belgiumwcfinal

বেলজিয়াম – ৩                       পানামা – ০

ওয়েবডেস্ক: জয় দিয়েই অভিযান শুরু করল বিশ্বকাপের ডার্ক হর্স বেলজিয়াম। সোমবার গ্রুপের প্রথম ম্যাচে তাদের সামনে দাঁড়াতেই পারল না বিশ্বকাপে প্রথম বার আবির্ভাব হওয়া পানামা। ম্যাচে যে ধারে ভারে তাদের প্রাধান্যই কাম্য ছিল তা প্রথম থেকেই বোঝাতে শুরু করে বেলজিয়াম।

শুরুতেই ক্যারাস্কোর শট বাঁচিয়ে দেন পানামা গোলকিপার পেনাডো। বিশ্বকাপের মঞ্চে প্রথম বার খেলতে গিয়ে যে চাপ থাকবে তা আর বোর অপেক্ষা রাখে না। ফলে আক্রমণের থেকে ডিফেন্সে জোর দিয়ে এগোনোর চেষ্টা চালায় পানামা। ক্রমাগত চাপ রাখার ফলে সুযোগ পেয়ে গিয়েছিলেন বেলজিয়াম অধিনায়ক হ্যাজার্ড। কিন্তু কার্যকর করতে পারেননি তিনি। শুধু পজিশন নয়, মাঝমাঠ থেকেও ক্রমাগত শটে নিজেদের খাতা খোলার চেষ্টা চালাচ্ছিল তারা। সৌজন্যে দলের তারকা খেলোয়াড় ডি ব্রুইন। সারা ম্যাচে নজর কাড়লেন তিনি। বিরতিতে যাওয়ার আগে ফের সুযোগ পেয়েছিলেন হ্যাজার্ড কিন্তু তাঁর ভলি বাঁচিয়ে দেন পানামা গোলকিপার।

দ্বিতীয়ার্ধে অবশ্য শুরু থেকেই আক্রমণ লুকাকুদের। এবং মিনিট দু’য়েকের মধ্যে প্রথম গোল মারটেন্সের। বিশ্বমানের ভলিতে গোল গোলকিপারের দেখা ছাড়া আর কোনো উপায় ছিল না। তবে দশ মিনিটের মধ্যে সারা ম্যচে নিজদের সব থেকে সহজ সুযোগ হাতছাড়া করেন পানামার মুরিলো। প্রতি-আক্রমণে কিছুটা চেষ্টা চালালেও, অভিজ্ঞতার কারণে ম্যাচ শেষ হওয়ার কুড়ি মিনিট আগে  দলের দ্বিতীয় এবং নিজের প্রথম গোল করেন প্রথমার্ধে তেমন চোখে না পড়া লুকাকু। এর পর আর ফিরে তাকাতে হয়নি তাদের। পাঁচ মিনিটের মধ্যে ফের গোল লুকাকুর। আক্রমণ তেজ থাকলেও ব্যবধান অবশ্য আর বাড়েনি।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here