ওয়েবডেস্ক: ২০০৫ থেকে ২০০৮ পর্যন্ত ম্যাচেস্টার ইউনাইটেডে খেলতেন সিআর সেভেন। সেই পর্যায়ে ২০০৭, ২০০৮ এবং ২০০৯ সালে প্রিমিয়ার লিগ জিতেছিল তাঁর দল। কোচ ছিলেন স্যার অ্যালেক্স ফার্গুসন। ২০০৮ সালে উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগও জিতেছিলেন তাঁরা। সেই সময় ম্যান ইউ-তে রোনাল্ডোর সতীর্থ ছিলেন ফরাসি ডিফেন্ডার প্যাট্রিস এভ্রা। সেই এভ্রা এবারের বিশ্বকাপে একটি টিভি চ্যানেলে বিশেষজ্ঞ হিসেবে ধারাভাষ্য দিচ্ছেন।

স্পেনের বিরুদ্ধে রোনাল্ডোর হ্যাটট্রিকের দিন কমেন্ট্রি বক্সে বসে সকলকে এভ্রা পরামর্শ দেন, রোনাল্ডো কখনও মধ্যাহ্নভোজনের নিমন্ত্রণ করলে না যেতে। কারণ? এ প্রসঙ্গে একটি ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতার কথা শুনিয়েছেন প্যাট্রিস।

তিনি বলেন, একদিন অনুশীলনের পরে ক্রিশ্চিয়ানো তাঁকে তাঁর সঙ্গে লাঞ্চ করতে আমন্ত্রণ জানান। খুব ক্লান্ত অবস্থায় এভ্রা যান। কিন্তু লাঞ্চে ছিল কেবল স্যালাড ও সাদা চিকেন। অর্থাৎ শুধু স্বাস্থ্যকর খাবার।  সেগুলোর পরে ফলের রসও আসেনি। এসেছিল স্রেফ জল। এভ্রার কথায়, “আমি ভাবছিলাম, এই বুঝি রেড মিট আসবে, কিন্তু এল না।”

সেখানেই শেষ নয়। খাওয়ার পরেই একটা বল নিয়ে রোনাল্ডো অনুশীলন শুরু করে দেন। দু’জনে মিলে টু টাচ খেলতে থাকেন। কিছুক্ষণ সেটা চলার পর রোনাল্ডো সুইমিং পুলে যান। সেখানে জাকুজি ও সাওনা বাথ নেন। তখন প্যাট্রিস বাধ্য হয়ে বলেন, “আমরা এখানে কেন জড়ো হয়েছি? আমাদের কি কাল কোনো খেলা আছে?”

তাই এভ্রার সকলকে পরামর্শ, রোনাল্ডো দুপুরে খাওয়ার নিমন্ত্রণ করলে না যাতে। তাঁর মতে সিআরসেভেন একটা যন্ত্র। সে কখনও হারতে শেখেনি। কোনো হারই সে মেনে নিতে পারে না।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here