Homeখবরদেশঅবশেষে ফোনে আড়ি পাতার মামলায় জামিন পেলেন জাতীয় স্টক এক্সচেঞ্জ-এর প্রাক্তন সিইও

অবশেষে ফোনে আড়ি পাতার মামলায় জামিন পেলেন জাতীয় স্টক এক্সচেঞ্জ-এর প্রাক্তন সিইও

প্রকাশিত

নয়া দিল্লি : অবশেষে জামিন পেলেন ন্যাশনাল স্টক এক্সচেঞ্জ এর প্রাক্তন এমডি তথা সিইও চিত্রা রামাকৃষ্ণা। সিবিআই এর পর এবার ইডির মামলাতেও জামিন পেলেন তিনি। বৃহস্পতিবার দিল্লি হাইকোর্টের তরফে জামিন দেওয়া হয় চিত্রা রামাকৃষ্ণাকে।

২০২২ সালের ১৪ জুলাই ফোনে আড়ি পাতার মামলায় গ্রেফতার করা হয়েছিল তাঁকে। গ্রেফতার করেছিলেন ইডি আধিকারিকরা। যদিও তার আগেই এই মামলায় তাকে জামিন দিয়েছিলেন সিবিআই আধিকারিকরা। সেই জামিনের বিরোধিতা করে চিত্রা রামাকৃষ্ণাকে গ্রেফতার করে ইডি।

ইডির দাবি ছিল এই ঘটনার মূল চক্রি হলেন চিত্রা। অন্যদিকে তাঁর দাবি ছিল তার বিরুদ্ধে নির্দিষ্ট নির্দিষ্ট অপরাধের কোন অভিযোগই করা হয়নি। দুপক্ষের যুক্তি শোনার পর বিচারপতি জসমিত সিং মেনে নেন চিত্রা রামাকৃষ্ণার জামিনের আবেদন।

ন্যাশনাল স্টক এক্সচেঞ্জের কর্মীদের ফোনে অবৈধভাবে আড়ি পাতার অভিযোগ রয়েছে। এই ভাবে এনএসই-কে-র সঙ্গে জালিয়াতি করার ষড়যন্ত্র করা হয়েছিল। ইডির মতে ২০০৯ থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত এই কাজ চলছিল। স্টক এক্সচেঞ্জের প্রাক্তন সিইও রবি নারাইন, চিত্রা রামকৃষ্ণা, এক্সিকিউটিভ ভাইস প্রেসিডেন্ট রবি বারানসী-সহ আরও কয়েকজন এই ষড়যন্ত্রে জড়িত। সাইবার দুর্বলতা পরীক্ষার নামে এই আড়ি পাতা চলত।

সিবিআই এবং ইডির অভিযোগে বলা হয়েছে, এই ভাবে কর্মীদের ফোনে আড়ি পাতা টেলিগ্রাফ আইনের লঙ্ঘনকারী। অথচ, এই কাজ করার জন্য ৪.৫৪ কোটি টাকা দেওয়া হয়েছিল আইসেক সার্ভিসেস প্রাইভেট লিমিটেড নামে এক সংস্থাকে। এর পাশাপাশি আনন্দ সুব্রহ্মণ্য নামে সংস্থার এক প্রাক্তন কর্মীর বেতন ঘন ঘন বৃদ্ধি সংক্রান্ত আর্থিক কেলেঙ্কারির অভিযোগ রয়েছে। অবশেষে এই মামলায় জামিন পেলেন ন্যাশনাল স্টক এক্সচেঞ্জের প্রাক্তন এমডি তথা সিইও চিত্রা রামাকৃষ্ণা।

সাম্প্রতিকতম

জার্মানি, সুইৎজারল্যান্ডে নেই, ভারতের সেরেল্যাকে অত্যধিক চিনি, তদন্তের নির্দেশ

এ নিয়ে একটি আন্তর্জাতিক রিপোর্ট সামনে আসার সঙ্গে  তৎপর হল কেন্দ্র। ইতিমধ্যে নেসলে কোম্পানির শিশুখাদ্য নিয়ে তদন্ত শুরু করছে  স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের অধীন খাদ্য সুরক্ষা নিয়ন্ত্রক (এফএসএসএআই)।

শহরে অত্যধিক গরমের অনুভূতির কারণ ‘আরবান হিট আইল্যান্ড’

শ্রয়ণ সেন তাপপ্রবাহের কবলে দক্ষিণবঙ্গ। এই অঞ্চলের ১৫টি জেলার মধ্যে দক্ষিণ ২৪ পরগণা এবং পূর্ব...

লোকসভা নির্বাচনের প্রথম দফায় রেকর্ড ভোট পড়ল ত্রিপুরায়, দ্বিতীয় স্থানে বাংলা

কমিশনের তথ্য অনুযায়ী সন্ধে সাতটা পর্যন্ত ভোট পড়েছে, ৭৯.৯০ প্রথম দফায় ৫৮১৪ বুথে ভোটগ্রহণ হয়েছে। ১০০ শতাংশ বুথে এদিন কেন্দ্রীয় বাহিনী ছিল।

ভোট না দিয়ে ফেরত যাবেন না! পরিযায়ী শ্রমিকদের ‘সতর্কবার্তা’ মমতার

মুর্শিদাবাদের জনসভায় তিনি বলেন, 'আমি সমস্ত পরিযায়ী শ্রমিকদের অনুরোধ করতে চাই যারা এখানে ঈদ উদযাপন করতে এসেছেন, দয়া করে ভোট না দিয়ে ফিরে যাবেন না।

আরও পড়ুন

জার্মানি, সুইৎজারল্যান্ডে নেই, ভারতের সেরেল্যাকে অত্যধিক চিনি, তদন্তের নির্দেশ

এ নিয়ে একটি আন্তর্জাতিক রিপোর্ট সামনে আসার সঙ্গে  তৎপর হল কেন্দ্র। ইতিমধ্যে নেসলে কোম্পানির শিশুখাদ্য নিয়ে তদন্ত শুরু করছে  স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের অধীন খাদ্য সুরক্ষা নিয়ন্ত্রক (এফএসএসএআই)।

লোকসভা নির্বাচনের প্রথম দফায় রেকর্ড ভোট পড়ল ত্রিপুরায়, দ্বিতীয় স্থানে বাংলা

কমিশনের তথ্য অনুযায়ী সন্ধে সাতটা পর্যন্ত ভোট পড়েছে, ৭৯.৯০ প্রথম দফায় ৫৮১৪ বুথে ভোটগ্রহণ হয়েছে। ১০০ শতাংশ বুথে এদিন কেন্দ্রীয় বাহিনী ছিল।

প্রথম দফায়  গডকরী, রিজিজু-সহ মোদী সরকারের ৮ মন্ত্রী, বিজেপির ২ প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী লড়ছেন ভোটে

লোকসভার পাশাপাশি   অরুণাচল প্রদেশের ৬০ এবং সিকিমের ৩২টি বিধানসভা আসনেও ভোট হবে শুক্রবার।