেকশন আছে যেগুলি থাকলে কাজ অনেক সহজ হয়ে যেতে পারে। এমনকি দেখতেও সুন্দর।...

কেনাকাটা2 months ago

৫০% পর্যন্ত ছাড় রয়েছে এই প্যান্ট্রি আইটেমগুলিতে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দৈনন্দিন জীবনের নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসগুলির মধ্যে বেশ কিছু এখন পাওয়া যাচ্ছে প্রায় ৫০% বা তার বেশি ছাড়ে। তার মধ্যে...

কেনাকাটা2 months ago

ঘরের জন্য কয়েকটি খুবই প্রয়োজনীয় সামগ্রী

খবরঅনলাইন ডেস্ক: নিত্যদিনের প্রয়োজনীয় ও সুবিধাজনক বেশ কয়েকটি সামগ্রীর খোঁজ রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদনটি লেখার সময় যে দাম ছিল তা-ই...

কেনাকাটা2 months ago

৯৯ টাকার মধ্যে ব্র্যান্ডেড মেকআপের সামগ্রী

খবর অনলাইন ডেস্ক : ব্র্যান্ডেড সামগ্রী যদি নাগালের মধ্যে এসে যায় তা হলে তো কোনো কথাই নেই। তেমনই বেশ কিছু...

নজরে