Homeশিক্ষা ও কেরিয়াররাজ্যে ২৫৩ বিএড কলেজের অনুমোদন বাতিল, নেপথ্যে পরিকাঠামোর অভাব না দুর্নীতি?

রাজ্যে ২৫৩ বিএড কলেজের অনুমোদন বাতিল, নেপথ্যে পরিকাঠামোর অভাব না দুর্নীতি?

প্রকাশিত

পরিকাঠামোর অভাবের কারণে রাজ্যে এক ধাক্কায় ২৫৩টি বিএড কলেজের অনুমোদন বাতিলের সিদ্ধান্ত নিল রাজ্য বিএড বিশ্ববিদ্যালয়। রাজ্যে মোট বিএড কলেজের সংখ্যা ৬২৪ টির কাছাকাছি এর মধ্যে ২৫৩টির অনুমোদন বাতিল হয়ে যাওয়ায় বিপাকে পড়ুয়ারা। তবে পরিকাঠামোর যুক্তি সামনে এলেও, দুর্নীতির অভিযোগই বিএড কলেজের অনুমোদন বাতিলের অন্যতম কারণ বলে মনে করা হচ্ছে।

বিএড কলেজের অনুমোদন পেতে গেলে নির্দিষ্ট নিয়ম মেনে চলতে হয়। এই নিয়ম না মানা হলে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ অনুযায়ী বিএড কলেজের অনুমোদন মেলে না। ন্যাশনাল কাউন্সিল ফর টিচার্স এডুকেশনের (এনসিটিই) নিয়ম অনুযায়ী বিএড কলেজে শিক্ষিক ও পড়ুয়াদের একটি নির্দিষ্টি অনুপাত বজায় রাখতে হবে। সেই অনুপাত যদি বজায় না থাকে অনুমোদন দেওয়া যাবে না।

রাজ্যে মোট বিএড কলেজের ৬০০টি বেসরকারি এবং ২৪টি সরকারি। এর মধ্যে ৩৭১টি কলেজের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। বাকি ২৫৩টি কলেজের অনুমোদন মেলেনি।

যদিও রাজ্য বিএড বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য সোমা ভট্টাচার্য আগেই বিষয়টি সংবাদমাধ্যমে জানিয়েছিলেন। তিনি বলেন, ‘বিএড কলেজকে অনুমোদন দেওয়ার ক্ষেত্রে তিন বিষয় দেখা হয়ে থাকে। এর মধ্যে পড়ুয়া-শিক্ষক অনুপাত খুবই গুরুত্বপূর্ণ। যারা এই অনুপাত বজায় রাখছে না তাদের অনুমোদন দেওয়া হবে না।’ অনেকে ভুয়ো নথি দিয়েছে বলেও সংবাদমাধ্যমে অভিযোগ করেন তিনি।

তবে কয়েকটি বেসরকারি বিএড কলেজের দাবি, তারা শিক্ষক কম থাকার জন্য কোনও ভাবেই দায়ী নন। কারণ, অনেক শিক্ষক চলে যাওয়ায় তাঁরা নিয়োগ প্রক্রিয়া শুরু করে। কিন্তু শিক্ষকদের ইন্টারভিউ নেওয়ার আগেই আবার অনুমোদন পুনর্নবীকরণের জন্য আবেদন করতে হয়। ফলে তারা এনসিটিই শর্তাবলী মানতে পারেনি। তাদের দাবি, এক্ষেত্রে আরও কিছুদিন ছাড় দিতে পারত রাজ্য বিএড বিশ্ববিদ্যালয়।

বিএড বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য সাংবাদমাধ্যমে বলেন, ‘আপানারা দেখেছেন কী ভাবে নিয়োগ দুর্নীতির খরব সাংবাদমাধ্যমে আসছে। বিএড কলেজ থেকে ভুয়ো সার্টিফিকেট দেওয়ারও অভিযোগ উঠেছে। তাই আমাদের কড়া হওয়ার প্রয়োজন ছিল। দুর্নীতি হয়েছে কি হয়নি তার বিচার আদালত করবে। ’

আরও পডু়ন: নিয়োগ দুর্নীতির তদন্তে সিবিআইকে ডেডলাইন সুপ্রিম কোর্টের, আশার আলো দেখছেন চাকরিপ্রার্থীরা

সাম্প্রতিকতম

জার্মানি, সুইৎজারল্যান্ডে নেই, ভারতের সেরেল্যাকে অত্যধিক চিনি, তদন্তের নির্দেশ

এ নিয়ে একটি আন্তর্জাতিক রিপোর্ট সামনে আসার সঙ্গে  তৎপর হল কেন্দ্র। ইতিমধ্যে নেসলে কোম্পানির শিশুখাদ্য নিয়ে তদন্ত শুরু করছে  স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের অধীন খাদ্য সুরক্ষা নিয়ন্ত্রক (এফএসএসএআই)।

শহরে অত্যধিক গরমের অনুভূতির কারণ ‘আরবান হিট আইল্যান্ড’

শ্রয়ণ সেন তাপপ্রবাহের কবলে দক্ষিণবঙ্গ। এই অঞ্চলের ১৫টি জেলার মধ্যে দক্ষিণ ২৪ পরগণা এবং পূর্ব...

লোকসভা নির্বাচনের প্রথম দফায় রেকর্ড ভোট পড়ল ত্রিপুরায়, দ্বিতীয় স্থানে বাংলা

কমিশনের তথ্য অনুযায়ী সন্ধে সাতটা পর্যন্ত ভোট পড়েছে, ৭৯.৯০ প্রথম দফায় ৫৮১৪ বুথে ভোটগ্রহণ হয়েছে। ১০০ শতাংশ বুথে এদিন কেন্দ্রীয় বাহিনী ছিল।

ভোট না দিয়ে ফেরত যাবেন না! পরিযায়ী শ্রমিকদের ‘সতর্কবার্তা’ মমতার

মুর্শিদাবাদের জনসভায় তিনি বলেন, 'আমি সমস্ত পরিযায়ী শ্রমিকদের অনুরোধ করতে চাই যারা এখানে ঈদ উদযাপন করতে এসেছেন, দয়া করে ভোট না দিয়ে ফিরে যাবেন না।

আরও পড়ুন

হাইকোর্টের নির্দেশের পরই প্রস্তুতি, উচ্চ প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি

কলকাতা: মঙ্গলবার উচ্চ প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগে কাউন্সেলিংয়ের নির্দেশ দেয় কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি সৌমেন সেনের...

পুজোর মুখে সুখবর! উচ্চ প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগের প্রস্তুতি এসএসসি-র

কলকাতা: দুর্গাপুজোর আবহে চাকরিপ্রার্থীদের জন্য মন ভালো করা খবর! উচ্চ প্রাথমিকে প্রায় ১৪ হাজার...

রাজ্যে প্রাথমিকের বৃত্তি পরীক্ষা শুরু হল মঙ্গলবার, পরীক্ষার্থী প্রায় ১.৬০ লক্ষ

উজ্জ্বল বন্দ্যোপাধ্যায়: রাজ্যের প্রাথমিক শিক্ষা উন্নয়ন পর্ষদের উদ্যোগে মঙ্গলবার থেকে শুরু হল চতুর্থ শ্রেণির...