Homeচাষবাসের খবরপ্রাকৃতিক সম্পদকে চাষের কাজে ব্যবহার, প্রশিক্ষণ শিবির নিমপীঠে

প্রাকৃতিক সম্পদকে চাষের কাজে ব্যবহার, প্রশিক্ষণ শিবির নিমপীঠে

প্রকাশিত

উজ্জ্বল বন্দ্যোপাধ্যায়, নিমপীঠ: রাসায়নিকের হাত থেকে ফসলকে রক্ষা করতে জৈব চাষের উপর গুরুত্ব দিচ্ছে সরকার। আর কৃষকদের এই কাজে হাতে-কলমে প্রশিক্ষণ দিয়ে সহায়তা করছে নিমপীঠ রামকৃষ্ণ কৃষি বিজ্ঞান কেন্দ্র।

আমাদের ঘরে থাকা নিত্য ব্যবহার্য সামগ্রী থেকে জৈবসার তৈরি করা হচ্ছে। সেই সার দিয়ে চাষ করে কৃষকরা খুঁজে পাচ্ছেন বিকল্প কর্মসংস্থানের দিশা। গত শুক্রবার থেকে হওয়া দু’দিনের প্রাকৃতিক চাষের উপর সুন্দরবন এলাকার কৃষকদের নিয়ে প্রশিক্ষণ শিবির শেষ হয়ে গেল নিমপীঠে। জয়নগর-২ ব্লকের নিমপীঠ রামকৃষ্ণ কৃষি বিজ্ঞান কেন্দ্রে প্রাকৃতিক সম্পদকে কাজে লাগিয়ে চাষের কাজকে কী ভাবে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে, সে বিষয়ে প্রশিক্ষণ দেওয়া হয় দু’দিন ধরে।

সুন্দরবনের কুলতলি, জয়নগর, কাকদ্বীপ, মথুরাপুর-২, পাথরপ্রতিমা ও নামখানা ব্লক থেকে ৪০ জন কৃষক এই প্রশিক্ষণ শিবিরে অংশ নেন গত দু’দিন ধরে। নিমপীঠ কৃষি বিজ্ঞান কেন্দ্রের কৃষি বিজ্ঞানী সোমনাথ সরদার গত দু’দিন ধরে এই প্রশিক্ষণ দেন আগত সুন্দরবনের কৃষকদের।

এ বিষয়ে কৃষি বিজ্ঞানী সোমনাথ সরদার বলেন, “জৈব চাষের ফসল ভালো হয়। আয়ু বেশি হয়। এই খাবারে ক্ষতি হয় না। শরীর ভালো থাকে। তাই আমাদের প্রাকৃতিক সম্পদকে কতটা চাষের কাজে লাগানো যায় এবং কী ভাবে লাগানো যায় সে বিষয়ে সুন্দরবনের কৃষকদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হল। যাতে তারা নিজেদের জমিতে প্রাকৃতিক সম্পদকে ব্যবহার করে মুনাফা অর্জন করতে পারে”।

অন্য দিকে, দু’দিনের এই শিবিরে এসে অনেক কিছু শিখতে পেরেছেন বলে মনে করেন আগত কৃষকেরা। তাঁদের কথায়, প্রাকৃতিক সম্পদকে চাষের কাজে ব্যবহার করলে বহুবিধ সুবিধার মিলবে। সে সব কথাই তুলে ধরা হয়েছে এই প্রশিক্ষণ শিবিরে।

আরও পড়ুন: বঞ্চনার অভিযোগ, কেন্দ্রের বিরুদ্ধে বিক্ষোভে চা শ্রমিকরা

সাম্প্রতিকতম

ভোট পরবর্তী হিংসা আক্রান্তদের নিয়ে রাজভবনে শুভেন্দু, কেন্দ্রীয় দল কথা বলল ঘরছাড়াদের সঙ্গে

ভোট পরবর্তী হিংসা নিয়ে রাজভবনে শুভেন্দু।ঘাটাল এবং কেশপুর লোকসভা এলাকার ১১৫ জন বিজেপি নেতাকর্মী ও বাসিন্দাদের নিয়ে তিনি রাজভবনে যান।

রাষ্ট্রবিজ্ঞান বই থেকে বাবরি বাদ, কেন? সাফাই দিলেন এনসিইআরটি প্রধান

এনসিইআরটি সম্প্রতি দ্বাদশ শ্রেণির নতুন রাষ্ট্রবিজ্ঞানের পাঠ্যপুস্তক প্রকাশ করেছে, যেখানে অযোধ্যার ইতিহাস নিয়ে উল্লেখযোগ্য...

আরও পড়ুন

মাঠে নেমেছে প্রশাসন ও দল, জোড়া ‘কৌশলে’ নিভবে কি সন্দেশখালির ক্ষোভের আগুন?

দলীয় সূত্রে খবর, তিনমন্ত্রীর হাত দিয়ে টাকা ফেরানোর কাজ শুরু হয়েছে। এর আগে মন্ত্রী পার্থ ভৌমিক স্বীকার করেছিলেন, গত দু’বছর ইজারার টাকা, ভেড়ির টাকা না দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে।

‘উত্তপ্ত’ সন্দেশখালিতে জারি ১৪৪ ধারা, থমথমে এলাকা

কলকাতা: উত্তপ্ত সন্দেশখালিতে জারি ১৪৪ ধারা! শুক্রবার রাত থেকে ত্রিমোহিনী বাজার-সহ সন্দেশখালি থানা এলাকায় ১৪৪...

নিয়ম না মানার অভিযোগ, সুন্দরবনে এ বার প্লাস্টিক বন্ধের নির্দেশ জারি বন দফতরের

উজ্জ্বল বন্দ্যোপাধ্যায়, সুন্দরবন: আবার সুন্দরবনে প্লাস্টিক বন্ধ করার নির্দেশ জারি করল বন দফতর।সুন্দরবন ব্যাঘ্র...