Homeখবররাজ্যতাপপ্রবাহের চোখ রাঙানি, ৪১ ডিগ্রি ছুঁয়ে ফেলতে পারে কলকাতার গরম

তাপপ্রবাহের চোখ রাঙানি, ৪১ ডিগ্রি ছুঁয়ে ফেলতে পারে কলকাতার গরম

প্রকাশিত

কলকাতা: শেষবেলায় চৈত্র। বাংলা নতুন বছর আর খুব বেশি দূরে নয়। এরই মধ্যে দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলায় এখন থেকেই হাঁসফাঁস অবস্থা। হাওয়া অফিস বলছে, কলকাতায় তাপপ্রবাহের পরিস্থিতি তৈরি হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। নতুন বছরের প্রথম দিন ৪১ ডিগ্রি সেলসিয়াসের ঘরে পৌঁছাতে পারে কলকাতার পারদ।

ইতিমধ্যেই রাজ্যের বেশ কিছু এলাকায় তাপমাত্রা পৌঁছে গিয়েছে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের কাছাকাছি। পয়লা বৈশাখ পর্যন্ত লাগাতার বাড়বে তাপমাত্রা। বৃষ্টির সম্ভাবনা প্রায় নেই। আলিপুর আবহাওয়া দফতর জানাচ্ছে, আগামী সপ্তাহের শুরু থেকেই তাপপ্রবাহের পরিস্থিতি তৈরির আশঙ্কা।

শনিবার সকালে কলকাতায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ২৬.৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা স্বাভাবিকের তুলনায় ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস বেশি। শুক্রবার বিকেলে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩৬.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা স্বাভাবিকের চেয়ে এক ডিগ্রি বেশি।

হাওয়া অফিস সতর্কতা জারি করে বলেছে, আগামী সপ্তাহে কোথাও কোথাও তাপপ্রবাহ হতে পারে। ১০ এপ্রিল থেকে ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত তাপপ্রবাহ হতে পারে। দক্ষিণবঙ্গের পশ্চিমের জেলা অর্থাৎ পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম মেদিনীপু-সহ একাধিক জেলায় তাপপ্রবাহের পরিস্থিতি সৃষ্টি হবে। শুধু তাই নয়, উত্তরবঙ্গের মালদহ ও দক্ষিণ দিনাজপুরেও তাপপ্রবাহের সতর্কবার্তা রয়েছে। এ ছাড়া উত্তরবঙ্গের অন্যান্য জেলাগুলিতে কমবে বৃষ্টির সম্ভাবনা। অন্য দিকে, আগামী ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত বৃষ্টির কোনো সম্ভাবনা নেই বাংলার কোনো জেলাতেই।

গত বৃহস্পতিবার এক সাংবাদিক বৈঠকে পূর্বাঞ্চলীয় আবহাওয়া অধিকর্তা সঞ্জীব বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, পয়লা বৈশাখ পর্যন্ত রাজ্যে বৃষ্টির তেমন সম্ভাবনা নেই। তিনি আরও বলেন, রাজ্যের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ধীরে ধীরে বাড়বে। ৬ থেকে ৯ এপ্রিল বৃদ্ধির হার কম থাকলেও ১০ থেকে ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত দ্রুত বাড়বে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা।

আবহাওয়াবিদদের মতে, গত বছর গ্রীষ্মের মরশুমে কলকাতায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যেই আটকে পড়েছিল। তবে এ বার তেমনটা হওয়ার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে। এর আগে ২০১৪ ও ২০১৬ সালের এপ্রিলে একাধিক দিনই কলকাতার তাপমাত্রা ৪০-এর উপরে ছিল। তবে ২০১৬ তার পর আর কলকাতার এপ্রিলের তাপমাত্রা চল্লিশে পৌঁছোয়নি।

অনুমান করা হচ্ছে, ১৪ এপ্রিল সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৪১ ডিগ্রি সেলসিয়াসের কাছাকাছি পৌঁছে গেলেও অবাক হওয়ার কিছু থাকবে না! শুধু তাই নয়, এপ্রিল থেকে জুন অর্থাৎ বৈশাখ, জ্যৈষ্ঠ ও আষাঢ়ের প্রথম দিকটা দেশের বেশির ভাগ অংশেই দিনের তাপমাত্রা স্বাভাবিকের তুলনায় বেশি থাকবে। তার মধ্যে আছে পশ্চিমবঙ্গও।

আরও পড়ুন: পার্কিং ফি বিতর্কে নয়া মোড়, সিদ্ধান্ত ফিরিয়ে নেওয়ার জন্য ‘ধন্যবাদ’ টুইট তৃণমূলের

সাম্প্রতিকতম

আইসিসি টি২০ বিশ্বকাপ ২০২৪: রোহিতের রুদ্র মূর্তি, অস্ট্রেলিয়াকে ২৪ রানে হারিয়ে সেমিফাইনালে ভারত   

ভারত: ২০২৫-৫ (রোহিত শর্মা ৯২, সূর্যকুমার যাদব ৩১, মিশেল স্টার্ক ২-৪৫, মার্কাস স্টয়নিস ২-৫৬) অস্ট্রেলিয়া:...

অযোধ্যার রামমন্দিরের ছাদ থেকে জল ‘লিক’ করছে, জানালেন প্রধান পুরোহিত

অযোধ্যা (উত্তরপ্রদেশ): প্রাণপ্রতিষ্ঠা করার মাসছয়েকের মধ্যেই অযোধ্যার রামমন্দিরের ছাদ থেকে জল ‘লিক’ করছে। ঠিক...

মহাকাশ থেকে দেখা ‘রাম সেতু’: অত্যাশ্চর্য ছবি শেয়ার ইউরোপীয় সংস্থার

রাম সেতুর একটি ছবি প্রকাশ করেছে ইউরোপিয়ান স্পেস এজেন্সি (ESA)। এই সেতুটি আদম ব্রিজ...

বাংলাদেশের সঙ্গে ফরাক্কা, তিস্তা চুক্তি প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রীকে কড়া চিঠি মুখ্যমন্ত্রীর

শনিবার দিল্লিতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একটি বৈঠক হয়। সেই...

আরও পড়ুন

বাংলাদেশের সঙ্গে ফরাক্কা, তিস্তা চুক্তি প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রীকে কড়া চিঠি মুখ্যমন্ত্রীর

শনিবার দিল্লিতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একটি বৈঠক হয়। সেই...

একুশ শতকের সব থেকে বিলম্বিত বর্ষা, অপেক্ষা অবশেষে শেষ হতে চলেছে

শ্রয়ণ সেন ২০০৫ সালে দক্ষিণবঙ্গে বর্ষা ঢুকেছিল ২০ জুন। চলতি শতাব্দীর সব থেকে বিলম্বিত বর্ষা...

সরকারি জমি ‘বেহাত’, ক্ষুব্ধ মুখ্যমন্ত্রীর কড়া বার্তা, সতর্কতা বিদ্যুৎ অপচয় নিয়েও

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রশ্ন তোলেন, কীভাবে সরকারি জমি বেহাত হচ্ছে এবং পুলিশ কেন তা প্রতিরোধ করতে ব্যর্থ হচ্ছে, তা নিয়ে।