বাজেট তৈরির সূচনায় কেন ‘হালুয়া’ রাঁধেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী?

0
halwa ceremony
হালুয়া তৈরিতে হাত লাগিয়েছেন তৎকালীন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী পি চিদম্বরম এবং অরুণ জেটলিরা।

ওয়েবডেস্ক: বহু ভাষাভাষীর দেশ ভারতবর্ষে বহু রীতিনীতির সমাহার। সামাজিক জীবনের তেমনই কিছু রীতি কালের নিয়মে ব-কলমে হয়ে ঢুকে পড়ছে সংসদ ভবনেও। যার মধ্যে অন্যতম এই হালুয়া অনুষ্ঠান।

কেন্দ্রীয় বাজেট পেশ তৈরির সূচনায় হালুয়া অনুষ্ঠানের চল বেশ পুরনো। হালুয়া অনুষ্ঠানের মাধ্যমেই বাজেট পেশের মূলপর্বের কাজ শুরু হয়। অর্থাৎ, কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রক এবং অন্যান্য মন্ত্রকের আনুমানিক আয়-ব্যয়ের হিসাব একত্রিত করে তৈরি হওয়া বাজেট পেশ করতে হলে প্রয়োজন ছাপার অক্ষরে প্রতিবেদনের। যা তুলে দেওয়া হয় রাষ্ট্রপতি এবং সাংসদ-সহ সংশ্লিষ্টদের হাতে। সেই প্রতিবেদন যে দিন ছাপার জন্য মূদ্রণালয়ে যায়, সে দিনই অনুষ্ঠিত হয় এই হালুয়া অনুষ্ঠান।

অর্থমন্ত্রী-সহ মন্ত্রকের আধিকারিকরা এই বিশেষ অনুষ্ঠানে অংশ নেন। থাকেন মূদ্রণ বিভাগের কর্মীরাও। হালুয়া তৈরির পর তা অর্থমন্ত্রী নিজে হাতে কারও হাতে তুলে দিয়ে অনুষ্ঠানের সূচনা করেন। এমনকী হালুয়া তৈরিতে হাত লাগাতেও দেখা যায় তাঁদের। কিন্তু এরই সঙ্গে লাগু হয়ে যায় আরও একটি নিময়।

হালুয়া অনুষ্ঠানের পর বাজেট প্রতিবেদনের ছাপার কাজ শুরু হয়ে যাওয়ার পর মন্ত্রকের সংশ্লিষ্ট আধিকারিকদের একাংশ এবং ছাপাখানার কর্মীরা আর বাড়ি যেতে পারেন না, থেকে যেতে হয় নর্থ ব্লকে। যতক্ষণ না সংসদে বাজেট প্রতিবেদন পেশ হচ্ছে, তাঁদের সঙ্গে পরিবারের প্রত্যক্ষ যোগযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় নিয়ম মেনেই।

প্রসঙ্গত, লোকসভায় বাজেট পেশের প্রায় সপ্তাহখানেক আগেই এই অনুষ্ঠানের আয়োজন হয়। কারণটাও খুব স্পষ্ট। ভারতীয় সংস্কৃতি এবং ঐতিহ্য মেনে, কোনো গুরুত্বপূর্ণ কাজের সূচনায় মিষ্টি মুখ করানোর কথা কার-ই বা অজানা!

------------------------------------------------
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.